Alexa সুচন্দা পাচ্ছেন ফজলুল হক স্মৃতি পুরস্কার  

ঢাকা, বুধবার   ১১ ডিসেম্বর ২০১৯,   অগ্রহায়ণ ২৭ ১৪২৬,   ১৪ রবিউস সানি ১৪৪১

সুচন্দা পাচ্ছেন ফজলুল হক স্মৃতি পুরস্কার  

বিনোদন প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৩:০৯ ১৫ অক্টোবর ২০১৯   আপডেট: ১৪:১৬ ১৫ অক্টোবর ২০১৯

অভিনেত্রী কোহিনূর আক্তার সুচন্দা

অভিনেত্রী কোহিনূর আক্তার সুচন্দা

এ বছর ‘ফজলুল হক স্মৃতি পুরস্কার’ পাচ্ছেন অভিনেত্রী কোহিনূর আক্তার সুচন্দা। বাংলাদেশে চলচ্চিত্র সাংবাদিকতার পথিকৃৎ, প্রথম চলচ্চিত্র বিষয়ক পত্রিকা ‘সিনেমা’র সম্পাদক এবং প্রথম শিশুতোষ চলচ্চিত্র ‘প্রেসিডেন্ট’-এর পরিচালক ছিলেন ফজলুল হক। ২০০৪ সাল থেকে তার নামে এই পুরস্কার প্রবর্তন করেন কথাসাহিত্যিক রাবেয়া খাতুন।

প্রতিবছর দুজনকে এই পুরস্কার প্রদান করা হয়। এ বছর সুচন্দার সঙ্গে পুরস্কৃত হবেন সাংবাদিক রাফি হোসেন। এর আগে ‘ফজলুল হক স্মৃতি পুরস্কার’ পেয়েছেন ফজল শাহাবুদ্দীন, আহমদ জামান চৌধুরী, চাষী নজরুল ইসলাম, হুমায়ূন আহমেদ, রফিকুজ্জামান, সুভাষ দত্ত, হীরেন দে, আমজাদ হোসেন, নায়করাজ রাজ্জাক, মোস্তফা সরয়ার ফারুকীসহ অনেকে। 

ফজলুল হক ১৯৩০ সালের ২৬ মে বগুড়ায় জন্মগ্রহণ করেন। কথাসাহিত্যিক রাবেয়া খাতুন তার স্ত্রী। বড় ছেলে ফরিদুর রেজা সাগর শিশুসাহিত্যিক ও টিভি ব্যক্তিত্ব। তিনি বর্তমানে চ্যানেল আইয়ের ব্যবস্থাপনা পরিচালক হিসেবে কর্মরত আছেন।

এদিকে ১৯৬৬ সালে সুভাষ দত্ত পরিচালিত কাগজের নৌকা চলচ্চিত্রের মাধ্যমে চলচ্চিত্রে অভিষেক ঘটে সুচন্দার। পরবর্তীকালে, ১৯৬৭ সালে হিন্দু পৌরাণিক কাহিনী নিয়ে চলচ্চিত্র বেহুলায় অভিনয় করেন। এতে তিনি রাজ্জাকের বিপরীতে অভিনয় করেন। তার সবচেয়ে উল্লেখযোগ্য ছবি- জীবন থেকে নেয়া। এছাড়াও ৬০ এর দশকের- শেষের চাওয়া পাওয়া, নয়নতারা, সুয়োরানী দুয়োরানী এবং ৭০ এর দশকে- যে আগুনে পুড়ি, কাচের স্বর্গ, অশ্রু দিয়ে লেখা তার উল্লেখযোগ্য চলচ্চিত্র। 

অভিনয়ের পাশপাশি তিনি চলচ্চিত্র প্রযোজনাও করেছেন। টাকা আনা পাই, প্রতিশোধ, তিনকন্যা, বেহুলা লখীন্দর, বাসনা ও প্রেমপ্রীতি চলচ্চিত্রগুলো প্রযোজনা করেন তিনি। তার পরিচালিত প্রথম সিনেমা সবুজ কোট কালো চশমা। ২০০৫ সালে স্বামী জহির রায়হানের ‘হাজার বছর ধরে’ উপন্যাসের আলোকে চলচ্চিত্র নির্মাণ করেন এবং সেরা প্রযোজক ও পরিচালক হিসেবে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পান।

ডেইলি বাংলাদেশ/এনএ/টিএএস