বাঘের মুখ থেকে প্রাণ নিয়ে ফিরল মায়া হরিণ

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১,   আশ্বিন ৮ ১৪২৮,   ১৪ সফর ১৪৪৩

বাঘের মুখ থেকে প্রাণ নিয়ে ফিরল মায়া হরিণ

খুলনা প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৬:০৭ ১৩ সেপ্টেম্বর ২০২১  

আহত মায়া হরিণের চিকিৎসা চলছে করমজল বন্যপ্রাণী প্রজনন কেন্দ্রে

আহত মায়া হরিণের চিকিৎসা চলছে করমজল বন্যপ্রাণী প্রজনন কেন্দ্রে

সুন্দরবনে বাঘের আক্রমণে আহত একটি মায়া হরিণ প্রাণ নিয়ে পালিয়ে লোকালয়ে আশ্রয় নিয়েছে। হরিণটি উদ্ধার করে চিকিৎসা দিয়েছে বন বিভাগ।

সোমবার সকালে বন সংলগ্ন ঘাগড়ামারী লোকালয় থেকে আহত হরিণটি উদ্ধার করা হয়। বনরক্ষীরা নিবিড় পর্যবেক্ষণ ও প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে আবার প্রাণীটিকে বনে অবমুক্ত করে দিয়েছে।

জানা গেছে, সকালে গলাসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাত নিয়ে সুন্দরবন সংলগ্ন ঘাগড়ামারী এলাকায় একটি বাড়ির পাশের বাগানে পড়েছিল মায়া হরিণটি। স্থানীয়রা সেটিকে দেখতে পেয়ে বনবিভাগ এবং বন্যপ্রাণী সংরক্ষণ ও উদ্ধার কাজে সহায়তাকারী ওয়াইল্ড টিমের সদস্যদের খবর দেয়। সেখান থেকে হরিণটি উদ্ধার করে করমজল বন্যপ্রাণী প্রজনন কেন্দ্রের ফরেস্ট অফিসে নিয়ে যান স্টেশন কর্মকর্তা ও বনরক্ষীরা। সেখানে আহত হরিণটিকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়ার পর দুপুরে করমজল বন্যপ্রাণী প্রজনন কেন্দ্রের বনে অবমুক্ত করা হয়েছে।

করমজল বন্যপ্রাণী প্রজনন কেন্দ্রের প্রাণী বিশেষজ্ঞ হাওলাদার আজাদ কবির জানান, ধারণা করা হচ্ছে, ৫-৬ দিন আগে হরিণটিকে বাঘ আক্রমণ করেছিল। প্রাণীটির গায়ে বাঘের নখ ও দাঁতের আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। আঘাতের জায়গায় রক্তক্ষরণ হয়ে পোকার আক্রমণ হয়েছে। উদ্ধারের পর দ্রুত হরিণটিকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে কিছু সময় নিবিড় পর্যবেক্ষণে রাখা হয়। পরে সুস্থ করে পুনরায় করমজল বন্যপ্রাণী প্রজনন কেন্দ্রের পাশে গহীন বনে অবমুক্ত করা হয়েছে।

এর আগেও বেশ কয়েকটি হরিণ বাঘের আক্রমণ থেকে ছুটে এসে লোকালয়ে আশ্রয় নিলে সেগুলোকেও প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে বনে অবমুক্ত করা হয়েছে বলে জানান তিনি।

এর আগে, গত ১০ জুন সুন্দরবনে বাঘের আক্রমণে আহত একটি হরিণকে উদ্ধার করা হয়েছিল। বাগেরহাটের মোংলা উপজেলার বৈদ্যমারি বাজার সংলগ্ন দুলালের বাড়ি থেকে আহত প্রাণীটিকে উদ্ধারের পর নিবীড় পর্যবেক্ষণ ও প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে সুন্দরবনের পূর্ব বন বিভাগের চাঁদপাই রেঞ্জের নন্দবালা টহলফারি সংলগ্ন বনে অবমুক্ত করা হয়।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর