গল্পটা দেশের প্রথম নারী বনরক্ষীর

ঢাকা, শনিবার   ১৭ এপ্রিল ২০২১,   বৈশাখ ৪ ১৪২৮,   ০৪ রমজান ১৪৪২

গল্পটা দেশের প্রথম নারী বনরক্ষীর

ফিচার প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৩:০৬ ৮ মার্চ ২০২১  

বাংলাদেশের প্রথম নারী বনরক্ষী দিলরুবা আক্তার মিলি। ছবি: সংগৃহীত

বাংলাদেশের প্রথম নারী বনরক্ষী দিলরুবা আক্তার মিলি। ছবি: সংগৃহীত

এখন চারদিকে নারীদের বিচরণ। ঘর থেকে বাইরে, পাতাল থেকে আকাশে; সর্বক্ষেত্রে নারীদের সফল পদচারণা। প্রতিটি পরতে পরতে শোনা যায় নারীদের বদলে যাওয়ার গল্প, সমাজকে বদলে দেয়ার গল্প! তেমনি একজন বাঁধ ভাঙা নারী দিলরুবা আক্তার মিলি। তিনি দেখিয়ে দিয়েছেন বনরক্ষায় নারীরাও পারে।

সাহসী নারী দিলরুবা আক্তার মিলি বাংলাদেশের প্রথম নারী বনরক্ষী। ২০১৬ সালে ঢাকায় বনরক্ষী হিসেবে যোগ দেন তিনি। তখন থেকে তিনি জাতীয় উদ্ভিদ উদ্যানের বনরক্ষী হিসেবে কর্মরত আছেন। তবে তার এই আজকের অবস্থানের জন্য অনেকটা পথ পাড়ি দিতে হয়েছে, যার শুরু স্কুল জীবন থেকেই।

এতো পেশা থাকতে বনরক্ষী কেন? দিলরুবা মিলি বলেন, বনজঙ্গল নিয়ে কাজ করার ইচ্ছে আমার বহুদিনের। প্রকৃতি আমার খুব ভালো লাগে। তাই পরিবেশ ও বন রক্ষায় নিজেকে নিয়োজিত করার সিদ্ধান্ত নিলাম।

পিরোজপুরের কাউখালী মহাবিদ্যালয় থেকে পড়াশোনা শেষ করেন দিলরুবা। তখনই মূলত তিনি সিদ্ধান্ত নেন বনরক্ষী হওয়ার। কিন্তু এই কাজটা তার জন্য সহজ ছিল না। কারণ এ কাজে এর আগে দেশের কোনো মেয়ে এগিয়ে আসেনি। তার মতে, নতুন কোনো উদ্যোগ নেয়াই চ্যালেঞ্জিং বিষয়। কিন্তু পরিবার, আপনজনের সহযোগিতা ও বাবার হাত ধরেই এগিয়ে চলেন তিনি।

দ্বিধা-দ্বন্দ্ব পেরিয়ে বনরক্ষী হিসেবে পরীক্ষা, ভাইভা শেষ করে রাজশাহী পুলিশ একাডেমি থেকে ট্রেনিং নেন দিলরুবা। তিনি বলেন, ওই সময় ২০৩ পুরুষের মধ্যে আমিই একমাত্র নারী হিসেবে যোগ দেই। পরীক্ষা ও ভাইভায় উপস্থিত হতে প্রথমদিকে সমস্যা হলেও পরে তা মোকাবেলা করে এগিয়ে যাই।

দিলরুবা বলেন, ‌শুরুর দিকে যখন চাকরি করতে ঢাকায় আসি, তখন থাকা-খাওয়াসহ নতুন পরিবেশের সঙ্গে মানিয়ে চলাসহ নানা প্রতিকূলতা ছিল। তবে যত দিন যাচ্ছিল, তত আত্মবিশ্বাসী হতে থাকি। আবার প্রথম ও একা নারী হিসেবে এ পেশায় কাজ করা বেশ চ্যালেঞ্জিং বিষয়। তাই সাহসী হওয়া খুব জরুরি ছিল আমার জন্য। তাই দিনের সঙ্গে বাড়তে থাকে আমার কাজের গতি ও আস্থা।

দিলরুবা বিশ্বাস করেন প্রতিটি সেক্টরের মতো, এ খাতেও একদিন অসংখ্য নারী এগিয়ে আসবেন। তারা দেখিয়ে দিবেন, আমরাও বনরক্ষা করতে পারি।

ডেইলি বাংলাদেশ/এনকে