ক্যারিবীয়দের বিপক্ষে টাইগারদের হ্যাটট্রিক সিরিজ জয়

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১,   ফাল্গুন ১২ ১৪২৭,   ১২ রজব ১৪৪২

ক্যারিবীয়দের বিপক্ষে টাইগারদের হ্যাটট্রিক সিরিজ জয়

ক্রীড়া প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৭:৩৩ ২২ জানুয়ারি ২০২১   আপডেট: ১৮:৫৮ ২২ জানুয়ারি ২০২১

টাইগারদের সিরিজ জয়

টাইগারদের সিরিজ জয়

দীর্ঘদিন পরে আন্তর্জাতিকে ক্রিকেটে ফিরেছে টাইগাররা। আর ক্রিকেটে ফিরেই সফরকারী ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে এক ম্যাচ হাতে রেখে ওয়ানডে সিরিজ নিজেদের করে নিয়েছে তামিম বাহিনী। সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে ৭ উইকেটে হারিয়েছে বাংলাদেশ দল। এ জয়ে ওয়ানডে ক্রিকেটে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে হ্যাট্টিক সিরিজ জয়ের স্বাদ পেলো বাংলাদেশ। এর  আগে ২০১৮ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজের মাটিতে এবং  নিজ মাঠে  সিরিজ জিতেছিলো বাংলাদেশ।

শুক্রবার মিরপুর শেরে বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টস জিতে বাংলাদেশকে বলে পাঠান উইন্ডিজ অধিনায়ক জেসন মোহাম্মদ।

সিরিজ বাঁচাতে মাঠে নামেন সুনিল অ্যামব্রিস ও জর্ন ওটলে। তবে ইনিংস বড় করতে পারেনি উইন্ডিজ ওপেনিং জুটি। দলীয় ১০ রানে মুস্তাফিজের বলে মেহেদি হাসানের হাতে ক্যাচ দিয়ে জুটি ভাঙেন সুনিল অ্যামব্রিস(৬)। 

এরপর স্পিনে ধরাশায়ী হয় দুই ক্যারিবীয় ব্যাটসম্যান।  জর্ন ওটলে(২৪) ও জশুয়া ডা সিলভাকে(৫) ঘরে ফেরান মেহেদি মিরাজ। বলে আসেন সাকিব। তিনিও খালি হাতে ফেরেননি। আন্দ্রে ম্যাকার্থিকে ৩ রানে ঘরে ফেরান। অর্ধশতকের আগেই ৪ উইকেট হারায় সফরকারীরা। রান আউটে কাইল মায়ারস(০)। ফের সাকিবে ফিরলেন ক্যারিবীয় অধিনায়ক জেসন মোহাম্মদ(১১)। হাসান মাহমুদে এনক্রুমাহ বোনার(২০) এবং মেহেদি হাসান মিরাজে ঘরে ফেরেন রেইফার রেয়মন(২)।

জয়ের লক্ষ্যে ব্যাট করছেন সাকিব

তবে রোভম্যান পাওয়েল আর আলজারি জোসেফের সৌজন্যে তিন অংক ছুঁয়ে ফেলে অতিথিরা। ৯ম উইকেটে দুজনে গড়েন ৩২ রানের জুটি। দলীয় ১২০ রানে আলজারি জোসেফকে (১৭) লিটন দাসের গ্লাভসবন্দি করে জুটি ভাঙেন মুস্তাফিজুর রহমান। 

শেষ উইকেটটা ফেলতে সময় লাগছিল টাইগারদের। উইকেটে গেড়ে বসেছিলেন রোভম্যান পাওয়েল। তাকে সঙ্গ দিয়ে যাচ্ছিলেন শেষ ব্যাটসম্যান আকিল হোসেন। শেষ পর্যন্ত ৬৬ বলে ৪১ রান করা পাওয়েলকে নিজের চতুর্থ শিকার পরিণত করে ক্যারিবীয়দের ইনিংসে ইতি টানেন মেহেদি মিরাজ। ৪৩.৪ ওভারে ১৪৮ রানে অল-আউট হয় উইন্ডিজ।

দলের হয়ে মেহেদি হাসান মিরাজ ৪টি, সাকিব ও মুস্তাফিজ ২টি করে উইকেট নেন।

সিরিজ জয়ে ১৪৯ রানের লক্ষ্যে মাঠে আসেন তামিম-লিটন। রান তাড়ায় প্রথম ৫ ওভারে উইকেট হারায়নি বাংলাদেশ। বেশি বলের মুখোমুখি হয়েছেন লিটন দাস, রান বাড়ানার কাজটিও করেছেন তিনি। ২২ বলে তার রান ২২। তামিম ইকবাল ৯ বল খেলে করেছেন ৪। তবে আর আগায়নি তামিম-লিটন জুটি।  দলীয় ৩০ রানে আকিল হোসেনের বলে এলবি হয়ে ঘরে ফেরেন লিটন।

ওয়েস্ট ইন্ডিজ দল

ওয়ান ডাউনে তামিমকে সাপোর্ট দিতে আসেন নাজলুন হোসেন শান্ত।  তবে ইংনিস তেমন বড় করতে পারেননি এ বাহাতি ব্যাটসম্যান।  দলীয় ৭৭ রানে ক্যাচ দিয়ে ঘরে ফেরেন শান্ত(১৭)। 

তবে এক পাশ ধরে অর্ধশত রানের দেখা পায় তামিম ইকবাল(৫০)।  ক্যাচ দিয়েই ফেরেন ওয়ানডে অধিনায়ক। দলীয় রান তখন ১০৯।  এরপর আর উইকেটের দেখা পায়নি ক্যারিবীয়রা।

সাকিব আল হাসান ৪৩* ও মুশফিকুর রহিমের ৮* ব্যাটে ৭ উইকেট হাতে রেখে জয়ের লক্ষ্যে পৌঁছে যায় বাংলাদেশ। 

সিরিজের প্রথম ম্যাচে ওয়েস্ট ইন্ডিজে অভিষিক্ত ছিলেন ছয়জন। দ্বিতীয় ম্যাচে সেই ছয়ের একজন ডানহাতি পেসার চামার হোল্ডারকে বাদ দিয়ে ওপেনিং ব্যাটসম্যান ও লেগব্রেক বোলার জর্ন ওটলে’কে দলে নিয়েছে ক্যারিবীয়রা। লিস্ট ‘এ’ ক্রিকেটে ৪৫ ম্যাচ খেলার অভিজ্ঞতা রয়েছে ৩১ বছর বয়সী ওটলের।

অন্যদিকে অপরিবর্তিত একাদশ বাংলাদেশের। বুধবারের ম্যাচে অভিষেক হওয়া হাসান মাহমুদ ৩ উইকেট নিয়ে নিজের সামর্থ্যের জানান দিয়েছেন। আজকের ম্যাচেও তার ওপর আস্থা রেখেছে সিরিজে ১-০’তে এগিয়ে থাকা বাংলাদেশ।

সংক্ষিপ্ত স্কোর (টস-ওয়েস্ট ইন্ডিজ) :

ওয়েস্ট ইন্ডিজ : ১৪৮/১০, ৪৩.৪ ওভার (পাওয়েল ৪১, ওটলি ২৪, মিরাজ ৪/২৫, মুস্তাফিজ ২/১৫, সাকিব ২/৩০)।

বাংলাদেশ : ১৪৯/৩, ৩৩.২ ওভার (তামিম ৫০, সাকিব ৪৩*, রেইফার ১/১৮)।

ফল : বাংলাদেশ ৭ উইকেটে জয়ী।

ম্যাচ সেরা : মেহেদি হাসান মিরাজ (বাংলাদেশ)।

সিরিজ : তিন ম্যাচের সিরিজে ২-০ ব্যবধানে এগিয়ে গেল বাংলাদেশ।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএস/মাহাদী