মহাকাশে মূলা চাষ করে বিপ্লব ঘটালো নাসা

ঢাকা, বুধবার   ২০ জানুয়ারি ২০২১,   মাঘ ৬ ১৪২৭,   ০৫ জমাদিউস সানি ১৪৪২

মহাকাশে মূলা চাষ করে বিপ্লব ঘটালো নাসা

বিজ্ঞান ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৯:১৪ ৩ ডিসেম্বর ২০২০   আপডেট: ১৯:১৮ ৩ ডিসেম্বর ২০২০

মাধ্যাকর্ষণ ছাড়াই মহাশূন্যে মূলা চাষে সাফল্য নাসা’র। ছবি: সংগৃহীত

মাধ্যাকর্ষণ ছাড়াই মহাশূন্যে মূলা চাষে সাফল্য নাসা’র। ছবি: সংগৃহীত

কিছুদিন আগেই মহাকাশ ভ্রমণকে সম্ভব করে ইতিহাস গড়লো নাসা ও স্পেসএক্স। এবার মূল চাষেও সাফল্য পেল মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় মহাকাশ সংস্থাটি। আর কিছুদিন পরেই মাটি খুঁড়ে মূলা তোলা হবে, এরই মধ্যে মিললো সাফল্য।

ইন্টারন্যাশনাল স্পেস স্টেশনেই (আইএসএস) মূলত বিভিন্ন বিষয়ে পরীক্ষা করছেন নভোচারীরা। এমনই একটি পরীক্ষায় স্পেস স্টেশনের পরিবেশে ‘মূলা’ উৎপাদন করার চেষ্টা করছেন তারা। মূলা চাষের পর তা পরীক্ষার জন্য নমুনা পাঠানো হবে পৃথিবীতে।

এতদিনে মূলাচাষের মাধ্যমে তাতে সাফল্য এলো। মাধ্যাকর্ষণ শক্তি নেই বললেই চলে, তবু সেই মহাশূন্যেই এবার মূলা চাষ যেন তাক লাগানোর মতো ঘটনা। এতদিনে মূলাচাষের মাধ্যমে তাতে সাফল্য এলো।

আরো পড়ুন: মহাকাশে ‘মূলা’ চাষ করতে ৪ নভোচারীর যাত্রা

ছবিতে দেখা গেছে, একটি বাক্সে নানা ধরনের তারের মাঝখানে ২০টি সবুজ পাতা সম্বলিত চারাগাছ দেখা গেছে। তবে মহাকাশে মূলাচাষ মোটেই সহজসাধ্য কাজ ছিল না বলে জানিয়েছেন বিজ্ঞানীরা। প্রথমে মাটির ‘বালিশ’ তৈরি করে তাতে বীজ পুঁতে দেয়া হয়। তা থেকে চারা বেড়ে ওঠে। এই পদ্ধতিতে সমস্ত গাছ সমান পানি ও সারও পায়।

গবেষণায় দেখা গিয়েছে, নীল ও লাল আলোতেই গাছ সবচেয়ে ভাল সাড়া দেয়। সেইমত ওই বাক্সের মধ্যে এলইডি আলোর ব্যবস্থা রয়েছে। ১৮০-র বেশি সেন্সর বসানো রয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এনকে