বর্ণিল আয়োজনে বিটিভির ‘আনন্দমেলা’

ঢাকা, রোববার   ১৩ জুন ২০২১,   জ্যৈষ্ঠ ৩১ ১৪২৮,   ০১ জ্বিলকদ ১৪৪২

বর্ণিল আয়োজনে বিটিভির ‘আনন্দমেলা’

বিনোদন প্রতিবেদক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৭:৩৩ ৭ মে ২০২১  

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

বিটিভির ঈদের জনপ্রিয় ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান ‘আনন্দমেলা’। প্রতি ঈদেই অনুষ্ঠানটি ঘিরে দর্শকদের আগ্রহ থাকে তুঙ্গে। করোনার প্রতিকুল পরিস্থিতির মাঝে এই ঈদেও বাংলাদেশ টেলিভিশন প্রচার করবে এই অনুষ্ঠানটি। 

এবারও বর্ণিল আয়োজনে সাজানো হয়েছে দর্শকপ্রিয় এ অনুষ্ঠানটি। যার উপস্থাপক হিসেবে দেখা যাবে জনপ্রিয় দুই তারকা ফেরদৌস এবং পূর্ণিমাকে। এখানে বিশেষ পরিবেশনা নিয়ে হাজির হয়েছেন চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাস ও ছোট পর্দার তারকা মেহজাবীন চৌধুরী। 

প্রয়াত অভিনেত্রী কবরীর স্মরণে তারই সিনেমার কালজয়ী গান ‘সে যে কেন এলো না’র সঙ্গে নাচ পরিবেশন করেছেন অভিনেত্রী তারিন।
দুই বাংলার ছয় শিল্পী মিলে করেছেন একটি বিশেষ গান। যা ভিডিও আকারে দেখানো হবে। গানটিতে কণ্ঠ দিয়েছেন এপার বাংলার তপন চৌধুরী, কুমার বিশ্বজিৎ ও চন্দন সিনহা এবং ওপার বাংলার রাঘব চ্যাটার্জি, জয় সরকার ও উষা উত্থুপ। কবির বকুলের কথায় এটির সুর-সংগীতায়োজন করেছেন ইমন চৌধুরী। 

এছাড়া অনুষ্ঠানে ‘যতনে রাখিব’ শিরোনামে একটি গানে পারফরমেন্স করেছেন ফোক সম্রাজ্ঞী মমতাজ। গানটিতে তার সঙ্গে নেচেছেন বেশ কয়েকজন নৃত্যশিল্পী। যার কোরিওগ্রাফি করেছেন ইভান শাহরিয়ার। গান গেয়েছেন বাউল শফি মন্ডল ও তার দল।

বিটিভির ঈদ ‘আনন্দমেলা’ প্রযোজনা করেছেন মাহফুজা আক্তার। এটি প্রচারিত হবে ঈদের দিন রাত ১০টার সংবাদের পর। 

প্রযোজক মাহফুজা আক্তার বলেন, করোনাকালে চেষ্টা করেছি স্বাস্থ্যবিধি মেনেই অনুষ্ঠানটি শুটিং করার। এমন অবস্থায় সবাইকে নিয়ে অনুষ্ঠান সাজাতে একটু বেশিই বেগ পেতে হয়েছে। বিটিভির স্টুডিওতে টানা তিনদিন শুটিং করেছি। কোভিডের মধ্যেও শিল্পীরা সাড়া দিয়েছেন, তাতে আমরা খুশি। লকডাউনে দর্শকরা বাসায় থাকবেন। তাদের পূর্ণ বিনোদনের চিন্তা মাথায় রেখেই অনুষ্ঠানে বৈচিত্র্য আনার চেষ্টা করেছি। 

নতুন এই আনন্দমেলা ছাড়াও ঈদের আগের দিন রাত ১০টা ২০ মিনিটে বিটিভিতে প্রচারিত হবে আরো একটি আনন্দমেলা। যেটি বিগত কয়েক বছরে প্রচারিত হওয়া আনন্দমেলার সংকলন। 

বিভিন্ন সময়ে প্রচারিত ঈদ আনন্দমেলার উল্লেখযোগ্য অংশগুলো বিশেষ করে পুরনো দিনের জনপ্রিয় সব তারকাদের সমন্বয়ে সেজেছে এই ‘আনন্দমেলা’টি। আর এটি প্রযোজনা করেছেন গোলাম মোর্শেদ।

ডেইলি বাংলাদেশ/টিএএস