সুপার লিগ ইস্যুতে নয় ক্লাবকে জরিমানা

ঢাকা, রোববার   ২০ জুন ২০২১,   আষাঢ় ৬ ১৪২৮,   ০৮ জ্বিলকদ ১৪৪২

সুপার লিগ ইস্যুতে নয় ক্লাবকে জরিমানা

স্পোর্টস ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৩:৫৬ ৯ মে ২০২১  

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

গত ১৮ এপ্রিল ইউরোপের প্রভাবশালী ১২ ক্লাব মিলে বিতর্কিত এক সুপার লিগের জন্য নিজেদের অন্তর্ভূক্তির ঘোষনা দিয়েছিল। কিন্তু এই ঘোষনার ৪৮ ঘন্টা না পেরোতেই ইংলিশ ৬টি ক্লাব সমর্থক ও বিশ্ব ফুটবলের সর্বোচ্চ নিয়ন্তা সংস্থাগুলোর তোপের মুখে সড়ে দাঁড়ানোর ঘোষণা দেয়। এরপর একে একে অন্য ক্লাবগুলোও এই পথ অনুসরণ করায় কার্যত সুপার লিগের পরিকল্পনা ভেস্তে যায়।

কিন্তু এই সুপার লিগ প্রজেক্টের সঙ্গে সম্পৃক্ত ক্লাবগুলোকে কোন না কোন ভাবে যে শাস্তির আওতায় আসতে হবে তা আগেই ইঙ্গিত দিয়েছিল ইউরোপিয়ান ফুটবলের নিয়ন্তা সংস্থা উয়েফা। তারই ধারাবাহিকতায় নয়টি ক্লাবকে তারা আর্থিক জরিমানার ঘোষনা দিয়েছে।

একইসঙ্গে এই নয়টি ক্লাবের সঙ্গে একটি চুক্তিও স্বাক্ষর করেছে। উয়েফার সঙ্গে পুরনো সম্পর্কে ফেরার এই চুক্তির ঘোষণায় অবশ্য এখনো বার্সেলোনা, রিয়াল মাদ্রিদ ও জুভেন্টাস স্বাক্ষর না করায় এই তিনটি ক্লাব কঠোর শাস্তির মুখে পড়তে পারে বলে ইঙ্গিত পাওয়া গেছে।

সুপার লিগের প্রকল্প থেকে সড়ে আসার ঘোষণায় নিজেদের ভুল স্বীকার বিবৃতি দিয়েছিল প্রায় সব ক্লাবই, যেখানে মূলত ইংলিশ ছয়টি ক্লাব অন্যতম ছিল। আর্থিক জরিমানা পাওয়া ক্লাবগুলো হচ্ছে ম্যানচেস্টার সিটি, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড, লিভারপুল, টটেনহ্যাম, আর্সেনাল, চেলসি, এ্যাথলেটিকো মাদ্রিদ, ইন্টার মিলান ও এসি মিলান।

এই ক্লাবগুলোকে এক মৌসুমে ইউরোপীয়ান রাজস্ব থেকে ৫ শতাংশ জরিমানা করা হয়েছে। একই সঙ্গে সব দল মিলে ইউরোপের তৃণমূল ও যুব ফুটবলের উন্নতিতে সর্বমোট ১৫ মিলিয়ন ইউরো প্রদান করবে।

উয়েফা এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, 'পুনর্মিলনের সদিচ্ছা এবং ইউরোপীয় ফুটবলের ভালোর জন্য, তথাকথিত 'সুপার লিগ' প্রকল্পের সঙ্গে জড়িত ১২ টি ক্লাবের মধ্যে নয়টি ক্লাব উয়েফার সঙ্গে একটি 'ক্লাব অঙ্গীকারনামায়’ সই করেছে।

উয়েফা কার্যনির্বাহী কমিটির একটি জরুরী প্যানেল গঠন করেছে, যাতে তারা এই প্রতিশ্রুতি ঘোষণাপত্রের চেতনা এবং বিষয়বস্তুকে বিবেচনা করে ক্লাবগুলোকে দ্রুত উয়েফার সঙ্গে একীকরণ প্রক্রিয়া নিশ্চিত করে।'

উয়েফা সভাপতি আলেক্সান্দার সেফেরিন বলেছেন, এই ক্লাবগুলো দ্রুতই তাদের ভুল বুঝতে পেরেছে এবং ভবিষ্যতে ইউরোপীয়ান ফুটবলের সঙ্গে সব ধরনের সহযোগিতা করার ও তাদের প্রতিশ্রুতি রক্ষা করার ঘোষনা দিয়েছে।

তিনি আরো বলেন, যারা বিতর্কিত সুপার লিগের সাথে এখনো নিজেদের ধরে রেখেছে তাদের সাথে উয়েফা পরবর্তীতে কি করা যায় সে ব্যপারে সিদ্ধান্ত নিবে। এ ব্যপারে উয়েফার ডিসিপ্লিনারী কমিটিকে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণের দায়িত্ব দেয়া হয়েছে।’

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএস/এএল