জয়ে সিরিজ শেষ করলো নিউজিল্যান্ড

ঢাকা, মঙ্গলবার   ১৯ অক্টোবর ২০২১,   কার্তিক ৪ ১৪২৮,   ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

জয়ে সিরিজ শেষ করলো নিউজিল্যান্ড

ক্রীড়া প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৯:২৪ ১০ সেপ্টেম্বর ২০২১   আপডেট: ১৯:২৬ ১০ সেপ্টেম্বর ২০২১

নিউজিল্যান্ড দলের উল্লাস   -বিসিবি

নিউজিল্যান্ড দলের উল্লাস -বিসিবি

অস্ট্রেলিয়ার পর নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষেও ইতিহাস গড়েছে বাংলাদেশ। পাঁচ ম্যাচের টি-২০ সিরিজ ৩-২ এ জিতে নিয়েছে টাইগাররা। তবে শেষ ম্যাচে জয় দিয়েই সিরিজ শেষ করলো সফরকারী নিউজিল্যান্ড।

শুক্রবার মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে সিরিজের শেষ ম্যাচে ২৭ রানে টাইগারদের হারায় কিউইরা।

টস জিতে ব্যাটিং করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন নিউজিল্যান্ড অধিনায়ক টম লাথাম। আগে ব্যাট করে ২০ ওভারে ৫ উইকেট হারিয়ে ১৬১ রান সংগ্রহ করে সফরকারী নিউজিল্যান্ড। ১৬২ রানের লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৮ উইকেট হারিয়ে ১৩৪ রানে থামে বাংলাদেশের ইনিংস। 

জবাব দিতে ওপেনিংয়ে ব্যাট করতে আসেন লিটন কুমার দাস ও নাঈম শেখ। তবে ইনিংস বড় করতে পারেনি লিটন। এজাজ প্যাটেলের বলে ১০ রানেই ক্যাঁচ তুলে দিয়ে ঘরে ফেরেন লিটন। 

এরপর সুযোগ পাওয়া সৌম্যও নিজেকে মেলে ধরতে পারেননি। মাত্র ৪ রান করেই নিজের উইকেট তুলে দেন কোল ম্যাককঞ্চি বলে রাচিন রবিন্দ্রর হাতে।  নাঈম শেখও ধরেন লিটন সৌম্যর পথ।  বেন সিয়ার্সের বলে লাথামের কাছে ক্যাঁচ তুলে দেন নাঈম(২৩)।

একই কাজ করলেন মুশফিক। রাচিন রবীন্দ্রর হাতে ক্যাঁচ তুলে দেন , কলিন ডি গ্র্যান্ডহোমের বলে। ফেরার আগে করেন ৩ রান। 

এরপরে আফিফের বলে ৬ রানে সোহানের হাতে ধরে পরে ফেরেন উইল ইয়ং।  উইকেটের দেখা পেলেন নাসুম।  শামিমের কাছে ক্যাঁচ বানিয়ে কলিন ডি গ্র্যান্ডহোমকে(৯) টিকিট ধরিয়ে দিলেন এ স্পিনার।

আশা জাগিয়ে ২৩ রান করে ক্যাঁচ হয়ে ফেরেন টাইগার অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ।  এক বাউন্ডারি মে এজাজ প্যাটেলের বলে এলবি হয়ে ফিরলেন উইকেটরক্ষক নুরুল হাসান সোহান। দাঁড়াতে পারেনিনি শামিম হোসেন পাটওয়ারীও।  ৯ রান করে বোল্ড হন তাসকিন। 

আফিফ হোসেন ৪৯ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলেন।

এরআগে জয়ের প্রত্যয়ে ম্যাচ শুরু করেন দুই কিউই ওপেনার ফিন অ্যালেন ও রাচিন রবীন্দ্র। কোন উইকেট না হারিয়েই তুলে নেন দলীয় অর্ধশত। তবে এরপর আর বেশিদূর আগাতে পারেনি কিউই ওপেনিং জুটি। শরিফুলের বলে উড়িয়ে মারেন রাচিন রবীন্দ্র। ছুটে গিয়ে বলটি লুফে নেন মুশফিকুর রহিম। ১৭ রানে ফেরেন এ ওপেনার।

একই ওভারে ফিন অ্যালেনকে এলবি করেন এ পেসার। আম্পায়ার আউটও দিয়ে দেন। তবে রিভিউ নিয়ে এ যাত্রা বেঁচে যান কিউই ব্যাটসম্যান। তবে শরিফুলও কম যান না। পরের বলে বোল্ড করে অ্যালেনকে ঘরে ফেরান।

শেষ ম্যাচের একাদশে সুযোগ পেয়ে নিজেকে প্রমাণ করলেন পেসার তাসকিন আহমেদ। তাসকিনের বলে হেনরি নিকোলসের ব্যাটে গেলে লেগ দিয়ে বলে বের হয়ে যায়। তবে বেশি দূরে এগোতে পারে না বল। উড়ন্ত লাফে বলটি লুফে নেন উইকেটরক্ষক সোহান।  ২১ রানে ফেরেন এ কিউই ব্যাটসম্যান।

এরপর আর উইকেটের দেখা পায়নি বাংলাদেশ। নির্ধারিত ২০ ওভারে  ৫ উইকেট হারিয়ে সফরকারীরা সংগ্রহ করে ১৬১ রান।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএস