দেশের সব ধর্মের মানুষ সমান অধিকার ভোগ করছে: মতিয়া চৌধুরী 

ঢাকা, রোববার   ১৭ অক্টোবর ২০২১,   কার্তিক ২ ১৪২৮,   ০৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

দেশের সব ধর্মের মানুষ সমান অধিকার ভোগ করছে: মতিয়া চৌধুরী 

নালিতাবাড়ী (শেরপুর) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৯:২০ ১২ অক্টোবর ২০২১  

শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলার গোপাল জিউর মন্দিরে উপজেলার হিন্দু সম্প্রদায়ের সঙ্গে শারদীয় দুর্গাপূজা উপলক্ষে শুভেচ্ছা বিনিময় সভায় প্রধান অতিথি বেগম মতিয়া চৌধুরী ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলার গোপাল জিউর মন্দিরে উপজেলার হিন্দু সম্প্রদায়ের সঙ্গে শারদীয় দুর্গাপূজা উপলক্ষে শুভেচ্ছা বিনিময় সভায় প্রধান অতিথি বেগম মতিয়া চৌধুরী ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও সাবেক কৃষিমন্ত্রী বেগম মতিয়া চৌধুরী বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশে ধর্ম পালনের অধিকার নিশ্চিত করেছেন। তার আমলে দেশের সব ধর্মের মানুষ সমান অধিকার ভোগ করছেন।  

মঙ্গলবার সকালে শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলার গোপাল জিউর মন্দিরে উপজেলার হিন্দু সম্প্রদায়ের সঙ্গে শারদীয় দুর্গাপূজা উপলক্ষে শুভেচ্ছা বিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। 

মতিয়া চৌধুরী বলেন, ‘বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে বাংলাদেশ স্বাধীন হয়েছে চার মূলনীতির ওপর। এর একটি হলো ধর্ম নিরপেক্ষতা। মুক্তিযুদ্ধের সময় মুসলমানরা যেমনভাবে হাতে অস্ত্র তুলে নিয়েছিল দেশমাতৃকার মুক্তির জন্য, একইভাবে হিন্দু, খ্রিস্টান, গারো ভাইয়েরাও যুদ্ধ করেছেন।’  

তিনি আরো বলেন, ‘পাক হানাদার বাহিনীর হাতে যারা ধর্ষণের শিকার হয়েছিলেন তাদের মধ্যে অনেকেই অন্য ধর্মের লোক ছিলেন। যে কারণে স্বাধীন দেশে ফিরে জাতির পিতা বলেছিলেন, যারা ধর্ষণের শিকার হয়েছে তারা আমার সন্তান। তাদের বাবার পিতার জায়গায় শেখ মুজিবুর রহমান লিখে দাও।’ 

সাবেক কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরী বলেন,‘১৯৭৫ সালে বঙ্গবন্ধুকে হত্যার পর জিয়া ও সামরিক শাসকগোষ্ঠী ধর্ম নিরপেক্ষতার বিকৃত ব্যাখা করে অনেকভাবে আমাদেরকে ধর্মহীন বলে চিহ্নিত করার অপচেষ্টা করেছেন। কিন্তু প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সব অপ প্রচারণা মোকাবিলা করে দেশে সব মানুষের অধিকার নিশ্চিত করেছেন।’ 

মতিয়া চৌধুরী উপজেলার ৩৭টি মণ্ডপের প্রতিনিধিদের হাতে সরকারি অনুদান বাবদ প্রতি মণ্ডপ নগদ ১৫ হাজার টাকা করে অর্থ বিতরণ করেন। 

এ সময় উপস্থিত ছিলেন শেরপুরের এসপি হাসান নাহিদ চৌধুরী, নালিতাবাড়ী উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান আমিনুল ইসলাম, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. ফজলুল হক, পৌর মেয়র আবুবক্কর সিদ্দিক, নকলা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা শফিকুল ইসলাম জিন্নাহ ও পূজা পরিষদ নেতা গোপাল সরকারসহ অন্যান্য নেতারা।  

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকে