কুষ্টিয়ায় হত্যা মামলায় একজনের ফাঁসি, একজনের যাবজ্জীবন

ঢাকা, সোমবার   ০৩ অক্টোবর ২০২২,   ১৯ আশ্বিন ১৪২৯,   ০৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

Beximco LPG Gas

কুষ্টিয়ায় হত্যা মামলায় একজনের ফাঁসি, একজনের যাবজ্জীবন

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২১:৩৯ ২১ জুলাই ২০২২  

আদালতের রায়: প্রতীকী ছবি

আদালতের রায়: প্রতীকী ছবি

কুষ্টিয়ার ব্যবসায়ী আবুল কাশেম হত্যা মামলায় একজনকে ফাঁসি ও অপর একজনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত। সেই সঙ্গে উভয়কে ২০ হাজার টাকা জরিমানা, অনাদায়ে আরো এক বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। 

বৃহস্পতিবার (২১ জুলাই) দুপুরের দিকে কুষ্টিয়া অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মো. তাজুল ইসলাম এ রায় দেন।

ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত আসামি আজাদ হোসেন কুষ্টিয়া শহরের আড়ুয়াপাড়া এলাকার দুই নম্বর মসজিদ গলি লেনের স্কুলের পেছনের মৃত জহির উদ্দিনের ছেলে। যাবজ্জীবন কারাদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি মো. মিন্টু কুষ্টিয়া শহরের হাউজিং এ ব্লক এলাকার মহি উদ্দিনের ছেলে।

রায় ঘোষণার সময় যাবজ্জীবন কারাদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি আদালতে উপস্থিত ছিলেন। রায় ঘোষণার পর পরই তাকে পুলিশ পাহারায় জেলা কারাগারে পাঠানো হয়। ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত আসামি আজাদ হোসেন পলাতক রয়েছেন।

আদালত সূত্র জানায়, পূর্ব শত্রুতা ও পরকীয়া সম্পর্কের জেরে ২০১৪ সালের ১৪ আগস্ট রাত ৯টা ৪৫মিনিটের দিকে কুষ্টিয়া শহরের এনএস রোডের ফাস্টফুড ব্যবসায়ী আবুল কাশেমকে আসামিরা ছুরিকাঘাতে হত্যা করে। ফাস্টফুডের দোকান বন্ধ করে থানাপাড়ায় বাড়িতে ফেরার পথে কুতুবউদ্দিন লেনে পরিকল্পিত হত্যার শিকার হন আবুল কাশেম। নিহতের স্ত্রীর সঙ্গে ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত আসামি আজাদ হোসেনের পরকীয়া সম্পর্ক ছিল। এ ঘটনার পরেরদিন নিহতের ছেলে ইফতেখার আহম্মেদ নাঈম বাদী হয়ে আসামিদের বিরুদ্ধে কুষ্টিয়া মডেল থানায় একটি মামলা করেন।

মামলার তদন্ত শেষে তদন্তকারী কর্মকর্তা আসামিদের বিরুদ্ধে আদালতে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করেন। এরপর আদালত এ মামলায় সাক্ষ্য প্রমাণ শেষে রায় ঘোষণার দিন ধার্য করেন। নির্ধারিত ধার্য তারিখে আদালতের বিচারক মামলার আসামিদের শাস্তির আদেশ দেন।

আদালতের পিপি অনুপ কুমার নন্দী বলেন, ব্যবসায়ী কাশেম হত্যা মামলায় দোষী প্রমাণিত হওয়ায় একজনকে ফাঁসি ও একজনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত। 

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএইচ

English HighlightsREAD MORE »