পণ্যবাহী ট্রেনে যাচ্ছে যাত্রীও

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ০৬ মে ২০২১,   বৈশাখ ২৩ ১৪২৮,   ২৩ রমজান ১৪৪২

পণ্যবাহী ট্রেনে যাচ্ছে যাত্রীও

চট্টগ্রাম প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৭:৪৫ ৩ মে ২০২১  

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

করোনার সংক্রমণ রোধে বন্ধ রয়েছে যাত্রীবাহী ট্রেন চলাচল। কিন্তু স্বাভাবিক রয়েছে পণ্যবাহী পার্সেল ট্রেন চলাচল। আর এ সুযোগকে কাজে লাগিয়ে পার্সেল ট্রেনে যাত্রী পরিবহনের অভিযোগ ওঠেছে একটি সিন্ডিকেটের বিরুদ্ধে।

জানা গেছে, ঈদ যতই ঘনিয়ে আসছে ততই বাড়ছে পার্সেল ট্রেনে যাত্রী পরিবহন। এক্ষেত্রে জড়িত রয়েছে রেলের কর্মচারী ও আরএনবির একটি সিন্ডিকেট। রেলওয়ের কয়েকজন কর্মকর্তার সঙ্গে কথা বলে পাওয়া গেছে এর সত্যতাও।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে রেলওয়ে পূর্বাঞ্চলের বিভাগীয় পরিবহন কর্মকর্তা স্নেহাশীষ দাশগুপ্ত বলেন, পার্সেল ট্রেনে যাত্রী পরিবহনের অভিযোগ পাইনি। তবে আমাদের স্টাফরা বিভিন্ন স্টেশনে কাজে যান। তাদের দেখে হয়তো কেউ যাত্রী মনে করেছেন। তবুও বিষয়টি খতিয়ে দেখা হবে।

রেলওয়ে পূর্বাঞ্চলের বিভাগীয় বাণিজ্যিক কর্মকর্তা আনসার আলী বলেন, পার্সেল ট্রেনে যাত্রী যাওয়ার ব্যাপারে দু’দিন অভিযোগ পেয়েছি। এরপর স্টেশনের আরএনবি টিমকে দায়িত্ব দিয়েছি যেন বাইরের কোনো লোক যেতে না পারে। তবে আমাদের কিছু স্টাফ যারা বাইরে বিভিন্ন স্টেশনে কাজ করেন তাদেরকে যেতে দিতে হয়। এছাড়া যাত্রী যাওয়ার সুযোগ নেই।

গত ১৪ এপ্রিল থেকে যাত্রীবাহী ট্রেন চলাচল বন্ধ থাকায় প্রান্তিক কৃষকের উৎপাদিত সবজি, মাছ, শুটকি ও ফলমূলসহ জরুরি পরিবহনের জন্য চালু হয় পার্সেল ট্রেন। চট্টগ্রাম থেকে জামালপুর সরিষাবাড়ি পর্যন্ত ২২টি স্টেশনে বিরতি নেয় ট্রেনটি। 

এরমধ্যে রয়েছে সীতাকুণ্ড, চিনকি আস্তানা, ফেনী, নাঙ্গলকোট, লাকসাম, কুমিল্লা, আখাউড়া, ভৈরব বাজার, কালিয়ারচর, বাজিতপুর, সরারচর, মানিকখালী, গচিহাটা, কিশোরগঞ্জ, নান্দাইল, আঠারবাড়, সোহাগী, ঈশ্বরগঞ্জ, গৌরীপুর ময়মনসিংহ জংশন, ময়মনসিংহ নুরুন্দি, নন্দিনা ও জামালপুর স্টেশন।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএম