দুর্নীতির দায়ে ফ্রান্সের সাবেক প্রেসিডেন্টের কারাদণ্ড

ঢাকা, শনিবার   ১০ এপ্রিল ২০২১,   চৈত্র ২৮ ১৪২৭,   ২৬ শা'বান ১৪৪২

দুর্নীতির দায়ে ফ্রান্সের সাবেক প্রেসিডেন্টের কারাদণ্ড

আন্তর্জাতিক ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১০:২৭ ২ মার্চ ২০২১  

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

দুর্নীতি ও ক্ষমতার অপব্যবহারের দায়ে ফ্রান্সের সাবেক প্রেসিডেন্ট নিকোলাস সারকোজিকে তিন বছরের কারাদণ্ড দিয়েছে প্যারিসের একটি আদালত। এর মধ্যে দুই বছরের স্থগিত দণ্ড রয়েছে।

স্থানীয় সময়  সোমবার দেশটির আদালত সাবেক প্রেসিডেন্টকে এ সাজা দেয় বলে জানিয়েছে সংবাদমাধ্যম আল জাজিরা।

ফ্রান্সের দণ্ডিত সাবেক প্রেসিডেন্টদের মধ্যে সারকোজি দ্বিতীয়। এর আগে দুর্নীতির দায়ে দেশটির সাবেক প্রেসিডেন্ট জ্যাক শিরাককে কারাদণ্ডাদেশ দেয়া হয়েছিল।

২০০৭ থেকে ২০১২ সাল পর্যন্ত ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন ৬৬ বছর বয়সী সারকোজি। আদালতের রায়ের বিরুদ্ধে তিনি আপিল করবেন বলে জানিয়েছেন আইনজীবী।

আদালতে প্রসিকিউটররা বিচারকদের বলেন, ২০০৭ সালে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে প্রচারের জন্য সারকোজির বিরুদ্ধে কসমেটিকস কোম্পানি ল’রিয়েলের উত্তরাধিকারী লিলিয়ান বেটেনকোর্টের কাছ থেকে বেআইনিভাবে টাকা নেয়ার অভিযোগ ওঠে।

এ নিয়ে তদন্ত শুরু হলে একপর্যায়ে ২০১৪ সালে বিচারক গিলবার্ট আজিবার্টকে তদন্ত-সংক্রান্ত গোপনীয় তথ্য দিতে বলেন সারকোজি। বিনিময়ে ওই বিচারককে মোনাকোতে চাকরি দেয়ার কথা বলেন তিনি।

সারকোজি ও তার আইনজীবী থিয়েরি হারজগের কথোপকথন টেলিফোনে আড়ি পাতা হলে বিষয়টি সামনে আসে। ২০০৭ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের প্রচারে লিবিয়ার অর্থায়নের আরেকটি অভিযোগ তদন্তের স্বার্থে টেলিফোনে আড়ি পাতা হয়েছিল।

আদালতের পক্ষ থেকে বলা হয়, সারকোজি যে বেআইনি কাজ করছেন, তা তিনি ভালোভাবেই জানতেন।

দুর্নীতি ও ক্ষমতা অপব্যবহারের দায়ে সারকোজি ছাড়াও আরও দুই আসামিকে দোষী সাব্যস্ত করা হয়। তাদেরও একই দণ্ড দেয় ফ্রান্সের আদালত।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএএইচ