করোনায় দেড়শ কোটি টাকার বেশি ক্ষতির মুখে ইসিবি

ঢাকা, রোববার   ২০ জুন ২০২১,   আষাঢ় ৭ ১৪২৮,   ০৮ জ্বিলকদ ১৪৪২

করোনায় দেড়শ কোটি টাকার বেশি ক্ষতির মুখে ইসিবি

স্পোর্টস ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৬:৩২ ১২ মে ২০২১  

ইসিবির লোগো

ইসিবির লোগো

করোনাভাইরাস যেন এক বিভীষিকার নাম। মরণব্যাধি এই ভাইরাস প্রাণ কেড়ে নেয়ার পাশাপাশি অর্থনৈতিক খাতে লোকসানের কারণ হয়েও দাঁড়াচ্ছে। এরই মধ্যে মোটা অঙ্কের ক্ষতি হয়েছে ক্রিকেট বোর্ডগুলো। ইংল্যান্ড এন্ড ওয়েলস ক্রিকেট বোর্ড (ইসিবি) জানিয়েছে, গত অর্থ বছরের তাদের ক্ষতির পরিমাণ ঠেকেছে ১৬.১ মিলিয়ন ইউরো বা প্রায় ১৬৫ কোটি টাকা।

২০২০ সালের মার্চ মাসে করোনার ছোবলে বন্ধ হয়ে যায় পুরো বিশ্বের ক্রিকেট ক্রিকেট। তবে করোনার ভেতর সবার আগে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফিরিয়ে আনে ইংল্যান্ড। জুলাই মাসেই ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে সিরিজ দিয়ে ক্রিকেটে প্রত্যাবর্তন করে তারা।

এরপর একে একে আয়ারল্যান্ড, পাকিস্তান ও অস্ট্রেলিয়ারসহ টানা ৪ দলের বিপক্ষে সিরিজ আয়োজন করেছে ইসিবি। তারপরও এতো বড় অংকের আর্থিক ক্ষতির মুখে পড়তে হয়েছে বোর্ডকে। কারণ এই সিরিজগুলো আয়োজন করতে গিয়ে আয়ের তুলনায় ব্যায়ই বেশি হয়েছে।

প্রত্যেকটি সিরিজের জন্য ইসিবিকে ক্রিকেটারদের বাড়তি সুরক্ষা নিশ্চিত করতে হয়েছে। এই খাতে চলে গেছে মোটা অঙ্কের অর্থ। নিয়মিত করোনা পরীক্ষাসহ আরো  বাড়তি কিছু ব্যয় হয়েছে। অপরদিকে, বদ্ধ-দ্বারে খেলা হওয়ায় দর্শকের কাছে টিকেট বিক্রি থেকে আসেনি কোনো অর্থ।

টিভি স্বত্ত্ব ও স্পন্সরশিপ থেকে অবশ্য আগের মতোই আয় এসেছে। আন্তর্জাতিক সিরিজ দ্রুত ফেরালেও কাউন্টি ক্রিকেট মাঠে ফেরাতে ইসিবিকে বেশ বেগ পেতে হয়েছিল। দীর্ঘ দিন কাউন্টি ক্রিকেট বন্ধ থাকাও তাদের লোকসানের বড় একটি কারণ।

এদিকে ২০২০ সালে দ্য হান্ড্রেড আয়োজন করার পরিকল্পনা ছিল ইসিবির। সেই টুর্নামেন্ট থেকে একটি মোটা অঙ্কের লাভ আসার কথা থাকলেও করোনায় তাও হারাতে হয়েছে ইংল্যান্ডকে। সবমিলিয়ে গত অর্থ বছরে ১৬.১ মিলিয়ন ইউরো লোকসান গুনেছে ইসিবি।

ডেইলি বাংলাদেশ/এএল