চার বছর ধরে ধর্ষণ-গর্ভপাত, মিঠুনের ছেলে ও স্ত্রীর নামে মামলা

ঢাকা, সোমবার   ৩০ নভেম্বর ২০২০,   অগ্রহায়ণ ১৭ ১৪২৭,   ১৩ রবিউস সানি ১৪৪২

চার বছর ধরে ধর্ষণ-গর্ভপাত, মিঠুনের ছেলে ও স্ত্রীর নামে মামলা

বিনোদন ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৩:৩০ ১৮ অক্টোবর ২০২০  

মিঠুন-মেমো-যোগিতা

মিঠুন-মেমো-যোগিতা

সম্প্রতি জনপ্রিয় অভিনেতা মিঠুন চক্রবর্তীর ছেলে মহাক্ষয় চক্রবর্তী ওরফে মিমো ও তার স্ত্রী যোগিতা বলির বিরুদ্ধে ধর্ষণ, প্রতারণা ও জোরপূর্বক গর্ভপাতের অভিযোগ উঠেছে। ভারতের মুম্বাইয়ের ওশিয়ারা থানায় মিঠুন চক্রবর্তীর ছেলে ও স্ত্রীর নামে মামলা দায়ের হয়েছে।

ভুক্তভোগী অভিযোগ করেছেন, ২০১৫ সালে মিমো সম্মতি ছাড়া তাঁর সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক করেন এবং তাঁকে বিয়ে করার প্রতিশ্রুতি দেন।

সূত্রে জানা যায়, ২০১৫ সালে ভুক্তভোগীকে বাড়িতে ডেকে কোমল পানীয় পান করিয়ে বিনা সম্মতিতে শারীরিক সম্পর্কে জড়ান মিমো চক্রবর্তী। পরে বিয়ে করার প্রতিশ্রুতিতে চার বছর শারীরিক সম্পর্ক অব্যাহত রেখে শারীরিক, মানসিকভাবে নির্যাতন করা হয়েছে ভুক্তভোগীকে। মামলার এজাহারে এসব উল্লেখ করেছেন ভুক্তভোগী।

ভুক্তভোগী আরো অভিযোগ করেছেন, এ সম্পর্কের সময় তিনি গর্ভবতী হলে গর্ভপাত করানোর জন্য চাপ দিয়েছিলেন মিমো চক্রবর্তী। তিনি অসম্মতি জানালে জোরপূর্বক ওষুধ দিয়ে গর্ভপাত করানো হয়। আর এই মামলা সরানোর জন্য ভুক্তভোগীকে হুমকির অভিযোগ উঠেছে মিঠুন চক্রবর্তীর স্ত্রী যোগিতা বলির বিরুদ্ধে।

এর আগে ২০১৮ সালে ভুক্তভোগী মামলা করার চেষ্টা করেছিলেন। তখন পুলিশ মামলা না নেয়ায় তিনি রোহিণী আদালতে মামলা করেছিলেন। পরে আদালতের নির্দেশ অনুসরণ করে মুম্বাইয়ের ওশিয়ারা থানায় মামলাটি নথিভুক্ত করা হয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এএ