ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় জামিন হয়নি তরিকুলের

ঢাকা, রোববার   ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১,   আশ্বিন ৪ ১৪২৮,   ১০ সফর ১৪৪৩

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় জামিন হয়নি তরিকুলের

নিজস্ব প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৭:৪৭ ২৮ জুলাই ২০২১  

হাইকোর্টের ফাইল ফটো

হাইকোর্টের ফাইল ফটো

আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য এবং ১৪ দলের মুখপাত্র আমির হোসেন আমু ও তার মেয়ে সুমাইয়া হোসেনকে নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে কটূক্তি করার অভিযোগে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে করা মামলায় তরিকুল ইসলামকে জামিন দেননি হাইকোর্ট।

জামিন আবেদনের শুনানি করে বুধবার বিচারপতি জে বি এম হাসানের নেতৃত্বাধীন ভার্চুয়াল হাইকোর্ট বেঞ্চ এ আদেশ দেন। 

আদালতে জামিন আবেদনের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী এসকে ইউসুফুর রহমান। অন্যদিকে রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল তুষার কান্তি রায়। 

আইনজীবী ইউসুফুর রহমান শুনানিতে বলেন, আমার মক্কেল এফআইআরভুক্ত আসামি না। তাকে সন্দেহজনকভাবে আসামি করা হয়েছে। তাছাড়া এফআইআরে কুরুচিপূর্ণ বক্তব্যের কথা বলা হয়েছে। কিন্তু কী বক্তব্য সেটি উল্লেখ করা হয়নি। এ মামলার এক নম্বর আসামি মো. রাব্বি। তিনি জামিনে আছেন। তরিকুল ইসলাম পাঁচ মাস ধরে কাস্টডিতে আছেন। 

শুনানিকালে আদালত দেখতে পান আসামির বিরুদ্ধে আরো সাতটি মামলা রয়েছে। পরে তাকে জামিন না দিয়ে আবেদনটি বাতিল করে দেন আদালত। 

উল্লেখ্য, ২০২০ সালের ৫ ডিসেম্বর আমির হোসেন আমু ও তার মেয়ে সুমাইয়া হোসেনকে নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে কুরুচিপূর্ণ মন্তব্য করায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা হয়। এ মামলায় শেখ মো. রাব্বীকে গ্রেফতার করা হয়। 

ঝালকাঠি জেলা আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক আ স ম মোস্তাফিজুর রহমান মনু ৬ ডিসেম্বর রাতে ঝালকাঠি থানায় রাব্বিসহ অজ্ঞাত চার থেকে পাঁচজনকে আসামি করে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে ওই মামলা করেন। 

একই মামলায় সন্দেহভাজন আসামি হিসেবে তরিকুল ইসলামকে গত ৯ এপ্রিল গ্রেফতার করে পুলিশ। এরপর তিনি জামিন চেয়ে হাইকোর্টে আবেদন করেন।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকেএ