Alexa ১৬ বছরেই মা হয়েছিলেন পিয়া বিপাশা!

ঢাকা, বুধবার   ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০,   ফাল্গুন ১৩ ১৪২৬,   ০২ রজব ১৪৪১

Akash

১৬ বছরেই মা হয়েছিলেন পিয়া বিপাশা!

বিনোদন ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৩:৩৬ ২৪ ডিসেম্বর ২০১৯   আপডেট: ১৫:২৪ ২৪ ডিসেম্বর ২০১৯

পিয়া বিপাশা

পিয়া বিপাশা

শোবিজের আলোচিত মুখ পিয়া বিপাশা। বেশ কিছুদিন আগে বিদেশি এক ছেলের সঙ্গে হয়েছে বাগদান। ছেলে ইউরোপে থাকেন। বিয়ে করে সেখানেই স্থায়ী হওয়ার ইচ্ছে তার। বর্তমানে বেশিরভাগ সময়ই দেশের বাইরেও কাটান এই মডেল ও অভিনেত্রী।

মূলত মাঝে অনেকদিন কাজ থেকে দূরে ছিলেন পিয়া বিপাশা। এর আগে দ্বিতীয়বারের মতো বিয়ের পিঁড়িতে বসতে চলেছেন পিয়া বিপাশা এমন গুঞ্জন ওঠে। এখন আবারো মনোযোগ দিয়ে কাজ করছেন, তবে সেটা সংখ্যায় কম। 

এদিকে বরাবরই প্রথম বিয়ে নিয়ে চুপ ছিলেন পিয়া বিপাশা। সম্প্রতি একটি বেসরকারি চ্যানেলে বিয়ে নিয়ে নানান কথা বলেন। সেখানে পিয়া বিপাশা অকপটে নিজের অতীত নিয়ে বিভিন্ন ভুলের কথা স্বীকার করেন। নিজের প্রথম বিয়েকে ‘ভুল সিদ্ধান্ত’ বলে মন্তব্য করেন পিয়া বিপাশা। 

তিনি বলেন, ছোট ছিলাম, বিয়ের বিষয়টা একটা ভুল সিদ্ধান্ত ছিল। আঠারো বছরের আগে কারো বিয়ে করা উচিত নয়। অথচ যখন আমার বাচ্চা হয়, তখন আমার বয়স ছিল মাত্র ষোলো বছর! নিজের ব্যক্তিগত তিক্ত অভিজ্ঞতা থেকে পিয়ার মন্তব্য, প্রথম ভালোবাসাকে কখনোই সিরিয়াসলি নেয়া উচিত না। 

তবে তাই বলে বিদেশি ছেলেকে বিয়ে? এমন প্রশ্নে পিয়া বিপাশা বলেন, বাংলাদেশে মনের মতো ছেলে পাইনি। নসিবে বিদেশি ছেলে ছিল, তাই হয়তো!

একটু খোলাসা করে পিয়া বিপাশা আরো বলেন, সবাই জানেন আমার একটি বাচ্চা রয়েছে। পরিবারেরও চাপ ছিল যেন আমি দ্বিতীয়বার বিয়ে করে সংসার করি, যেহেতু আমার বাচ্চা বড় হয়ে যাচ্ছে। আমার চিন্তা ছিল, যাকেই আমি বিয়ে করি সে যেন আমার বাচ্চাকে তার নিজের বাচ্চার মতো দেখে। 

এছাড়া নিজের জীবনের তিক্ত অভিজ্ঞতা শেয়ার করে পিয়া বলেন, আমি যখন ২০১২ সালে লাক্স সুন্দরী প্রতিযোগিতায় ছিলাম, তখন কিন্তু আমার মেয়ে আছে বিষয়টি কেউ জানত না। যখন এই রিয়েলিটি শো শেষ হয় এবং মডেলিংয়ে যোগ দেই তখন মেয়ে আছে খবরটি প্রকাশ করি। 

এই মডেল ও অভিনেত্রী আরো বলেন, সে সময় সিনিয়র মডেলরা আমাকে অবজ্ঞা করত, ‘বাচ্চার মা’ বলে আমাকে নিয়ে অনেক হাসাহাসি করেছে। তবে যে মানুষগুলো আমাকে ঘৃণা করতো, হাসাহাসি করত, সেই মানুষগুলোই আমাকে এখন অনেক রেসপেক্ট করে।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেডআর