অভিশাপ থেকে মুক্ত হচ্ছি: অধরা খান

ঢাকা, বুধবার   ০৩ মার্চ ২০২১,   ফাল্গুন ১৮ ১৪২৭,   ১৮ রজব ১৪৪২

অভিশাপ থেকে মুক্ত হচ্ছি: অধরা খান

রুম্মান রয় ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৯:২৯ ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২১  

অধরা খান

অধরা খান

২০১৬ সালে মহরত হয়েছিল অধরা খান অভিনীত প্রথম ‘পাগলের মতো ভালোবাসি’ ছবির। এরপর অধরা অভিনীত ‘মাতাল’ ও ‘নায়ক’ নামক দুটি ছবি মুক্তি পেলেও ছবিটি আলোর মুখ দেখছিল না। অবশেষে ‘পাগলের মতো ভালোবাসি’ সিনেমা হলে আসছে। আগামীকাল (১৯ ফেব্রুয়ারি) ছবিটি মুক্তি পাচ্ছে। 

ছবিটি নিয়ে অধরা খানের প্রত্যাশাসহ সমসাময়িক বিষয় নিয়ে কথা বলেন ডেইলি বাংলাদেশ-এর সঙ্গে। তার সাক্ষাৎকার নিয়েছেন রুম্মান রয়।

দীর্ঘ পাঁচ বছর পর আপনার প্রথম অভিনীত ছবি ‘পাগলের মতো ভালোবাসী’ মুক্তি পাচ্ছে। অনুভূতিটা কেমন?
অধরা খান:
অভিশাপ থেকে মুক্ত হচ্ছি। আমার কোনো নিউজ হলে এই ছবির নাম চলে আসতো। বলা যায় এখন এক ধরনের অভিশাপ মুক্তি হচ্ছে।

পাঁচ বছর আগে ছবিটি নির্মাণ হয়েছিলো। এখন অনেক কিছুই পরিবর্তন হয়েছে। আপনার কি মনে হয় দর্শক এখন ছবিটা দেখবে?
অধরা খান:
ছবির নির্মাতা শাহীন সুমন ভাই অনেক বছর ধরেই ছবি নির্মাণ করছেন।পাঁচ বছর আগেও উনি ছবি নির্মাণ করছেন। সেদিক থেকে বলা যায় উনার নির্মাণ তো চেঞ্জ হয়নি। এখন দর্শক দেখবে কি দেখবে না এটা দর্শকই সিদ্ধান্ত নিবে।

এই ছবিতে আপনার চরিত্রটা কেমন?
অধরা খান:
সচরাচর বাংলা সিনেমার নায়িকারা যেমন চরিত্রে অভিনয় করেন এখানে আমিও তেমন একটি চরিত্রে অভিনয় করেছি। আসলে এটা একটি সমসাময়িক প্রেমের গল্প। আমি এখানে একজন ইউনিভার্সিটির ছাত্রীর চরিত্রে অভিনয় করেছি।

আপনার হাতে থাকা সিনেমাগুলো অবস্থা কি?
অধরা খান:
সৈকত নাসির ভাইয়ে ‘বর্ডার’ ছবির কাজ শেষ করলাম আর অপূর্ব রানা ভাইয়ের ‘গিভ অ্যান্ড টেক’ ছবির শুটিং করলাম। সৈয়দ অহিদুজ্জামান ডায়ামন্ড ভাইয়ে ‘কোভিড-১৯ ইন বাংলাদেশ’ অল্প কয়েক দিন শুটিং হয়েছে। ছবিগুলোর অর্ধেক কাজ হয়ে ঝুলে আছে। বাদবাকি শুটিং কবে শুরু হবে ডিরেক্টর প্রযোজকরা ভালো বলতে পারবেন।

নতুন কোনো ছবি হাতে নিয়েছেন?
অধরা খান:
না। এই মুহূর্তে নতুন কোনো ছবি হাতে নেইনি।গল্প দেখতেছি। সাইনিং না হওয়া পর্যন্ত আসলে কিছু বলতে চাচ্ছি না।

এখন চলচ্চিত্রের অবস্থা ভালো না। নিজের ক্যারিয়ার নিয়ে কি স্বপ্ন দেখছেন?
অধরা খান:
কাজ করার চেষ্টা করতেছি। ইন্ডাস্ট্রির এই অবস্থা এখানে স্বপ্ন দেখার কিছু নেই। সবাই মিলে ভালো কিছু করার চেষ্টা করছি। আমরা তো কাজ করার চেষ্টা করছি। ইন্ডাস্ট্রি না থাকলে তো আমরাও থাকতে পারবো না। হাওয়া যেদিকে বইবে আমরা সেদিকে যাবো।

ওটিটি প্লাটফর্মে কাজ করার কোনো ইচ্ছা আছে আপনার?
অধরা খান:
আপাতত ওটিটি প্লাটফর্মে কাজ করার কোনো ইচ্ছা নেই। এই প্লাটফর্মে তখনই কাজ করবোযখন ভালো ডিরেক্টর ভালো গল্প আর ডিরেক্টর পাবো। এটা ডিপেন্ড করবে প্রজেক্টের উপর। 

আপনি অবসরে কি করেন?
অধরা খান:
আমি ভ্রমণ করতে ভীষণ পছন্দ করি। প্রচুর বই পড়ি। নতুন নতুন ভালো ভালো মুভি দেখি।

ভালো কি রান্না করতে পারেন?
অধরা খান:
 আমি কোনো রান্না করতেই পারিনা। আম্মু একদমই পছন্দ করেন না রান্না ঘরে যাওয়া। কারণ রান্না করলে নখ ভেঙে যাবে হাতে দাগ পড়বে তাই মানা করেন।

এবারের ‘ভেলেন্টাইনস ডে’ কেমন কাটলো আপনার?
অধরা খান:
এবারের ভেলেন্টাইনস ডে আমার বেস্ট ভেলেন্টাইনস ডে ছিলো।

তাহলে কি সামনে বিয়ের কোনো পরিকল্পনা আছে?
অধরা খান:
 বিয়ে! এটা অনেক দেরী আছে। এতো দ্রুত বিয়ে করে ফেললে হবে! কাজ করবে কারা? বিয়ে করে তো ঘর-সংসার করলে সিনেমা অভিনয় করবো না। তখন তো শ্বশুরবাড়িতে সময় দিতে হবে। সেখানে ঝগড়া হবে প্রেম ভালোবাসা হবে। তখন ডিরেক্টর নায়ক কারো সঙ্গেই তো আর কাজ করা হবে না।

আপনাদের নিয়ে গসিপ গুঞ্জন হয়, এগুলো আপনি কিভাবে দেখেন?
অধরা খান:
 আমি আসলে একদমই নিতে পারিনা। আমি সব সময় চেষ্টা করি সোজাসাপ্টা কথা বলতে।

ডেইলি বাংলাদেশ/টিএএস