ইতিহাসে প্রথমবারের মতো ঋণখেলাপি হলো শ্রীলংকা
15-august

ঢাকা, সোমবার   ০৮ আগস্ট ২০২২,   ২৪ শ্রাবণ ১৪২৯,   ০৯ মুহররম ১৪৪৪

Beximco LPG Gas
15-august

ইতিহাসে প্রথমবারের মতো ঋণখেলাপি হলো শ্রীলংকা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৫:৩৬ ২০ মে ২০২২   আপডেট: ১৫:৪১ ২০ মে ২০২২

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

নিজেদের ইতিহাসে প্রথমবারের মতো ঋণখেলাপি হয়েছে শ্রীলংকা। দক্ষিণ এশিয়ার দ্বীপরাষ্ট্রটি ৭০ বছরের বেশি সময়ের মধ্যে সবচেয়ে মারাত্মক আর্থিক সংকটে পড়ে ঋণ পরিশোধে ব্যর্থ হয়েছে। ঋণের ৭ কোটি ৮০ লাখ ডলার সুদ প্রদানের ৩০ দিনের বর্ধিত সময়সীমা গত বুধবার শেষ হলে দেশটিকে ঋণখেলাপি ঘোষণা করা হয়।

শ্রীলংকার কেন্দ্রীয় ব্যাংকের গভর্নর বলছেন, তার দেশ এখন ‘প্রি-এমটিভ ডিফল্ট’ হয়ে পড়েছে। পরে বৃহস্পতিবার বিশ্বের শীর্ষ দুই ঋণ রেটিং সংস্থাও জানিয়েছে, শ্রীলংকা ঋণখেলাপি হয়ে পড়েছে।

কোন সরকার যখন ঋণদাতাদের ঋণের কিছু অংশ বা পুরোটা পরিশোধে ব্যর্থ হয় তখন সেই সরকারকে খেলাপি বলা হয়। এতে বিনিয়োগকারীদের কাছে দেশটির সুনাম নষ্ট হয়, প্রয়োজনের সময় আন্তর্জাতিক বাজার থেকে ঋণ সংগ্রহ কঠিন হয়ে যায়। এতে দেশটির মুদ্রা এবং অর্থনীতির আরও বেশি ক্ষতি হয়।

শ্রীলংকা এখন ঋণখেলাপি কি না, বৃহস্পতিবার জানতে চাইলে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের গভর্নর পি নন্দলাল বিরাসিংহে বলেন, ‘আমাদের অবস্থান খুবই পরিষ্কার—যতক্ষণ না তারা আমাদের ঋণ পুনর্গঠনে এগিয়ে আসে, আমরা তা পরিশোধ করতে পারব না। তাই এটাকে আপনি ঋণখেলাপি হওয়ার পূর্বাবস্থা বলতে পারেন।’

আরো পড়ুন>> ডলারের বিপরীতে ভারতীয় মুদ্রার রেকর্ড পতন

বিদেশি দাতাদের কাছ থেকে নেয়া ৫০ বিলিয়ন ডলার ঋণ পুনর্গঠন চাচ্ছে শ্রীলংকা। এতে এসব ঋণ পরিশোধ তাদের জন্য আরও সহজ হবে। অর্থনীতি পুনরুদ্ধারে আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিলের (আইএমএফ) সঙ্গে ইতিমধ্যে আলোচনা শুরু করেছে দেশটি। দাতাদের সঙ্গে ঋণের বিষয়ে সমঝোতার জন্য পুনরায় আলোচনা চালিয়ে যেতে এটা প্রয়োজন।

বৃহস্পতিবার দিন শেষে আইএমএফ মুখপাত্র জানান, সম্ভাব্য ঋণ কর্মসূচির বিষয়ে চলমান আলোচনা মঙ্গলবার শেষ হতে পারে। এদিকে চলতি বছরে দেশটির চার বিলিয়ন ডলার প্রয়োজন বলে এর আগে জানিয়েছে শ্রীলংকা।

মুডি বলছে, ‘প্রথমবারের মতো আন্তর্জাতিক বন্ডে খেলাপি হয়েছে শ্রীলংকা।’ ঋণ পরিশোধের বর্ধিত সময়সীমা পার হওয়ার পর মূল্যায়নে শ্রীলংকার অবস্থান ‘রেসট্রিক্টেড ডিফল্ট’-এ অবনমন করেছে ফিচ রেটিংস।

আরো পড়ুন>> ইলন মাস্কের বিরুদ্ধে গুরুতর অভিযোগ স্পেস এক্সের নারী কর্মীর

করোনা মহামারির ধাক্কার পাশাপাশি সরকারের কিছু ভুল সিদ্ধান্তে দেশটি ইতিহাসের সবচেয়ে ভয়াবহ অর্থনৈতিক দুর্দশার মুখে পড়েছে। কয়েক মাস ধরে খাবার, জ্বালানি ও ওষুধের তীব্র সংকটে পড়েছে দেশটি। ব্যাপকভাবে মূল্যস্ফীতি বেড়েছে, চলছে বিদ্যুতের ঘণ্টার পর ঘণ্টা লোডশেডিং।

অর্থনৈতিক সংকট মোকাবিলায় সরকারের ভূমিকার প্রতিবাদে এক মাসের বেশি সময় ধরে চলা বিক্ষোভ গত সপ্তাহে সহিংস হয়ে ওঠে। প্রধানমন্ত্রী মাহিন্দা রাজাপক্ষের সমর্থকেরা কলম্বোয় সরকারবিরোধী বিক্ষোভকারীদের ওপর হামলা চালালে সংঘর্ষ ছড়িয়ে পড়ে। এতে কমপক্ষে ৯ জন নিহত ও ৩০০ জন আহত হন।

একপর্যায়ে প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া রাজাপক্ষের নির্দেশে ৯ মে পদত্যাগ করেন প্রধানমন্ত্রী মাহিন্দা রাজাপক্ষে। এরপর নতুন প্রধানমন্ত্রী হিসেবে প্রবীণ রাজনীতিক রনিল বিক্রমাসিংহেকে নিয়োগ দেন রাষ্ট্রপতি।

সূত্র: বিবিসি

ডেইলি বাংলাদেশ/মাহাদী

English HighlightsREAD MORE »