নিয়ান্ডারথাল মানুষরা কেন পৃথিবী থেকে হারিয়ে গিয়েছিল?

ঢাকা, রোববার   ১১ এপ্রিল ২০২১,   চৈত্র ২৮ ১৪২৭,   ২৭ শা'বান ১৪৪২

নিয়ান্ডারথাল মানুষরা কেন পৃথিবী থেকে হারিয়ে গিয়েছিল?

বিজ্ঞান ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৯:০৩ ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১   আপডেট: ১৯:০৫ ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১

নিয়ান্ডারথাল। প্রতিকী ছবি

নিয়ান্ডারথাল। প্রতিকী ছবি

প্রাণীজগত এক অপার বিস্ময়। সব প্রাণীরই আলাদা আলাদা প্রজাতি রয়েছে। আমরা মানুষরাও কিন্তু এক প্রজাতির নই। মানুষেরও বেশ কয়েকটি প্রজাতি রয়েছে। তবে বিবর্তনের পথ হেঁটে অন্য সকল প্রজাতিকে টেক্কা দিয়ে আজকে আমরা (হোমো স্যাপিয়েন্স) আধুনিক মানুষ হিসেব নিজেদের প্রতিষ্ঠিত করেছি।

প্রশ্ন করতে পারেন, আমাদের আগের মানুষগুলো কেমন ছিল? তাদের আচার-আচরণ, খাওয়া-দাওয়া, জীবন-যাপনের ধরণ নিয়ে জানার আগ্রহ জাগে। এসব প্রশ্ন যতটা সহজ, উত্তর ঠিক ততটাই কঠিন। তবে আমাদের হাজার বছরের যাত্রাপথে নিয়ান্ডারথাল মানুষরা খুবই  গুরুত্বপূর্ণ।

নিয়ান্ডারথালরা আচমকাই হারিয়ে গিয়েছিল? এই নিয়ে নানা মত রয়েছে। তবে সম্প্রতি একেবারে ভিন্ন এক দাবি করেছেন গবেষকরা। তাদের দাবি, আজ থেকে ৪২ হাজার বছর আগে পৃথিবীর মেরুদ্বয়ের প্রান্ত বদলের কারণেই অতিকায় স্তন্যপায়ী প্রজাতি মেগাফনা ও নিয়ান্ডারথাল মানবরা বিলুপ্ত হয়ে গিয়েছিল।

পূর্বপুরুষ হোমো ইরেক্টাস থেকে আসা হোমো নিয়ান্ডারথাল এবং হোমো স্যাপিয়েন্সরা কয়েক হাজার বছর সহাবস্থান করেছিল। ছবি: সংগৃহীত

বিজ্ঞানবিষয়ক পত্রিকা ‘সায়েন্স’-এ প্রকাশিত হয়েছে এই গবেষণাপত্র। গবেষক দলের অন্যতম নিউ সাউথ ওয়েলস বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রফেসর ক্রিস টার্নের দাবি, গবেষণায় দেখা গিয়েছে সেই সময় মেরু বদলের কারণে চৌম্বক ক্ষেত্র দুর্বল হয়ে যায়। ফলে আবহাওয়ায় প্রচুর পরিমাণে কার্বণ-১৪ বেড়ে যায়। এর ধাক্কাতেই মারা যায় নিয়ান্ডারথালরা।

বিজ্ঞানীদের ধারণা, ২ থেকে ৩ লাখ বছর অন্তর এমন ঘটনা ঘটে। বর্তমানে পৃথিবীর চৌম্বক ক্ষেত্রের শক্তি কমছে তাতে আবার পৃথিবীর মেরুদ্বয়ের প্রান্তবদলের সম্ভাবনাও উড়িয়ে দিচ্ছেন না গবেষকরা।

নিয়ান্ডারথালরা আমাদের প্রজাতি হোমো স্যাপিয়েন্সদের সমসাময়িক ও প্রায় একই বৈশিষ্ট্যপূর্ণ। এশিয়ার ডেনিসোভানদের সাথে নিয়ান্ডারথালরাও আমাদের প্রাচীন মানব-আত্মীয় ছিল। নিয়ান্ডারথাল ও আধুনিক মানুষ উভয়েই একই সাধারণ পূর্বপুরুষ থেকে এসেছে। জেনেটিক গবেষণাও প্রমাণ করে, আমাদের ডিএনএ’র কিছু অংশ আমাদের পূর্বপুরুষদের থেকে নিয়ান্ডারথালদের সঙ্গে ভাগ করে পেয়েছি আমরা আধুনিক মানুষেরা।

১৮৫৬ সালে জার্মানির নিয়ান্ডারথাল উপত্যকা থেকে পাওয়া এক ফসিলের নাম জায়গার নামে রাখা হয় নিয়ান্ডারথাল মানুষ। নিয়ান্ডারথালদের সঙ্গে সাধারণ মানুষদের সাদৃশ্য রয়েছে অনেকটাই। কিন্তু ইউরোপ ও এশিয়ায় বসবাসকারী নিয়ান্ডারথালরা কেন আজ থেকে প্রায় ৪০ হাজার বছর আগে বিলুপ্ত হয়েছিল তা আজও স্পষ্ট নয়।

ডেইলি বাংলাদেশ/এনকে