আলোচিত ব্যালে নাচের ছবির গল্প

ঢাকা, শনিবার   ২১ মে ২০২২,   ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯,   ২০ শাওয়াল ১৪৪৩

Beximco LPG Gas

আলোচিত ব্যালে নাচের ছবির গল্প

ফিচার ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৫:১০ ২৭ জানুয়ারি ২০২২   আপডেট: ১৩:১৩ ২৯ জানুয়ারি ২০২২

নওগাঁর মেয়ে মোবাশ্বিরা কামাল ইরা। ছবি : ইরার ফেসবুক ওয়াল খেকে নেয়া।

নওগাঁর মেয়ে মোবাশ্বিরা কামাল ইরা। ছবি : ইরার ফেসবুক ওয়াল খেকে নেয়া।

কখনো প্রতিবাদ, কখনো ককিতা, কখনো নাচ-গান বা নানা প্রতিভার বুননে তরুণরা ফুটিয়ে তোলে নিজেদের অঙ্গন। নিজের ধ্যান, জ্ঞান বা মননের অর্ঘে সাজায় তাদের বেঁচে থাকার পৃথিবী। ইচ্ছাশক্তির জোড়ে তরুণরা বারবার তাদের লক্ষ্যে পৌঁছানোর প্রমাণও রেখেছে। তেমনই অনেক উদাহরণ রয়েছে এ দেশে। এমন এক তরুণী ইরা। দেশের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তিনি এখন ভাইরাল। ব্যালে নাচের ভঙ্গিতে তার একাধিক ছবি ঘুরছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।

ইরার এসব ছবি সোশ্যাল মিডিয়ায় বেশ কিছু আলোচনার জন্ম দিয়েছে। কে এই ইরা? কেন এই ছবি? কে তুলেছেন? কেনই বা ব্যালে নাচের ভঙ্গিতে এই ছবি?

কে এই ইরা?

সম্প্রতি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রাজু ভাস্কর্যের সামনে ব্যালে নৃত্যের কিছু ছবি বাংলাদেশে সোশ্যাল মিডিয়ায় ব্যাপক আলোচিত হয়েছে। ভাইরাল এই ছবির মানুষটি নওগাঁর মেয়ে মোবাশ্বিরা কামাল ইরা। নওগাঁ সরকারি কলেজে দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী তিনি। বরাবরই নাচ করতে ভালোবাসেন ইরা। ২০১৭ সালে তার নাচে হাতেখড়ি। শৈশবে নওগাঁয় সুলতান মাহমুদের কাছে নাচ শিখেছেন। পরে ঢাকায় ভারতনাট্যম নাচ শেখেন। ২০২১ থেকে সাধনা সংগঠনের সঙ্গে কাজ করছেন।

মোবাশ্বিরা কামাল ইরা। ছবি : ইরার ফেসবুক ওয়াল খেকে নেয়া

গত ২০ থেকে ২২ তারিখের নৃত্য উৎসবে ইরা ঢাকায় এসেছিলেন। উৎসব শেষে ২৩ জানুয়ারি ছবিগুলো তোলেন তিনি। এরপরেই আবার ফিরে যান বাড়ি।  

কে তুলেছেন ছবিগুলো? কেন এই ছবি?

ব্যালে নৃত্যশিল্পী মুবাশ্বিরা ইরার ছবিগুলো তুলেছেন ফটোগ্রাফার জয়িতা আফরিন তৃষা। জয়িতা আফরিন একজন ফ্রিল্যান্স ফটোগ্রাফার। থাকেন ঢাকার ধানমন্ডিতে। মঙ্গলবার সকালে তিনি ফটোগ্রাফি করতে মডেল মোবাশ্বিরা কামাল ইরাকে নিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসিতে যান। ফটোগ্রাফির আলাদা একটা অর্থ তৈরি করার চিন্তা করছিলেন তিনি। জয়িতা গণমাধ্যমকে জানান, ঢাকার রাস্তায় ব্যালে থিমে কাজ করার আইডিয়াটা তার অনেকদিন ধরেই ছিল। তাই এবার টিএসসিতে রাজু ভাস্কর্যের সামনে সাস্টের আন্দোলনের পরিস্থিতি নিয়ে ব্যানার দেখেই তার মাথায় আসে যে এটা এভাবে এখন করলেই সবচেয়ে ভালো হবে।

মোবাশ্বিরা কামাল ইরা। ছবি : ইরার ফেসবুক ওয়াল খেকে নেয়া

কেনই বা ব্যালে নাচের ভঙ্গিতে এই ছবি?

অনেকে বলছেন, ছবিগুলোর মাধ্যমে শাহাজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের সাথে সংহতি প্রকাশ করা হয়েছে। তবে ছবির পেছনের প্রকৃত ঘটনাটা অন্যরকম। তারা যখন ছবি তুলতে যান, তার আগে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের কথা মাথায় ছিল না। টিএসসিতে যাওয়ার পর তারা দেখলেন রাজু ভাস্কর্যের পাশে চলমান বিভিন্ন আন্দোলনের প্ল্যাকার্ড সাঁটানো। ব্যাস, সেখানে ফটোশুট করার কথা ভাবেন তৃষা। অনেকে ছবিগুলো ছাত্র আন্দোলনের প্রতীক হিসেবে বিবেচনা করেছেন। মূলত ছবির মাধ্যমে ব্যালের কনসেপ্ট তুলে ধরার চেষ্টা করা হয়েছে। টিএসসি ছাড়াও ঢাকার বিভিন্ন বিখ্যাত জায়গায় ফটোশুট করার পরিকল্পনা রয়েছে তাদের।

এদিকে ব্যালেনৃত্যের ভাবনা মনে ঠাঁই নেয় লকডাউনের সময়। ঘরে বসেই শিখতে শুরু করেন ব্যালে। এদিকে ব্যালের এই ফর্মটি নিয়ে ইরা জানান, করোনাকালে এই ফর্মে কিছু কাজ করেছিলেন তিনি। যার ছোট ছোট ভিডিও করে শেয়ারও করেছিলেন সোশ্যাল মিডিয়ায়। তখন সাড়া পেলেও ভিডিওগুলো ভাইরাল হয়নি।

ডেইলি বাংলাদেশ/কেবি

English HighlightsREAD MORE »