শ্রীলংকায় যাবে বাংলাদেশ!

ঢাকা, শুক্রবার   ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২০,   আশ্বিন ১০ ১৪২৭,   ০৭ সফর ১৪৪২

শ্রীলংকায় যাবে বাংলাদেশ!

স্পোর্টস ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১২:৪৩ ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২০   আপডেট: ১৩:২৮ ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২০

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

কিছুদিন আগে শ্রীলংকা ক্রিকেট বোর্ডের (এসএলসি) শর্ত মেনে সেদেশে খেলতে যাওয়া সম্ভব নয় বলে জানিয়েছিলেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) সভাপতি নাজমুল হাসান। এমতাবস্থায় আসন্ন লংকা সফর নিয়ে শঙ্কা দেখা দেয়। খুশির খবর, কেটে গেছে অনিশ্চয়তার কালো মেঘ। এখন শুধু আনুষ্ঠানিক ঘোষণাই বাকি। পূর্ব পরিকল্পনা অনুযায়ী ২৭ সেপ্টেম্বর কলম্বোর উদ্দেশ্যে রওনা দেবে টাইগাররা। 

মূলত কোয়ারেন্টাইনের কড়াকড়ির কারণেই এসএলসির প্রস্তাব মেনে সফরে যেতে রাজী হয়নি বিসিবি। তবে বুধবার নিজ দেশের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের অধীন করোনা টাস্কফোর্সের সঙ্গে শ্রীলংকা ক্রিকেট বোর্ডের আলোচনার পর সফরের পালে জোর হাওয়া লেগেছে। এমনকি বিসিবি যতটুকু ছাড় চেয়েছিল তারচেয়েও বেশি ছাড় দিচ্ছে দেশটি। ফলে বলা যায় এ সফরের পথে আর কোনো বাধা নেই।

সূত্রমতে, এখন কোয়ারেন্টাইনের বদলে ডাম্বুলায় ৭ দিন আইসোলেশনে থাকবে মুমিনুলের দল। দেশটিতে পৌঁছানোর পর প্রথম করোনা টেস্টের ফলাফল নেগেটিভ এলেই ক্রিকেটাররা অনুশীলনে নেমে পড়তে পারবেন। তবে হোটেল এবং মাঠে অবশ্যই সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখতে হবে। আর এই ৭ দিন পর পুরোদমে অনুশীলন করতে পারবে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল।

ডাম্বুলায় ১৫ দিনের ক্যাম্প শেষে ক্যান্ডিতে যাবে টাইগাররা। সেখানে ১৮-২০ অক্টোবর শ্রীলংকা ‘এ’ দলের বিপক্ষে তিন দিনের ট্যুর ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ। এরপর ২৪ অক্টোবর শ্রীলংকার বিপক্ষে তিন টেস্ট সিরিজের প্রথমটিতে খেলতে নামবে টাইগাররা। এই ম্যাচ দিয়েই করোনাপরবর্তী সময়ে প্রথমবার আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলবে লাল সবুজের প্রতিনিধিরা।

অবশ্য এখনই আনুষ্ঠানিকভাবে চূড়ান্ত কিছু বলতে নারাজ বিসিবির প্রধান নির্বাহী নিজাম উদ্দিন চৌধুরী। দেশের এক গণমাধ্যমকে তিনি বলেন, ‘ওদের (এসএলসি) সঙ্গে আমাদের নিয়েমিত যোগাযোগ আছে। সরকারের সঙ্গে ওদের ফলপ্রসূ আলোচনা হয়েছে শুনেছি। তবে সফরের ব্যাপারে এখনো কিছু আনুষ্ঠানিকতা আছে। আশা করি বৃহস্পতিবার (১৭ সেপ্টেম্বর) ওরা কিছু একটা জানাবে।’

এসএলসির উত্তর ইতিবাচক হবে কি না জানতে চাইলে বিসিবি সিইও বলেন, ‘যা-ই হোক না কেন, স্বাগতিকদের কাছ থেকেই ঘোষণা আসুক। তবে সফরের ব্যাপারে আমরা আশাবাদী।’

ডেইলি বাংলাদেশ/এএল