পাঁচ খাবারে হাড় হবে মজবুত

ঢাকা, মঙ্গলবার   ০৩ আগস্ট ২০২১,   শ্রাবণ ১৯ ১৪২৮,   ২৩ জ্বিলহজ্জ ১৪৪২

পাঁচ খাবারে হাড় হবে মজবুত

স্বাস্থ্য ও চিকিৎসা ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১০:৪১ ১০ মে ২০২১   আপডেট: ১০:৫৮ ১০ মে ২০২১

হাড়ের যত্নে করণীয়। ছবি: সংগৃহীত

হাড়ের যত্নে করণীয়। ছবি: সংগৃহীত

আমাদের মধ্যে অনেকেই আছেন যারা হাঁটুর ব্যথা, কোমরে ব্যথায় ভোগেন। যা খুবই যন্ত্রণাদায়ক। এই ব্যথার কারণে ঠিকভাবে চলাফেরা বা কাজকর্মও করা কঠিন হয়ে পড়ে। তাইতো নিজেকে কর্মক্ষম রাখতে হাড়ের প্রতি হতে হবে যত্নবান।    

চিকিৎসকরা জানাচ্ছেন, হাড়ে পুষ্টির পরিমাণ কমে গেলে হাড় হালকা ও ভঙ্গুর হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা থাকে। হাড় ভালো রাখতে প্রয়োজন পড়ে ভিটামিন ডি এবং ক্যালসিয়ামের। সূর্যালোক থেকে যদিও ভিটামিন ডি আমাদের শরীরে প্রবেশ করে, কিন্তু সেটুকুই যথেষ্ট নয়। তাই চাই এমন কিছু খাবার যা আমাদের হাড় মজবুত করবে। চলুন তবে জেনে নেয়া যাক হাড় মজবুত করতে নিয়মিত কোন পাঁচটি খাবার খাওয়া জরুরি-

মাছ

টুনা, স্যামন, ট্রাউট এই মাছগুলো হলো ফ্যাটি মাছ। এতে আছে ওমেগা থ্রি ফ্যাটি অ্যাসিড। আর এই মাছে আপনার ভিটামিন ডি ও ক্যালসিয়ামের ঘাটতি অনেকটাই দূর হবে।

দুধ

শরীরে ক্যালসিয়ামের ঘাটতি মিটিয়ে হাড়ের ঘনত্ব বাড়াতে দুধের জুড়ি নেই। তাছাড়া দুগ্ধজাত অন্যান্য জিনিস যেমন ঘি, ছানা এগুলোও ভালো। তবে আপনি যদি ল্যাকটোজেন ইনটলারেন্ট হন, অর্থাৎ আপনার দুধে অ্যালার্জি থাকলে ডাক্তারের পরামর্শ নেবেন।

সয়া দুধ বা টফু

দুধে অ্যালার্জি থাকলে খেতে পারবেন সয়া দুধ। সয়া দুধ, টফু বা অন্যান্য সয়া জাতীয় খাদ্য হাড়ের জন্য অত্যন্ত উপকারী। এগুলো ভিটামিন ডি সমৃদ্ধ। নিয়মিত এ ধরনের খাবার খেলে হাড় সুস্থ থাকবে।

ডিমের কুসুম

ডিমে প্রোটিন থাকে। বিশেষ করে ডিমের সাদা অংশে। কিন্তু যদি আপনার উদ্দেশ্য হয় হাড় মজবুত করা, তাহলে ডিমের কুসুম খাবেন। ডিমের কুসুম ভিটামিন ডি আর ক্যালসিয়াম দুটোই বৃদ্ধি করে। তবে দুধের মতো আপনার ডিমেও অ্যালার্জি থাকলে একটু সামলে।

শাকসবজি

পাত জুড়ে সবুজ শাকসবজি রাখুন। যাদের দুধ বা ডিমে অ্যালার্জি আছে, তারা নিশ্চিন্তে কেল আর ব্রোকলি খেতে পারেন।

এছাড়া, মাঝে মাঝে একটু খোলা জায়গায় দাঁড়াবেন, যাতে সূর্যের আলো শরীরে প্রবেশ করে। এতেও ভরপুর ভিটামিন ডি আছে। যা আপনার হাড়ের জন্য উপকারী।

ডেইলি বাংলাদেশ/এএ