কর্মীদের কাছ থেকে কাজ আদায়ের গুপ্ত কৌশল

ঢাকা, শনিবার   ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০,   আশ্বিন ১২ ১৪২৭,   ০৯ সফর ১৪৪২

কর্মীদের কাছ থেকে কাজ আদায়ের গুপ্ত কৌশল

লাইফস্টাইল ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১২:৫০ ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২০   আপডেট: ১২:৫৩ ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২০

ছবি: নেতা ও কর্মীরা

ছবি: নেতা ও কর্মীরা

‘নেতাদের উচি‌ত তার লোকদের জ্ঞান ও চিন্তাশক্তি বাড়ানোর জন্য দিক নির্দেশনা দেয়া’ এমনই মত বিল গেটসের। যোগ্য নেতৃত্ব ছাড়া কোনো দল বা প্রতিষ্ঠানই টিকতে পারে না। 

নেতৃত্ব নিয়ে উক্তি করে গেছেন প্রায় সব বড় নেতা। সঠিক নেতৃত্বের প্রভাবে একটি পরিবার, প্রতিষ্ঠান, দেশ এমনকি বিশ্বও বদলে যেতে পারে। একজন যোগ্য নেতা ও তার নেতৃত্বের হাত ধরে একটি নতুন সভ্যতার জন্ম হতে পারে, শুরু হতে পারে নতুন যুগ। 

আরো পড়ুন: ঘি তৈরির সঠিক প্রক্রিয়াটি জানেন কি?

নেতৃত্ব প্রদানকারীর নিজের যোগ্যতা ছাড়া কর্মীদের কাছ থেকে কাজ আদায় করা কঠিন। তা দল বা প্রতিষ্ঠান যতই ছোট বা বড় হোক না কেন! পুরো টিমকে পরিচালনা করতে কিছু কৌশল বা উপায় জরুরি। ফলে আপনি যদি নেতা হতে চান, তাহলে কিছু গুণাবলীও থাকতে হয়। আসুন তবে জেনে নেই সেসব সম্পর্কে-

> নেতাকে অনেক সময় এমন কিছু সিদ্ধান্ত নিতে হয়, যা সবার পছন্দ নয়।

> কোনো জটিল বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে হলে কিছু বিষয় এড়িয়ে চলতে হবেই।

> নেতার দৃষ্টিভঙ্গি স্বচ্ছ থাকা জরুরি। পাশাপাশি কাজের প্রতি দায়বদ্ধতা ও নমনীয়তা দরকার।

> নেতা হিসাবে দলের কাছ থেকে বিশ্বাসযোগ্যতা আদায় করতে হবে।

> নেতাকে সব সময়ই নিজের কাজটি ভালোবেসে করা উচিত।

> নেতা নিজে যা সঠিক বলে মনে করেন, তা-ই করবেন। কখনো সে পথ থেকে সরবেন না।

> যা করণীয়, তা দ্রুত করতে হবে। কখনো পেছন ফিরে তাকাবেন না।

আরো পড়ুন: পেঁয়াজ ছাড়াই রান্না করা সম্ভব সুস্বাদু সব খাবার

> দায়িত্ব পালন করার আগে মনে রাখতে হবে, যাতে পরবর্তী ধাপগুলোও ঠিকঠাক থাকে।

> নেতার অফুরান প্রাণশক্তি ভীষণ জরুরি। যা নেতাকে তার লক্ষ্যে পৌঁছে দেবে।

> সাহস থাকা জরুরি নেতার। যেসব নেতাদের সাহস নেই, তারা সবসময় সহজ পথ অনুসরণ করে। তারা যে কোনো কঠিন পরিস্থিতিতে নিজেদের নিরাপদ রেখে নেতৃত্ব দেয়ার কাজ সম্পন্ন করে।

> মহান নেতারা অনুসারীদের সঙ্গে গোল্ডেন রুল মেনে চলেন। তারা সবাইকে সমান মনে করে যে যেভাবে আচরণ পেতে চান, তাদের সঙ্গে সেভাবেই আচরণ করেন। মহান নেতারা জনগণের প্রয়োজন বুঝে নিজের নেতৃত্বের পদ্ধতি পরিবর্তন করেন।

> নেতারা সর্বদা চ্যালেঞ্জ, সমালোচনা এবং অন্যদের মতামতকে সাদরে গ্রহণ করে। তারা জানেন সাধারণ মানুষ যেখানে কথা বলতে ভয় পান, মতামত প্রকাশে ভয় পান সেখানকার পরিবেশ বিপর্যস্ত হয়। তাই নিজেদেরকে সবার জন্য সহজগম্য রেখে মহান নেতারা তাদের সংস্থাকে এগিয়ে নিতে পারেন।

> কাউকে পথ দেখিয়ে দেয়া বা পথে যেতে বলাকে নেতৃত্ব দেয়া বলে না। অনুসারীদের সঙ্গে সেখানে যাওয়াকেই বলা হয় নেতৃত্ব দেয়া। উক্তিটি কেন কেসেই এর।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএমএস