মৃত্যুর পর আমার সব সৃষ্টিকর্ম যেন ধ্বংস করা হয়: কবীর সুমন

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ০৩ ডিসেম্বর ২০২০,   অগ্রহায়ণ ১৯ ১৪২৭,   ১৬ রবিউস সানি ১৪৪২

মৃত্যুর পর আমার সব সৃষ্টিকর্ম যেন ধ্বংস করা হয়: কবীর সুমন

বিনোদন ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ০০:৫০ ২৪ অক্টোবর ২০২০  

ছবি- সংগৃহীত

ছবি- সংগৃহীত

উপমহাদেশের নন্দিত সংগীতশিল্পী কবীর সুমন তার গান দিয়ে জয় করেছেন কোটি মানুষের মন। এই কিংবদন্তির বয়স যত বাড়ছে ততই বাড়ছে তার মৃত্যুচিন্তা। মৃত্যুর পর তার সৃষ্টিকর্ম ও সম্পদের ফয়সালা কি হবে? সে বিষয়ে নিজেই দিক নির্দেশনা দিয়ে গেলেন কবীর সুমন।

শুক্রবার এক ফেসবুক স্ট্যাটাসে কবীর সুমন তার সব সৃষ্টিকর্ম ধ্বংস করে দেয়ার আহ্বান জানান। দীর্ঘ স্ট্যাটাসের সঙ্গে হাতে লেখা একটি নির্দেশিকার ছবিও পাবলিশড করেছেন সুমন।

তিনি বলেন, খুব জরুরি বিষয়। আবেগহীনভাবে সকলকে জানিয়ে রাখছি, কারণ হঠাৎ কিছু ঘটে গেলে কঠিন সমস্যা দেখা দেয়। প্রায় অনুরূপ একটা সমস্যা দেখা দিয়েছিল ২০১২ সালে আমি নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার পর। খোলাখুলি সকলকে জানিয়ে রাখছি। অনুগ্রহ করে মতামত দেবেন না। ভালো মন্দ কিছু লিখবেন না। এটা এক প্রবীণ মানুষের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিজ্ঞপ্তি। অনেক অভিজ্ঞতার পর, অনেক ভেবেচিন্তে লিখছি।’

কবীর সুমন হাতে লেখা প্রতিলিপিতে লেখেন, আমার কোনো অসুখ করলে আমায় হাসপাতালে ভর্তি হতে হলে বা আমি মারা গেলে আমার সবকিছুর, প্রতিটি বিষয় এবং ক্ষেত্রে দায়িত্ব গ্রহণ ও সিদ্ধান্ত গ্রহণের অধিকার একমাত্র মৃণ্ময়ী তোকদারের। অন্য কারোর কোনো অধিকার থাকবে না এইসব বিষয় ও ক্ষেত্রে।

নিজের মৃতদেহ চিকিৎসা বিজ্ঞানের কাজে দান করার কথা জানিয়ে কবীর সুমন বলেন, আমার মৃতদেহ যেন দান করা হয় চিকিৎসা বিজ্ঞানের কাজে। কোনো স্মরসভা, শোকসভা, প্রার্থনা সভা যেন না হয়।

ছবি- সংগৃহীত

গানের এই কিংবদন্তি নিজের সব সৃষ্টিকর্মও ধ্বংস করে দেয়ার জন্য অনুরোধ করেন। সুমন বলেন, আমার সমস্ত পাণ্ডুলিপি, গান, রচনা, স্বরলিপি, রেকর্ডিং, হার্ডডিস্ক, পেনড্রাইভ, লেখার খাতা, প্রিন্ট আউট যেন কলকাতার পৌরসভার গাড়ি ডেকে তাদের হাতে তুলে দেয়া হয় সেগুলো ধ্বংস করার জন্য। হাতে লেখা সবকিছু, অডিও ও ভিডিও ফাইল-সব।

তিনি আরো বলেন, আমার মৃত্যুর পর আমার কোনোকিছু যেন পড়ে না থাকে। আমার ব্যবহার করা সব যন্ত্র, বাজনা, সরঞ্জাম যেন ধ্বংস করা হয়। এর অন্যথা হবে আমার অপমান।

কবীর সুমনের পোস্টের নিচে মৃণ্ময়ী তোকদার মন্তব্য করেছেন, আমি সাধ্যাতীত চেষ্টা করবো আমার দায়িত্ব পালনের। জবাবে কবীর সুমন লিখেছেন, আমি জানি তুমি করবে।

কবীর সুমনের এমন ঘোষণায় হতাশ হয়েছেন ভক্তরা। অনেকেই মন্তব্য করেছেন সব সরঞ্জাম ধ্বংস করা গেলেও আপনার গান ধ্বংস করা যাবে না। কারণ সেগুলো মানুষের মনে জায়গা করে নিয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএ