পরীক্ষায় অসদুপায় অবলম্বন করায় শাস্তি পেল ১৮ শিক্ষার্থী

ঢাকা, বুধবার   ২৮ অক্টোবর ২০২০,   কার্তিক ১৩ ১৪২৭,   ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

পরীক্ষায় অসদুপায় অবলম্বন করায় শাস্তি পেল ১৮ শিক্ষার্থী

জবি সংবাদদাতা ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৫:৪১ ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০  

পরীক্ষায় অসদুপায় অবলম্বন করায় ১৮ শিক্ষার্থীকে শাস্তি দিলো জবি। ফাইল ছবি

পরীক্ষায় অসদুপায় অবলম্বন করায় ১৮ শিক্ষার্থীকে শাস্তি দিলো জবি। ফাইল ছবি

পরীক্ষায় অসদুপায় অবলম্বনের কারণে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) ১৮ শিক্ষার্থীকে শাস্তি দিয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

বৃহস্পতিবার বিশ্ববিদ্যালয়ের জনসংযোগ, তথ্য ও প্রকাশনা দফতরের উপ-পরিচালক সাইফুল ইসলাম সাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গত ২ সেপ্টেম্বর-২০২০ ‘শৃঙ্খলা কমিটি’র ৫৩তম সভায় বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন পরীক্ষায় অসদুপায় অবলম্বনের কারণে ১৮জন শিক্ষার্থীকে বিভিন্ন মেয়াদে শাস্তি প্রদান করা হয়। বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মীজানুর রহমান সভাপতিত্বে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

বিভিন্ন মেয়াদে শাস্তিপ্রাপ্ত শিক্ষার্থীরা হলেন- পরিসংখ্যান বিভাগ ২০১৪-১৫ শিক্ষাবর্ষের সাখাওয়াত হোসেন, প্রাণীবিদ্যা বিভাগ ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষের মো. হাসিবুজ্জামান, একই বিভাগ ২০১৬-১৭ শিক্ষাবর্ষের মো. ফয়সাল মাহমুদ, আশিকুল ইসলাম রাতুল, তানজিনা, রসায়ন বিভাগ ২০১৬-১৭ শিক্ষাবর্ষের আপন ঘোষ। এছাড়া মার্কেটিং বিভাগ ২০১৬-১৭ শিক্ষাবর্ষের আশিক আহমেদ আনন, একই বিভাগ ২০১৪-১৫ শিক্ষাবর্ষের পিয়াল দাস ও হাসিবুল ইসলাম শুভ, উদ্ভিদবিজ্ঞান বিভাগ ২০১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষের শামিম মিয়া ও সিরাজুম মনিরা, কম্পিউটার সায়েন্স অ্যাণ্ড ইন্জিনিয়ারিং বিভাগের ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষের থাই চক, সমাজকর্ম বিভাগ ২০১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষের খাদিজা আক্তার, অ্যাকাউন্টিং অ্যাণ্ড ইনফরমেশন সিস্টেমস বিভাগ ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের নাজনিন নিগার, ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগ ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষের মো. হৃদয় সরকার ও আবু তারেক।

এছাড়াও সংশ্লিষ্ট কোর্সে পুনঃরেজিস্ট্রেশন- মাকের্টিং বিভাগ (ফলাফল-২০১৯) তিথী বোস শিখা ও একাউন্টিং অ্যাণ্ড ইনফরমেশন সিস্টেমস বিভাগ (ফলাফল-২০১৯) মীর আফসানা।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার ওহিদুজ্জামান  বলেন, অপরাধের ধরন অনুযায়ী সভায় অভিযুক্ত শিক্ষার্থীদের এক থেকে দুই সেমিস্টার মেয়াদে বহিষ্কারসহ অর্থ জরিমানা করা হয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এনকে