আদালত সংশ্লিষ্টদের স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার আহ্বান প্রধান বিচারপতির

ঢাকা, রোববার   ১৬ মে ২০২১,   জ্যৈষ্ঠ ২ ১৪২৮,   ০৩ শাওয়াল ১৪৪২

আদালত সংশ্লিষ্টদের স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার আহ্বান প্রধান বিচারপতির

নিজস্ব প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৪:৫৪ ৩১ মার্চ ২০২১   আপডেট: ১৬:৩২ ৩১ মার্চ ২০২১

প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন - ফাইল ছবি

প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন - ফাইল ছবি

আদালত অঙ্গন অনেক বেশি সংক্রমণ ঝুঁকিপূর্ণ উল্লেখ করে আইনজীবী ও আদালত সংশ্লিষ্টদের স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার আহ্বান জানিয়েছেন প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন।

সুপ্রিম কোর্টের অবকাশকালীন ছুটির পর আজ বুধবার সকালে বিচারিক কার্যক্রমের শুরুতেই আপিল বিভাগের বেঞ্চে প্রধান বিচারপতি এ আহ্বান জানান। এরপর প্রধান বিচারপতির নেতৃত্বাধীন তিন সদস্যের ভার্চুয়াল আপিল বিভাগে বিচারিক কার্যক্রম শুরু হয়। সকাল সাড়ে ৯টার দিকে ভার্চুয়ালি যুক্ত হন বিচারপতিরা।

আইনজীবীদের উদ্দেশ্যে প্রধান বিচারপতি বলেন, আশা করি, সবাই সুস্থ ছিলেন। আমাদের সভাপতি (সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সভাপতি আবদুল মতিন খসরু) অসুস্থ। উনি যাতে তাড়াতাড়ি আরোগ্য লাভ করেন, সে জন্য সবাই প্রার্থনা করি। সবাই স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলবেন। স্বাস্থ্যবিধি না মানার কারণেই আবার করোনার বিস্তার ঘটছে। করোনার যে ধরনটা দেখা যাচ্ছে, সেটা তো ব্যাপকভাবে বিস্তার ঘটাচ্ছে।

তিনি বলেন, স্বাস্থ্যবিধি সবাই মানবেন। স্বাস্থ্যবিধি না মানার কারণে এই করোনার ব্যাপক বৃদ্ধি। আজকেও পেপারে ছবি আসছে, কেউ মাস্ক পরা নেই। এখন যেটি আসছে (করোনার ধরন), তা ছড়াচ্ছে বেশি। খুব তাড়াতাড়ি ছড়িয়ে যাচ্ছে। সুতরাং সবাই স্বাস্থ্যবিধি মানবেন।

সাপ্তাহিক ছুটিসহ প্রায় দুই সপ্তাহ অবকাশ শেষে আজ সুপ্রিম কোর্ট খুলেছে। বিচারিক কার্যক্রম শুরুর আগে ভার্চুয়াল কোর্টে প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন আরো বলেন, আমাদের কোর্টে তো অগণিত লোক আসে। সুতরাং যারা আইনজীবী আছেন, খুব সাবধান থাকবেন। আবার অনেকেই যাচ্ছেন ফিজিক্যাল (শারীরিক উপস্থিতি) কোর্টে। আর কারও সামনে লোক থাকলে অবশ্যই মাস্ক পরবেন। সামনে লোক না থাকলে মাস্ক পরার দরকার নেই। আমাদের এখানে সামনে লোক থাকে। ফাইল দিতে হয়। ফাইল একটার পর একটা আসে। এ জন্য বাধ্য হয়ে মাস্ক পরতে হয়।

এ সময় আপিল বিভাগের সংশ্লিষ্ট বেঞ্চ কর্মকর্তার উদ্দেশ্যে প্রধান বিচারপতি বলেন, আপনিও কোট পরবেন না। কোট সবচেয়ে ঝুঁকি, সাংঘাতিক ঝুঁকি। বাসায় গিয়ে শার্ট ধোয়া যায়। কোট ধোয়া যায় না।

উল্লেখ্য, করোনাভাইরাসের পরিবর্তিত পরিস্থিতিতে বিচারক ও আইনজীবীদের কালো কোট এবং গাউন পরিধান করার প্রয়োজন নেই বলে সুপ্রিম কোর্টের জ্যেষ্ঠ বিচারপতিদের সঙ্গে আলোচনা করে গতকাল মঙ্গলবার সিদ্ধান্ত দেন প্রধান বিচারপতি। সে অনুযায়ী আজ বিচারপতি ও আইনজীবীরা কালো কোট ও গাউন ছাড়াই মামলার শুনানি করছেন।

ডেইলি বাংলাদেশ/টিআরএইচ/এইচএন