স্বামীর বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ, সবশেষে মুখ খুললেন মিঠুন পুত্রবধূ

ঢাকা, শুক্রবার   ৩০ অক্টোবর ২০২০,   কার্তিক ১৬ ১৪২৭,   ১২ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

স্বামীর বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ, সবশেষে মুখ খুললেন মিঠুনের পুত্রবধূ

বিনোদন ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৭:৩৭ ১৭ অক্টোবর ২০২০  

মিঠুন-মেমো ও মাদালশা শর্মা

মিঠুন-মেমো ও মাদালশা শর্মা

সম্প্রতি জনপ্রিয় অভিনেতা মিঠুন চক্রবর্তীর ছেলে মহাক্ষয় চক্রবর্তী ওরফে মিমোর বিরুদ্ধে ধর্ষণ ও গর্ভপাত করানোর অভিযোগ আনা হয়েছে। এই বিষয়ে ওশিয়ারা থানায় এফআইআর (ফার্স্ট ইনফরমেশেন রিপোর্ট) দায়ের হয়েছে।

এদিকে মহাক্ষয় ২০১৮ সালে অভিনেত্রী মাদালসা শর্মাকে বিয়ে করেন। এবার স্বামীর বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ প্রসঙ্গে মুখ খুলেছেন মিঠুনের পুত্রবধূ। তিনি বলেন, ‘কিসের জন্য মামলা দায়ের হয়েছে? এটি একদমই সত্য নয়। এগুলো পুরোনো কথা। তিন বছর আগে এগুলো হয়েছে। এই বিষয় নিয়ে আলোচনা এখন বন্ধ।’

নতুন করে মামলা দায়ের প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘আমরা এই মামলা সম্পর্কে এখনো কিছু জানি না।’

মহাক্ষয়ের বিরুদ্ধে অভিযোগ, বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে এক নারীর সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক গড়েছিলেন তিনি। জানা যায়, এই নারী একজন ভোজপুরি অভিনেত্রী। ২০১৫ সালে বাড়িতে ডেকে পানীয়র সঙ্গে মাদক মিশিয়ে তাকে অচেতন করে তার সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক করেন মহাক্ষয়। এরপর চার বছর তাদের শারীরিক সম্পর্ক হয়। পরে অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়লে মহাক্ষয়কে বিয়ের জন্য চাপ দেন এই নারী। কিন্তু অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ার খবর পেয়ে মহাক্ষয় গর্ভপাত করানোর চাপ দেন। এতে রাজি না হলে কিছুদিন যাওয়ার পর তাকে ওষুধ খেতে দেন মিঠুনপুত্র। সেই ওষুধ খাওয়ার পরই অভিযোগকারীর গর্ভপাত হয়।

এর আগে ২০১৮ সালে মহাক্ষয়ের বিয়ের সময় এই নারী এফআইআর দায়েরের চেষ্টা করেছিলেন। কিন্তু পুলিশ মামলা না নেওয়ায় দিল্লির রোহিনী আদালতে এ বিষয়ে আবেদন করেন। এরপর আদালত সকল প্রমাণাদি দেখে এই বিষয়ে তদন্তের নির্দেশ দেন। আদালতের নির্দেশেই বৃহস্পতিবার (১৫ অক্টোবর) মুম্বাইয়ের ওশিয়ারা থানায় মহাক্ষয়ের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের হয়।

ডেইলি বাংলাদেশ/এএ