হাবিপ্রবির ৪৯তম বিশেষ রিজেন্টবোর্ডের সভা

ঢাকা, সোমবার   ১৮ অক্টোবর ২০২১,   কার্তিক ৩ ১৪২৮,   ১০ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

হাবিপ্রবির ৪৯তম বিশেষ রিজেন্টবোর্ডের সভা

হাবিপ্রবি প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৬:১৮ ১৩ অক্টোবর ২০২১  

হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবন।

হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবন।

হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (হাবিপ্রবি) রিজেন্টবোর্ডের  ৪৯তম বিশেষ সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন হাবিপ্রবির রেজিস্ট্রার ও রিজেন্টবোর্ডের সচিব বীর মুক্তিযোদ্ধা অধ্যাপক ডা. মো. ফজলুল হক।

রিজেন্টবোর্ডের বিশেষ সভার সিদ্ধান্তের ব্যাপারে জানতে চাইলে বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার বলেন, গত ৫ অক্টোবর ৫৮তম একাডেমিক কাউন্সিলে যে সিদ্ধান্তগুলো হয়েছিলো তারমাঝে তিনটি বিষয়ের সিদ্ধান্ত রিজেন্টবোর্ডের অনুমোদন প্রয়োজন ছিলো। আর এ কারণেই রিজেন্টবোর্ডের বিশেষ সভা ডাকা হয়। এর মধ্যে ১৮ অক্টোবর থেকে পর্যায়ক্রমে হলসমূহ খুলে দেয়া (তৃতীয় বর্ষ থেকে মাস্টার্স পর্যন্ত)। পাশাপাশি উক্ত বর্ষের শিক্ষার্থীদের ২১ অক্টোবর থেকে সশরীরে ক্লাস কার্যক্রম শুরু হবে (শর্তসাপেক্ষে)। 

এ সময় রেজিস্ট্রার আরো জানান, করোনা মহামারিতে শিক্ষার্থীদের যে ক্ষতি হয়েছে তা পুষিয়ে নিতে আমরা    ছয়মাসের সেমিস্টারকে চারমাসে নিয়ে এসেছি। এ বিষয়ে রিজেন্টবোর্ড অনুমোদন দিয়েছে। বর্তমান প্রশাসন শিক্ষার্থীবান্ধব কাজ করে চলছে প্রতিনিয়ত। তাই যে যার জায়গা থেকে নিজ নিজ কাজ করে গেলে হাবিপ্রবি সামনের দিনগুলোতে অনেকদূর এগিয়ে যাবে বলে প্রত্যাশা করি।

এ দিকে রিজেন্টবোর্ডের সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়ে হাবিপ্রবির বিজ্ঞান অনুষদের শিক্ষার্থী মেরাজুজ্জামান নিয়ন বলেন, বর্তমান প্রশাসন অনেক সুদূরপ্রসারী পরিকল্পনা করে বিশ্ববিদ্যালয়কে এগিয়ে নিতে কাজ করে যাচ্ছে। বিষয়টি হাবিপ্রবির শিক্ষার্থীদের জন্য অনেক মঙ্গলজনক বলে মনে করি। তবে সিদ্ধান্তসমূহ বাস্তবে রুপায়িত হলে তা হাবিপ্রবির জন্য দৃষ্টান্ত হয়ে থাকবে বলে মনে করি।  আমরা সাধারণ শিক্ষার্থীরা সব শিক্ষার্থীবান্ধব সিদ্ধান্তের দৃশ্যমান কার্যকরী পদক্ষেপের অপেক্ষায় রয়েছি।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেডএম