ঢাবি শিক্ষার্থীদের ‘সফট লোন’ পেতে আবেদনের সময় শেষ হচ্ছে আগামীকাল

ঢাকা, সোমবার   ০২ আগস্ট ২০২১,   শ্রাবণ ১৯ ১৪২৮,   ২২ জ্বিলহজ্জ ১৪৪২

ঢাবি শিক্ষার্থীদের ‘সফট লোন’ পেতে আবেদনের সময় শেষ হচ্ছে আগামীকাল

ঢাবি প্রতিনিধি  ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৮:৪৪ ১৯ জুন ২০২১   আপডেট: ১৯:০৪ ১৯ জুন ২০২১

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কলা ভবনের সামনে অপরাজেয় বাংলা

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কলা ভবনের সামনে অপরাজেয় বাংলা

অনলাইন শিক্ষা কার্যক্রমে যাতে অসচ্ছল শিক্ষার্থীরা পিছিয়ে না পড়ে সেজন্য আর্থিকভাবে অসচ্ছল শিক্ষার্থীদের সুদবিহীন ঋণের জন্য আবেদন আহ্বান করেছিল ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়। বিভাগ/ইনস্টিটিউট এর মাধ্যমে ‘সফট লোন’ পেতে শিক্ষার্থীদেরকে তথ্য সরবরাহের জন্য আবেদনের বর্ধিত সময় শেষ হচ্ছে আগামীকাল (২০ জুন)। 

অ্যান্ড্রয়েড ডিভাইস বা স্মার্টফোন কেনার জন্য বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন আর্থিকভাবে অসচ্ছল প্রায় সাড়ে ৮ হাজার শিক্ষার্থী বিনা সুদে এ ঋণ পাবে। আট হাজার টাকা করে দেয়া হবে প্রত্যেক শিক্ষার্থীকে। ঋণের জন্য আবেদন প্রক্রিয়া শুরু হয় গত ৩ জুন। বিশ্ববিদ্যালয়ের হিসাব পরিচালকের স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে আবেদন আহ্বান করা হয়। প্রাথমিকভাবে আবেদনের সময় ১৫ জুন দেয়া হয়। পরে সেটিকে বাড়িয়ে ২০ জুন করা হয়েছে। 

বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইটে এ সংক্রান্ত বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশন এর নীতিমালা ২০২০ এর আলোকে করোনা মহামারির (কোভিড-১৯) কারণে অনলাইন শিক্ষা কার্যক্রম এগিয়ে নিতে কিছু শর্ত সাপেক্ষে এই ‘সফট লোন’ দেয়া হবে। 

এর আগে গত ৭ জুন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের হিসাব পরিচালকের দফতর থেকে এক বিজ্ঞপ্তিতে ‘সফট লোনে’র জন্য আগ্রহীদের থেকে আবেদন চাওয়া হয়েছিল। শিক্ষার্থীরা যাতে নিজেদের প্রয়োজন হিসেবে লোনের জন্য আবেদন করতে পারে সে জন্য অতিরিক্ত এই সময় দেয়া হয়েছে বলে জানান হিসাব পরিচালক। 

‘সফট লোন’র শর্তগুলো:

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে স্নাতক/স্নাতকোত্তর পর্যায়ে অধ্যয়নরত অস্বচ্ছল শিক্ষার্থী যাদের নাম ‘শিক্ষার্থী সফট লোন’ তালিকায় অর্ন্তভূক্ত আছে কেবলমাত্র তারাই আবেদন করতে পারবেন। ঋণের সর্বোচ্চ সিলিং ৮,০০০/- (আট হাজার) টাকা, যাহা সুদমুক্ত। উক্ত টাকা সংশ্লিষ্ট শিক্ষার্থীর ব্যাংক হিসাবের মাধ্যমে প্রদান করা হবে।

শিক্ষার্থীদের সোনালী ব্যাংক লিঃ/জনতা ব্যাংক লিঃ/অগ্রণী ব্যাংকসহ বাংলাদেশের যে কোন তফসিলি ব্যাংকের যেকোন শাখায় নিজ নামে ব্যাংক একাউন্ট থাকতে হবে। তবে যাদের ব্যাংক একাউন্ট নেই তারা বাংলাদেশের যে কোন তফসিলি ব্যাংকের যে কোন শাখায় ব্যাংক একাউন্ট খুলতে পারবেন। উল্লেখ্য যে, সোনালী ব্যাংক লিঃ এর হিসাব খোলার জন্য একটি Sonali eSheba অ্যাপস রয়েছে যার মাধ্যমে শিক্ষার্থীরা খুব সহজেই কোন রকম চার্জ ব্যতীত হিসাব খুলতে পারবেন এবং ঋণের অর্থ উত্তোলন করতে পারবেন।

২০ জুনের মধ্যে “শিক্ষার্থীদের সফট লোন” তালিকায় নিবন্ধিত শিক্ষার্থীরা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইট www.du.ac.bd এর অর্ন্তভূক্ত Du Forms এর অন্তস্থ “শিক্ষার্থীদের সফট লোন” নামক আবেদন ফরম ডাউনলোড করে পূরণের পর স্ব স্ব বিভাগ/ইনস্টিটিউট এর চেয়ারম্যান/পরিচালকের নিকট প্রেরণ করতে হবে। আবেদন ফরম প্রেরণের বিষয়ে নিজ নিজ বিভাগ/ইনস্টিটিউট এ যোগাযোগ করার জন্য শিক্ষার্থীদের অনুরোধ করা যাচ্ছে।

সংশ্লিষ্ট শিক্ষার্থীকে এন্ড্রয়েড ডিভাইস বা স্মার্টফোন ক্রয়ের ভাউচারটি বিভাগ/ইনস্টিটিউট এ জমা দেওয়ার জন্য অনুরোধ করা হলো। বিভাগ কর্তৃক ভাউচারগুলি একত্রীকরণ করে ‘সফট লোন’ অনুমোদন কমিটি’র সদস্য-সচিব উপ-হিসাব পরিচালক (লোন) কক্ষ নং ১২৩/ক, প্রশাসনিক ভবন এ জমা দিতে হবে।

ঋণের অর্থ সংশ্লিষ্ট শিক্ষার্থীকে বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়নকালীন সময়ে এককালীন অথবা সর্বোচ্চ ৪টি সমান কিস্তিতে হিসাবের শিরোনাম ‘শিক্ষার্থীদের সফট লোন’ হিসাব নং ৪৪০৫৭০২০০১১৪৯ সোনালী ব্যাংক লি., ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস কর্পোরেট শাখায় পরিশোধ করতে হবে। (জমার রশিদ কক্ষ নং ১২৩/ক, উপ-হিসাব পরিচালক (লোন) প্রশাসনিক ভবন এ জমা দিতে হবে।

ঋণের সম্পূর্ণ অর্থ ফেরৎ না দেয়া পর্যন্ত সংশ্লিষ্ট শিক্ষার্থীর নামে কোন ট্রান্সক্রিপ্ট ও সাময়িক/মূল সনদ ইস্যু করা হবে না।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেডএম