পত্নীতলায় চাঁদা না পেয়ে ব্যবসায়ীকে মারধর

ঢাকা, মঙ্গলবার   ২৪ নভেম্বর ২০২০,   অগ্রহায়ণ ১০ ১৪২৭,   ০৭ রবিউস সানি ১৪৪২

পত্নীতলায় চাঁদা না পেয়ে ব্যবসায়ীকে মারধর

পত্নীতলা (নওগাঁ) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২১:১৬ ২০ নভেম্বর ২০২০   আপডেট: ২১:১৭ ২০ নভেম্বর ২০২০

অভিযুক্ত মিল্টন উদ্দিন

অভিযুক্ত মিল্টন উদ্দিন

নওগাঁর পত্নীতলায় হোসাইন আহম্মেদ নামে এক ব্যবসায়ীকে মারধরের অভিযোগ পাওয়া গেছে মিল্টন উদ্দিন নামে পৌর এলাকার এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে। এ ঘটনার একটি ভিডিও ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়েছে।

সোমবার (১৬ নভেম্বর) দুপুরে ওই উপজেলার পালশা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। পরদিন এ বিষয়ে থানায় লিখিত অভিযোগ করেছেন ভুক্তভোগী ব্যবসায়ী। তিনি একই উপযেলার কমলাবাড়ির খাজাম উদ্দিনের ছেলে।

জানা গেছে, পত্নীতলার পালশা এলাকায় নিজ দোকানে বসেছিলেন হোসাইন আহম্মেদ। ওই সময় হঠাৎ নজিপুর মিল্টন উদ্দিনের নেতৃত্বে আপন দত্ত, রিয়াদ হোসেন, তানভীর, জাহিন, শিহাব, রাকিব, নাহিদ, আজাদসহ কয়েকজন যুবক তার দোকনে ঢুকে এক লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে। টাকা দিতে অস্বীকার করলে ঘটনাস্থলে উপস্থিত রুবেল নামে এক ক্রেতাকে মারধর শুরু করে তারা। এতে বাধা দিলে ব্যবসায়ী হোসাইন আহম্মেদকে হাতুড়ি দিয়ে আঘাত করে মিল্টন উদ্দিন। এতে গুরুতর আহন হন ওই ব্যবসায়ী। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছে, ঘটনার পর মিল্টন উদ্দিন দোকান থেকে এক লাখ ৩০ হাজার টাকা, একটি মোবাইল ও একটি অটোভ্যান নিয়ে যায়।

ভুক্তভোগী হোসাইন আহম্মদ বলেন, আমাকে মারধর ও দোকানে লুটপাট চালানোর ঘটনায় মিল্টন উদ্দিনসহ ১০ জনের বিরুদ্ধে থানায় লিখিত অভিযোগ করেছি। এখন হামলাকারীরা আমাকে প্রাণনাশের হুমকি দিচ্ছে। আমি ঘটনার সুষ্ঠ তদন্ত ও দোষীদের বিচার দাবি করছি।

অভিযুক্ত মিল্টন উদ্দিন বলেন, এসব অভিযোগ মিথ্যা, বানোয়াট। আমি কার উপর হামলা করিনি।

পত্নীতলা থানার ওসি শামসুল আলম শাহ্ বলেন, ব্যবসায়ীকে মারধর ও দোকান লুটের ঘটনায় একটি লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর