চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রতি আসনে লড়বে ৪০ ভর্তিচ্ছু

ঢাকা, শনিবার   ১৯ জুন ২০২১,   আষাঢ় ৬ ১৪২৮,   ০৭ জ্বিলকদ ১৪৪২

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রতি আসনে লড়বে ৪০ ভর্তিচ্ছু

চবি প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২২:৫২ ৮ মে ২০২১  

ভর্তি পরীক্ষা বরাবরের মতোই ১২০ নম্বরে অনুষ্ঠিত হবে

ভর্তি পরীক্ষা বরাবরের মতোই ১২০ নম্বরে অনুষ্ঠিত হবে

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) ২০২০-২০২১ শিক্ষাবর্ষে স্নাতক ভর্তি পরীক্ষার অনলাইন আবেদন প্রক্রিয়া শেষ হয়েছে। চারটি ইউনিট ও দুইটি উপ-ইউনিটে ৪ হাজার ৯২৬টি আসনের বিপরীতে আবেদন করেছে এক লাখ ৯৫ হাজার ৭৯২ ভর্তিচ্ছু। সেই হিসেবে এবারের ভর্তি পরীক্ষায় প্রতি আসনের বিপরীতে লড়বে প্রায় ৪০ জন।

শনিবার (৮ মে) বিশ্ববিদ্যালয়ের আইসিটি সেলের পরিচালক ড. মোহাম্মদ খাইরুল ইসলাম বলেন, অনলাইন আবেদনের নির্ধারিত সময় শেষ হয়েছে। সর্বমোট আবেদন করেছে এক লাখ ৯৫ হাজার ৭৯২ জন ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থী। তবে এদের মধ্যে ১৪ হাজার শিক্ষার্থী এখনো টাকা জমা দেয়নি।

এর মধ্যে ‘এ’ ইউনিটে আবেদন করেছে ৭০ হাজার ২০৭ জন। ‘বি’ ইউনিটে আবেদন করেছে ৪৫ হাজার ৭৯২ জন, ‘সি’ ইউনিটে ১৪ হাজার ২৭১ জন ও ‘ডি’ ইউনিটে ৫৭ হাজার ৮৯ জন ভর্তিচ্ছু। অন্যদিকে দুইটি উপ ইউনিটের মধ্যে ‘বি-১’ ইউনিটে আবেদন করেছে ৩ হাজার ৪১৫ জন ও ‘ডি-১’ ইউনিটে আবেদন করেছে ৫ হাজার ১৮ জন শিক্ষার্থী। 

বিশ্বিবদ্যালয় সূত্রে জানা যায়, গত ১২ এপ্রিল সকাল সাড়ে দশটায় চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় (চবি) ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষে ১ম বর্ষ (সম্মান) ভর্তি পরীক্ষার অনলাইনে আবেদন প্রক্রিয়া শুরু হয়। তবে নির্ধারিত সময়ের কিছুদিন পর ভর্তি পরীক্ষার আবেদন গ্রহণ শুরু হওয়ায় আবেদনের সময়সীমা ১ সপ্তাহ বাড়ানো হয়। এবার প্রতিটি ইউনিটেই আবেদনের ন্যূনতম জিপিএ অন্তত শূন্য দশমিক ৫০ বাড়ানো হয়েছে। শুধুমাত্র যারা ২০১৮ সালে মাধ্যমিক ও ২০২০ সালে উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়েছে তারাই এবার ভর্তি পরীক্ষার জন্য আবেদন করার সুযোগ পেয়েছে।

এবারের ভর্তি পরীক্ষা স্বাস্থ্যবিধি মেনে স্শরীরে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে অনুষ্ঠিত হবে। ক্যাম্পাসে ২২ হাজার শিক্ষার্থী বসার মতো আসন রয়েছে। এক্ষেত্রে আবেদনকারীর সংখ্যা বিবেচনায় ১৫ হাজার করে পরীক্ষা কয়েক শিফটে নেয়া হবে।

পরীক্ষার তারিখ: ২২ ও ২৩ জুন ‘বি’ ইউনিট, ২৪ ও ২৫ জুন ‘ডি’ ইউনিট, ২৮ ও ২৯ জুন ‘এ’ ইউনিট ও ৩০ জুন ‘সি’ ইউনিটের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। এছাড়া ১ জুলাই উপ-ইউনিট ‘বি-১’ ও ‘ডি-১’ ইউনিটের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

পরীক্ষা পদ্ধতি: ভর্তি পরীক্ষা বরাবরের মতোই ১২০ নম্বরে অনুষ্ঠিত হবে। এর মধ্যে ১০০ নম্বর লিখিত পরীক্ষা (বহুনির্বাচনী) ও বাকি ২০ নম্বর এসএসসি ও এইচএসসি জিপিএ থেকে যুক্ত হবে। বহুনির্বাচনী পদ্ধতির এই ভর্তি পরীক্ষায় প্রতি ভুল উত্তরের জন্য ০.২৫ নম্বর কাটা যাবে। পরীক্ষায় ন্যূনতম পাস নম্বর হবে ৪০।

প্রবেশপত্র সংগ্রহ: ভর্তিচ্ছুরা ৭ জুন থেকে ভর্তি পরীক্ষা শুরুর এক ঘণ্টা আগে পর্যন্ত প্রবেশপত্র সংগ্রহ করতে পারবে। আগে প্রবেশপত্র সংগ্রহ ১ জুন থেকে শুরু হওয়ার কথা ছিল। 

এ ছাড়া বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইটে গিয়ে ভর্তির বিস্তারিত তথ্য জানা যাবে। ওয়েবসাইট লিংক: (https://admission.cu.ac.bd/)।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেডএম