গৃহবধূকে বিবস্ত্র করে নির্যাতন মামলা পিবিআইতে

ঢাকা, মঙ্গলবার   ২৬ জানুয়ারি ২০২১,   মাঘ ১২ ১৪২৭,   ১১ জমাদিউস সানি ১৪৪২

গৃহবধূকে বিবস্ত্র করে নির্যাতন মামলা পিবিআইতে

নোয়াখালী প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ০১:৪২ ৯ অক্টোবর ২০২০  

ভুক্তভোগী গৃহবধূ (বামে) -ফাইল ছবি

ভুক্তভোগী গৃহবধূ (বামে) -ফাইল ছবি

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জে গৃহবধূকে বিবস্ত্র করে নির্যাতনের ঘটনায় নির্যাতন ও পর্নোগ্রাফি আইনে করা মামলাটি অধিকতর তদন্তের জন্য পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনে (পিবিআই) হস্তান্তর করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১০টায় বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন নোয়াখালীর এসপি মো. আলমগীর হোসেন।

তিনি বলেন, পুলিশ হেডকোয়ার্টারের নির্দেশে মামলা দুটি পিবিআইতে হস্তান্তর করা হয়েছে। এর আগে মামলা দুটি বেগমগঞ্জ থানার এসআই মোস্তাক আহমেদ তদন্ত করেছিলেন।

২ সেপ্টেম্বর রাতে ওই নারীর সঙ্গে দেখা করতে বাবার বাড়ি বেগমগঞ্জ উপজেলার একলাশপুর ইউপির জয়কৃষ্ণপুর গ্রামে আসেন তার আগের স্বামী। বিষয়টি দেখতে পান স্থানীয় মাদক ব্যবসায়ী ও দেলোয়ার বাহিনীর প্রধান দেলোয়ার। রাত ১০টার দিকে দেলোয়ার তার লোকজন নিয়ে ওই নারীর ঘরে ঢুকে পর-পুরুষের সঙ্গে অনৈতিক কাজ করার অভিযোগ আনে।

এ সময় তারা ওই নারীকে কুপ্রস্তাব দেয়, এতে রাজি না হওয়ায় তাকে মারধর শুরু করে। একপর্যায়ে পিটিয়ে নারীকে বিবস্ত্র করে ভিডিও ধারণ করে।

৪ অক্টোবর দুপুরে ওই ভিডিওটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে দেশজুড়ে তোলপাড় শুরু হয়। ওই ঘটনায় এ পর্যন্ত ১১ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এরমধ্যে দেলোয়ার বাহিনীর প্রধান দেলোয়ার হোসেন দেলুসহ আট আসামি রিমান্ডে রয়েছে।

বৃহস্পতিবার আসামি আব্দুর রহিম ও স্থানীয় ইউপি সদস্য মোয়াজ্জেম হোসেন সোহাগ মেম্বারকে রিমান্ড শেষে চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে হাজির করা হয়। আদালতে তারা ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেয়। পরে তাদের কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেয় আদালত।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমআর