ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক আন্দোলনে শেখ কামালের অবদান অনস্বীকার্য: ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী

ঢাকা, শুক্রবার   ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১,   আশ্বিন ৯ ১৪২৮,   ১৫ সফর ১৪৪৩

ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক আন্দোলনে শেখ কামালের অবদান অনস্বীকার্য: ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৪:৫১ ৪ আগস্ট ২০২১   আপডেট: ১৬:১৪ ৪ আগস্ট ২০২১

মো. জাহিদ আহসান রাসেল- ফাইল ছবি

মো. জাহিদ আহসান রাসেল- ফাইল ছবি

যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল বলেছেন, বঙ্গবন্ধুর জ্যেষ্ঠ পুত্র বীর মুক্তিযোদ্ধা শহিদ ক্যাপ্টেন শেখ কামাল ছিলেন একজন স্বাপ্নিক তরুণ। বাংলাদেশের ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক আন্দোলনে তার অবদান অনস্বীকার্য।

বুধবার সকালে যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয় কর্তৃক শহিদ শেখ কামালের ৭২তম জন্মবার্ষিকী উদযাপন ও শেখ কামাল জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ পুরস্কার ২০২১ প্রদান অনুষ্ঠান উপলক্ষে সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী বলেন, স্বাধীনতা-উত্তর বাংলাদেশে প্রচলিত সনাতনী ক্রীড়া-উন্নয়ন ধারনা থেকে বেরিয়ে এসে শেখ কামাল বাংলাদেশের আধুনিক ও আন্তর্জাতিক মানের ক্রীড়া প্রবর্তনে প্রয়াসী হয়েছিলেন। অসাধারণ সাংগঠনিক দক্ষতায় তিনি প্রতিষ্ঠা করেছিলেন আবাহনী ক্রীড়া চক্র। ব্যক্তিগত প্রজ্ঞা ও নিজস্ব ক্রীড়া ভাবনায় এ দেশে আধুনিক ফুটবলের পথিকৃৎ তিনি।

তিনি বলেন, ক্রীড়ানুরাগী, সংস্কৃতিমনা, তারুণ্যদীপ্ত বীর মুক্তিযোদ্ধা শেখ কামাল মহান মুক্তিযুদ্ধে সম্মুখ সমরে অংশগ্রহণ করেছেন। জাতির এ কীর্তিমান তরুণের অবদানকে স্মরণীয় এবং তার প্রতি গভীর শ্রদ্ধার নিদর্শনস্বরূপ ক্রীড়ার বিভিন্ন ক্ষেত্রে আমরা ‘শেখ কামাল জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ পুরস্কার’ প্রদানের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করি।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, ক্রীড়াঙ্গনের বিভিন্ন শাখায় অসামান্য অবদানের স্বীকৃতিস্বরূপ নীতিমালার আলোকে সংশ্লিষ্ট কমিটি কর্তৃক পুঙ্খানুপুঙ্খ  যাচাই-বাছাই পূর্বক আমরা প্রথমবারের মতো ৭টি ক্যাটাগরিতে ১২ ক্রীড়া ব্যক্তিত্বকে শেখ কামাল জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ পুরস্কার প্রদান করছি।

প্রথমবারের মতো সম্মানজনক এ পুরস্কারের জন্য মনোনীত সবাইকে অগ্রিম শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানান যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী রাসেল।

সংবাদ সম্মেলনে যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব মো. আখতার হোসেন স্বাগত বক্তব্য রাখেন। এ সময় জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের সচিব মো. মাসুদ করিমসহ যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয় ও জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। 

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএইচ/টিআরএইচ