মতিয়া চৌধুরী’র ‘দেয়াল দিয়ে ঘেরা’ বইয়ের পুনঃপ্রকাশ
15-august

ঢাকা, সোমবার   ১৫ আগস্ট ২০২২,   ৩১ শ্রাবণ ১৪২৯,   ১৬ মুহররম ১৪৪৪

Beximco LPG Gas
15-august

মতিয়া চৌধুরী’র ‘দেয়াল দিয়ে ঘেরা’ বইয়ের পুনঃপ্রকাশ

নিজস্ব প্রতিবেদক  ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২১:২৫ ২ জুলাই ২০২২   আপডেট: ২১:৩৫ ২ জুলাই ২০২২

দেয়াল দিয়ে ঘেরা’ বইয়ের পুনঃপ্রকাশ অনুষ্ঠানে বিশিষ্টজনরা। ছবি: সংগৃহীত

দেয়াল দিয়ে ঘেরা’ বইয়ের পুনঃপ্রকাশ অনুষ্ঠানে বিশিষ্টজনরা। ছবি: সংগৃহীত

আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য বেগম মতিয়া চৌধুরী’র জেল জীবন নিয়ে লেখা ‘দেয়াল দিয়ে ঘেরা’ বইয়ের পুনঃপ্রকাশ করা হয়েছে। 

ষাটের দশকে তার জেল জীবন নিয়ে লেখা ‘দেয়াল দিয়ে ঘেরা’ বইটি শুক্রবার বিকেলে মণি সিংহ-ফরহাদ স্মৃতি ট্রাস্ট-এর প্রকাশনা সংস্থা ‘সমাজ বিকাশ প্রকাশনী’ পুনঃপ্রকাশ করে।

এ উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ট্রাস্ট বোর্ড সদস্য ডা. মাগদুমা নার্গিস রত্মা। প্রধান অতিথি ছিলেন প্রধানমন্ত্রীর অর্থনৈতিক উপদেষ্টা ড. মসিউর রহমান।

মতিয়া চৌধুরীর সংগ্রীমী জীবনের ওপর আলোচনা করেন বাংলাদেশ ওয়াকার্স পার্টির সভাপতি রাশেদ খান মেনন, সাবেক মন্ত্রী আসাদুজ্জামান নুর, জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের সভাপতি হাসানুল হক ইনু, আওয়ামী লীগের শিক্ষা ও মানবসম্পদ বিষয়ক সম্পাদক শামসুন নাহার চাঁপা, গণতন্ত্রী পার্টির সাধারণ সম্পাদক ডা. শাহাদাৎ হোসেন, মণি সিংহ-ফরহাদ স্মৃতি ট্রাস্ট বোর্ড সদস্য আবুল কালাম আজাদ। 

সভায় সূচনা বক্তব্য রাখেন মণি সিংহ-ফরহাদ স্মৃতি ট্রাস্ট সভাপতি শেখর দত্ত। ধন্যবাদ জানান  ট্রাস্ট সম্পাদক মুকুল চৌধুরী।

অনুষ্ঠানে বক্তারা পাকিস্তান আমলে স্বৈরাচারবিরোধী আন্দোলনে অগ্নিকন্যা মতিয়া চৌধুরীর অকুতোভয়, আপসহীন ও লড়াকু ভুমিকার  ভূয়সী প্রসংশা করেন। 

তারা বলেন, মতিয়া চৌধুরী আজীবন মানুষের মুক্তি, সাম্য ও মর্যাদা প্রতিষ্ঠায় নিজেকে নিয়োজিত রেখেছেন। কোনো লোভ, প্রলোভন বা গণবিরোধী কাজ কখনোই তাকে স্পর্শ করতে পারেনি। মতিয়া চৌধুরীর ‘দেয়াল দিয়ে ঘেরা’ একটি অসাধারণ রাজনৈতিক সাহিত্য। বইটিতে পরাধীন দেশের রাজনৈতিক, অর্থনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক জীবনের অনন্য চিত্র ফুটে উঠেছে। 

বক্তরা আরো বলেন, বইটি ঐ সময়ের দর্পণ বিশেষ হলেও বিষয়বস্তুর প্রাসঙ্গিকতা সময়ের গণ্ডি অতিক্রম করেছে। বইটির পরতে পরতে মতিয়া চৌধুরীর সংগ্রামী জীবনের আলোকিত অধ্যায় প্রস্ফুটিত, যা থেকে আজকের এবং অনাগত ভবিষ্যতের প্রজন্ম অন্যায়ের বিরুদ্ধে সোচ্চার হওয়ার এবং সততা, ন্যায় ও সাম্য চিন্তার শিক্ষা গ্রহণ করতে পারবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেডআর

English HighlightsREAD MORE »