দিন কাটে আলসেমিতে, জানুন চাঙ্গা থাকার কৌশল 

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১,   ফাল্গুন ১২ ১৪২৭,   ১২ রজব ১৪৪২

দিন কাটে আলসেমিতে, জানুন চাঙ্গা থাকার কৌশল 

লাইফস্টাইল ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৬:১৩ ১৯ জানুয়ারি ২০২১  

সব কাজেই আলসেমি লাগে অনেকের

সব কাজেই আলসেমি লাগে অনেকের

অনেককেই দেখা যায় সারাদিন ঝিমিয়ে কাটিয়ে দিচ্ছেন। না কাজে মন আছে নাকি অন্যকিছুতে। সবকিছুতেই আলসেমি। অন্যমনস্ক থাকেন সবসময়। এতে করে কাজের জায়গা, ঘরে সবখানেই অন্যের কথা শুনছেন। তাতেও কাজ হচ্ছে না। এতে যেন আরো ঝিমিয়ে যাচ্ছেন। 

অলসতা বা আলসেমি বিভিন্ন কারণে হতে পারে। মানসিকভাবে ঠিক না থাকলেও আলসেমি দেখা দিতে পারে, আবার শারীরিক দুর্বলতার কারণেও আলসেমি দেখা দিতে পারে। কর্মব্যস্ততার অভাব হোক বা মানসিকতা, যেকোনও কারণের জন্যে আলসেমি আমাদের জীবনে বাসা বাঁধে।

এই আলসেমি কাটানোর জন্য নানা পরিকল্পনা করলেও কোনোটাতেই কিছু কাজ হয় না। তবে কিছু প্রাকৃতিক পদ্ধতি প্রয়োগে আপনি আলসেমি কাটিয়ে উঠতে পারেন। আগে জেনে নিন অলসতার লক্ষণগুলো- মুড সুইং, চিন্তা করার ক্ষমতা হ্রাস, ক্লান্তি বা অবসাদ, এনার্জি না পাওয়া, উৎসাহের অভাব ইত্যাদি প্রধান প্রধান লক্ষণ।

চলুন জেনে নেয়া যাক আলসেমি দূর করে নিজেকে চাঙ্গা রাখার উপায়গুলো-

প্রচুর পানি পান করুন
খানিকটা অবাক হচ্ছেন নিশ্চয়? তবে অলসতা বা আলসেমি চিকিৎসা করা এবং প্রতিরোধের এক দুর্দান্ত উপায় হল নিজেকে হাইড্রেট রাখা। ডিহাইড্রেশন আপনাকে ক্লান্ত বোধ করাতে পারে। সুতরাং পানি এবং অন্যান্য স্বাস্থ্যকর তরল পর্যাপ্ত পরিমাণে গ্রহণ আপনাকে সুস্থ রাখতে পারে।

আরো পড়ুন: স্ত্রীকে খুশি রাখার ৯ উপায়

কফি 
কফিতে থাকা ক্যাফেইন এনার্জি বাড়ায়। ১ টেবিল চামচ কফি পাউডার, এক কাপ পানি, পরিমাণমতো চিনি নিন। একটি পাত্রে কফি পাউডার এবং পানি মিশিয়ে ফুটিয়ে নিন। এরপর এতে অল্প চিনি মেশান। একটু ঠাণ্ডা হওয়ার পর এটি পান করুন। প্রতিদিন ১-২ কাপ কফি পান করতে পারেন।

মধু 
মধুতে থাকা কার্বোহাইড্রেট আপনার এনার্জি বাড়াবে এবং আলসেমি ভাব কমাতে সাহায্য করবে। আপনার প্রিয় ডেজার্ট বা স্মুদি-তে কয়েক চামচ মধু মিশিয়ে খান। মধু প্রতিদিন গ্রহণ করতে পারেন।

লেবু 
লেবুর রসের সাইট্রিক অ্যাসিড অক্সিডেটিভ স্ট্রেসের বিরুদ্ধে লড়াই করে ক্লান্তি নিরাময়ে সহায়তা করতে পারে। এছাড়াও নিয়মিত ভিটামিন সি গ্রহণ আয়রন শোষণকে বাড়িয়ে তোলে, ফলে ক্লান্তি এবং স্ট্রেস দূর হয়। হাফ লেবু, এক গ্লাস গরম পানি, পরিমাণমতো মধু নিন। এবার গরম জলে লেবুর রস ও মধু দিয়ে ভালোভাবে মেশান। তারপর এটি পান করুন। এটি রোজ সকালে খালিপেটে খেলে উপকার পাবেন। 

গ্রিন টি 
গ্রিন টি-তে থাকা অ্যান্টি-অক্সিড্যান্ট পলিফেনলস আপনার মুড রিল্যাক্স করতে পারে এবং স্ট্রেস থেকে মুক্তি দিতে পারে। ১ টেবিল চামচ গ্রিন টি, এক কাপ পানি, মধু নিন। এক কাপ জলে গ্রিন টি মিশিয়ে ফুটিয়ে নিন। হালকা ঠাণ্ডা হলে এটি পান করুন। স্বাদ বাড়াতে এতে একটু মধু মেশাতে পারেন। প্রতিদিন দু'বার গ্রিন টি পান করতে পারেন।

ডেইলি বাংলাদেশ/কেএসকে