এইচ টি ইমামের মৃত্যুতে মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রী-উপমন্ত্রীদের শোক

ঢাকা, রোববার   ১১ এপ্রিল ২০২১,   চৈত্র ২৮ ১৪২৭,   ২৭ শা'বান ১৪৪২

এইচ টি ইমামের মৃত্যুতে মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রী-উপমন্ত্রীদের শোক

নিজস্ব প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৩:৪০ ৪ মার্চ ২০২১   আপডেট: ১৫:২৮ ৪ মার্চ ২০২১

ফাইল ফটো

ফাইল ফটো

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার রাজনৈতিক উপদেষ্টা এইচ টি ইমামের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন মন্ত্রী, প্রতিমন্ত্রী, উপমন্ত্রীবৃন্দসহ বিভিন্ন মহল। পৃথক বাণীতে গভীর শোক প্রকাশ করে মরহুমের বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনা করেন তারা। একই সঙ্গে শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনাও জানানো হয়েছে।

এইচ টি ইমামের মৃত্যুতে গভীর শোক এবং দুঃখ প্রকাশ করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। এছাড়া ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণ আওয়ামী লীগসহ বিভিন্ন নেতারাও শোক প্রকাশ করেছেন।

এইচ টি ইমামের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন মুক্তিযুদ্ধ বিষয়কমন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক, কৃষিমন্ত্রী মো. আব্দুর রাজ্জাক, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান, আইনমন্ত্রী আনিসুল হক, তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ, অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল, স্থানীয় সরকারমন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম, শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি, পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান, বস্ত্র ও পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী, স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক, খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার, শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন, বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি, মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম, পরিবেশ বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রী মো. শাহাব উদ্দিন, ভূমিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরী, রেলমন্ত্রী মো. নূরুল ইসলাম সুজন, ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার, প্রবাসীকল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমদ, বিজ্ঞান ও প্রযু্ক্তি মন্ত্রী ইয়াফেস ওসমান, শিল্প প্রতিমন্ত্রী কামাল আহমেদ মজুমদার, যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল, বিদ্যুৎ জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ, শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী মন্নুজান সুফিয়ান, নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী, তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক, জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন, গৃহায়ণ ও গণপূর্ত প্রতিমন্ত্রী শরীফ আহমেদ, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় প্রতিমন্ত্রী স্বপন ভট্টাচার্য্য, পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী মো. এনামুর রহমান, পানিসম্পদ উপমন্ত্রী এ কে এম এনামুল হক শামীম।

ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপস ও ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র মো. আতিকুল ইসলামও শোক প্রকাশ করে বাণী দিয়েছেন।

এদিকে, এইচ টি ইমামের মৃত্যুতে জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান ও বিরোধীদলীয় উপনেতা গোলাম মোহাম্মদ কাদের গভীর শোক প্রকাশ করে বাণী দিয়েছেন।

অন্যদিকে এইচ টি ইমামের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য এবং ১৪ দলের সমন্বয়ক ও মুখপাত্র আমির হোসেন আমু।

তিনি এক শোকবার্তায় বলেন, এইচ টি ইমাম একজন দক্ষ, বিচক্ষণ ও দায়িত্বশীল কর্মকমর্তা ছিলেন। ১৯৭১ সালে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ডাকে সাড়া দিয়ে তিনি পাকিস্তান সিভিল সার্ভিসের লোভনীয় চাকরি ইস্তফা দিয়ে স্বাধীনতা সংগ্রামে শামিল হন।

দেশ স্বাধীন হওয়ার পর এইচ টি ইমাম মহান মুক্তিযুদ্ধ ও বঙ্গবন্ধুর আদর্শ বাস্তবায়নে ছিলেন অবিচল। জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের নির্বাচন পরিচালনায় এইচ টি ইমাম গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছেন। তার মৃত্যুতে দেশ একজন সৎ ও বিচক্ষণ কর্মবীরকে হারালো। যা জাতির জন্য অপূরণীয় ক্ষতি।

উল্লেখ্য, বুধবার রাত ১টা ১৫ মিনিটে রাজধানীর সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) মারা যান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার রাজনৈতিক উপদেষ্টা হোসেন তৌফিক (এইচ টি) ইমাম। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৮২ বছর।

এ তথ্য নিশ্চিত করেছিলেন প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী ও আওয়ামী লীগের দফতর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া।

কিডনি জটিলতাসহ বার্ধক্যজনিত বিভিন্ন অসুস্থতা নিয়ে বেশ কিছুদিন আগে ঢাকার সিএমএইচে ভর্তি হন এইচ টি ইমাম।

স্বাধীন বাংলাদেশের প্রথম মন্ত্রিপরিষদ সচিব এইচ টি ইমাম তৎকালীন পূর্ব পাকিস্তানের উচ্চ পর্যায়ের সরকারি কর্মকর্তা হয়েও ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণ করেন। ১৯৭১ এর মার্চ মাসে তিনি রাঙামাটির জেলা প্রশাসক ও জেলা ম্যাজিস্ট্রেটের দায়িত্বে ছিলেন। তিনি প্রবাসী বাংলাদেশ সরকার পরিচালনায় গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখেন।

২০০৯ সালে আওয়ামী লীগ সরকার গঠন করার পর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তাকে ক্যাবিনেট মন্ত্রীর মর্যাদায় জনপ্রশাসন বিষয়ক উপদেষ্টা নিয়োগ করেন। ২০১৪ সাল থেকে তিনি প্রধানমন্ত্রীর রাজনৈতিক উপদেষ্টার দায়িত্বে ছিলেন।

এইচ টি ইমাম আমৃত্যু আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য ও নির্বাচনী পরিচালনা কমিটির কো-চেয়ারম্যান এবং প্রচার ও প্রকাশনা উপ-কমিটির চেয়ারম্যানের দায়িত্বে ছিলেন।

ডেইলি বাংলাদেশ/জাআ/এমকেএ