নিজের মেয়ের আপত্তিকর ছবি পাঠিয়ে কিশোরকে উত্তেজিত করার চেষ্টা, মায়ের জেল

ঢাকা, মঙ্গলবার   ০২ মার্চ ২০২১,   ফাল্গুন ১৭ ১৪২৭,   ১৭ রজব ১৪৪২

নিজের মেয়ের আপত্তিকর ছবি পাঠিয়ে কিশোরকে উত্তেজিত করার চেষ্টা, মায়ের জেল

আন্তর্জাতিক ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ০৩:৪৯ ১৬ জানুয়ারি ২০২১   আপডেট: ০৩:৪৯ ১৬ জানুয়ারি ২০২১

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

আমেরিকার ফিলাডেলফিয়ায় নিজের মেয়ের আপত্তিকর ছবি এক কিশোরকে পাঠাত ৪৫ বছর বয়সী মা। সেই ছবি দেখিয়ে উত্তেজিত করার চেষ্টা করত হত। কিন্তু শেষ পর্যন্ত সব ধরা পড়ে যাওয়ায় লিন্ডা পাওলিনি নামে ৩৫ বছরের জেল হলো মায়ের।

লিন্ডার বিরুদ্ধে অভিযোগ, নিজের মেয়ের ছবি পাঠিয়ে ওই কিশোরকে সে বোঝাতে চেয়েছিল আসলে সেই ওই কিশোরী। প্রলোভন দেখিয়ে শিশু পর্নোগ্রাফি তৈরিও করিয়ে নিয়েছিল ওই কিশোরের কাছ থেকে। ছেলেটি বুঝতেই পারেনি যে সে ১৬ বছরেরে কোনো মেয়েকে মেসেজ করছে না।

আনন্দবাজার এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, নিজের ১৬ বছরের মেয়ের ছবি পাঠিয়ে লিন্ডা বোঝাতে চেয়েছিল যে ওই মেয়েটির কিশোরের প্রতি আকর্ষণ রয়েছে। কিন্তু লিন্ডার মেয়ে ঘুণাক্ষরেও টের পায়নি এসব। এই ছবি পাঠিয়ে ওই কিশোরের থেকে নগ্ন ছবি, ভিডিও চাইতে থাকে মা। এরপর অনলাইন ভিডিও চ্যাটের সময় আত্মহত্যার ভয় দেখায়, ওই কিশোরও আত্মহত্যার চেষ্টা করে।

আদালত জানিয়েছে, খুব ঠাণ্ডা মাথায় জঘন্য এক অপরাধ করেছে ৪৫ বছর বয়সী ওই নারী। ওই কিশোরকে নিজের নগ্ন ছবি পাঠাতে বাধ্য করেছে। শেষ কয়েক মাসের মধ্যে ৫০ হাজার মেসেজ দেয়া-নেয়া হয়েছে তাদের মধ্যে। ইনস্টাগ্রামের মাধ্যমে এসব নগ্ন ছবি পাঠাত বা চাইত লিন্ডা।

পুলিশ জানিয়েছে, লিন্ডা পাওলিনি মানসিকভাবে অসুস্থ। এ কারণেই সে এরকম কাণ্ড ঘটিয়েছে। শুধু ওই কিশোর নয়, আরো দুইজনের সঙ্গে সে একই মেসেজ দেয়া-নেয়া করত। তার গতিবিধি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর