Daily Bangladesh :: ডেইলি বাংলাদেশ

ঢাকা, রোববার   ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১,   আশ্বিন ৪ ১৪২৮,   ১০ সফর ১৪৪৩

একাত্তর জার্নাল একাত্তর টিভি ২৩৪০ ঘটিকা ২৯ জুলাই ২০২১

2021-07-29 23:40:00

ডা. শারমিন আব্বাসীঃ

এখন সংকটময় একটা বড় সময় আমরা পার করছি। এখন গর্ভবতী মায়েদের জন্য আমাদের পরামর্শ একটু অন্যরকম। এখন যে গর্ভবতী মায়েরা আসছে বা আসার দরকার আছে বা হাই রিস্ক প্রেগন্যান্সি সেই জন্য তারা আমাদের কাছে আসবেন এবং চিকিৎসা নেবেন। কিন্তু একটা বড় অংশকে এখন আমরা টেলিমেডিসিন সেবার মাধ্যমে সেবা দেওয়ার চেষ্টা করছি। আমরা টেলিমেডিসিন সেবা দিয়ে ক্যাটাগরাইজড করে বের করার চেষ্টা করছি যে কারা বেশি ঝুঁকিপূর্ণ আছে। যাদের হয়তো সামনাসামনি আমাদের কাছে আসতে হবে, দেখাতে হবে বা ইনভেস্টিগেশনে যেতে হবে কিংবা হাসপাতালে এডমিশনে যেতে হবে। আমেরিকাতে ৩৩ হাজার ৫'শ ২২ জনের উপরে একটা গবেষণা হয়েছে। সেই গবেষণায় বাচ্চা ডেলিভারি হয়েছে। একজন নন প্রেগন্যান্ট মায়ের ভ্যাকসিন নেওয়ার যতটা ঝুঁকি, একজন প্রেগন্যান্ট মায়েরও ভ্যাকসিন নেওয়ার ততটা ঝুঁকি।

 

ডা. তাসবিরুল ইসলামঃ

করোনা ভাইরাস আমাদের সবকিছু এলোমেলো করে দিয়েছে। প্রচুর মানুষ মারা যাচ্ছে এবং সংক্রমণ কমছে না। ইউএসএ অনেক আগে থেকেই বলছে গর্ভবতী মহিলাদের এবং যারা গর্ভবতী হতে চায় তাদেরকে টিকা নেওয়ার জন্য। কারণ গর্ভবতী মহিলাদের যখন করোনা ভাইরাস হয় তখন তারা সিবিআর হয়, বাচ্চার সাথে মাও আক্রান্ত হচ্ছে। আমেরিকাতে এখন পর্যন্ত বলা হচ্ছে ১ লাখ ৩০ হাজার গর্ভবতী মহিলাদেরকে ভ্যাকসিন দেওয়া হয়েছে। তাদের কোনো সাইড ইফেক্ট হয়নি। ইসরাইলে গর্ভবতী মহিলা যাদেরকে ভ্যাকসিন দেওয়া হয়নি তাদের করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা অনেক বেশি। ইউকেতে এবং অস্ট্রেলিয়াতে এখন তারা প্রায়োরিটি বেসিসে এক নম্বরে গর্ভবতী মহিলাদের ভ্যাকসিন দেওয়ার কথা বলছে।

জীবন বাঁচাতে হলে এবং কোভিড থেকে বাঁচতে হলে ভ্যাকসিন ছাড়া আমাদের কোনো উপায় নেই। কোভিড একটা মারাত্মক রোগ এবং গর্ভবতী মহিলারা অতি ঝুঁকিতে আছে। অ্যাস্ট্রাজেনেকা একটি ভালো ভ্যাকসিন। এটি স্কটল্যান্ডে ৪ হাজার গর্ভবতী মহিলাকে দেওয়া হয়েছে এবং তারা কোনো সাইড ইফেক্ট পায়নি।

 

অধ্যাপক ডা. ফেরদৌসী বেগমঃ

মুগদা হাসপাতালে সবচেয়ে বেশি গর্ভবতী মহিলাদের চিকিৎসা দেওয়া হয় করোনা ভাইরাসের। সেখানে গত ৫ মাসে যতগুলো রোগী ভর্তি হয়েছে এবং যতগুলো রোগী মারা গেছে প্রায় সমপরিমাণ রোগী ভর্তি এবং মারা গেছে জুলাই মাসে। ডব্লিউএইচও রিকমেন্ডেশন দিয়েছে যারা বেশি ঝুঁকিতে আছে তারা টিকা নেবে। আমেরিকান কলেজ পরিষ্কার করে বলে দিয়েছে গর্ভবতী মায়েরা টিকা নিতে হবে। রিকমেন্ডেশনের কোথাও উল্লেখ নাই যে গর্ভবতী মায়েরা কত সপ্তাহে টিকা নিবে। আমরা রিকমেন্ট করছি এবং সারাবিশ্ব আমাদের সাথে একমত যে গর্ভাবস্থায় যেকোনো সময় টিকা দেওয়া যাবে। করোনা ভাইরাসের টিকা দেওয়ার বিষয়ে ৭ তারিখ থেকে ১২ তারিখ একটা ক্যাম্পেইন হতে যাচ্ছে। ফাইজারের যে ভ্যাকসিনটা সেটার কিন্তু টেম্পারেচার মেন্টেইনের ব্যাপার আছে। সেটা হয়তো ঢাকার বাইরে সরবরাহ করা যাবে না। এখন বর্তমানে যতগুলো ভ্যাকসিন আছে এর কোনোটিই গর্ভবতী মহিলাদের দেওয়া যাবে না এরকম কোনো তথ্য নাই।

 

জাহাঙ্গীর আলমঃ

সাইন্স, আর্টস এবং কমার্স এই ৩ টা গ্রুপের প্রত্যেকটা গ্রুপের ৩ টা বিষয়ের উপরে অ্যাসাইনমেন্ট আহ্বান করা হয়েছে। তিনটা সাবজেক্টের প্রত্যেকটার ৮ টি করে অ্যাসাইনমেন্ট দিতে হবে। আমাদের মাধ্যমিক উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর থেকে যে গাইড লাইন দেওয়া হয়েছে সেখান থেকে অ্যাসাইনমেন্টের টপিকটাও মাধ্যমিক উচ্চশিক্ষা অধিদপ্তর থেকে দেওয়া হয়। সেটি আমরা আমাদের স্কুলের পেইজে দিয়ে দিই। ফিজিক্স, কেমিস্ট্রি এবং উচ্চতর গণিতের এই তিনটি বিষয়ের উপর অ্যাসাইনমেন্ট দিতে হবে। আসলে যতগুলো বিষয় রয়েছে সবগুলো বিষয়ের মূল্যায়ন না করলে তা পূর্ণাঙ্গ মূল্যায়ন হবে না।

রেবেকা সুলতানাঃ

যারা ডাক্তার হতে চায় তাদের মূল বিষয় থাকে জীববিজ্ঞান এবং যারা ইঞ্জিনিয়ার হতে চায় তাদের কিন্তু উচ্চতর গণিত থাকে। সেই ক্ষেত্রে যার চতুর্থ বিষয় জীববিজ্ঞান আমরা ধরে নেবো যে সে ডাক্তার হতে চায় না। সেক্ষেত্রে আমরা চতুর্থ বিষয়টি বাদ দিয়ে তিনটি বিষয়ের উপরে অ্যাসাইনমেন্ট জমা নিচ্ছি। এবারের মতো এতো চমৎকার অ্যাসাইনমেন্ট, নির্দেশনা শিক্ষার্থীদের দেওয়ার ব্যাপারটি একেবারে হাই লেভেল থেকে শিক্ষার্থী পর্যন্ত এসেছে।

 

প্রফেসর ড. সৈয়দ মোঃ গোলাম ফারুকঃ

আমাদের শিক্ষার্থীরা নিজেরাই পছন্দ করে নিয়েছে কোন তিনটি বিষয়ের উপর তারা অ্যাসাইনমেন্ট দিবে। এখানে কোনো কনফিউশন থাকার সুযোগই নেই। কারণ শিক্ষার্থী নিজেই বিষয় নির্বাচন করে নিয়েছে। ফলে এখানে কোনো রকমের কোনো বাধা বা কোনো সমস্যায় আমাদের শিক্ষার্থীরা পড়বে না। যে বিষয়গুলো পরীক্ষা হবে সেই বিষয়গুলোর উপরেই অ্যাসাইনমেন্ট নেওয়া হবে। আমাদের অ্যাসাইনমেন্টের দুটি উদ্দেশ্য। একটি হচ্ছে অ্যাসাইনমেন্ট দিয়ে আমরা শিক্ষার্থীদেরকে তৈরি করবো তারা যাতে পরীক্ষা দিতে পারে। যদি কোনো কারণে বা করোনার কারণে পরীক্ষা দিতে না পারে সেক্ষেত্রে সাবজেক্ট ম্যাপিং এবং অ্যাসাইনমেন্টের নাম্বার এই দুটো যোগ করে আমরা একটা মূল্যায়নের মধ্যে যাবো।

শিরোনাম:

Bulletদেশে করোনায় একদিনে আরও ৩৫ জনের মৃত্যু, এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২৭,১৮২ জন। ১৯,৬৬৮ জনের নমুনা পরীক্ষায় শনাক্ত ১,১৯০। মোট আক্রান্ত ১৫ লাখ ৪১ হাজার ৩০০ জন। শনাক্তের হার ৬.০৫ শতাংশ। Bullet১২ থেকে ১৭ বছরের শিক্ষার্থীদের ফাইজারের টিকা দেয়া হবে: স্বাস্থ্যমস্ত্রী। Bulletকুমিল্লার মনোহরগঞ্জে নোয়াখালী সড়কে বাস ও সিএনজি অটোরিকশার সংঘর্ষে ৪ জন নিহত। Bulletসিলেট গ্যাস ফিল্ড লিমিটেডের নিখোঁজ ব্যবস্থাপক শাহে আলমের সন্ধান মিলেছে, চাকরি সংক্রান্ত বিষয়ে অভিমান করে তিনি বরিশালে গ্রামের বাড়ি যাচ্ছেন বলে জানিয়েছে পরিবার। Bulletসিলেট গ্যাস ফিল্ড লিমিটেডের ব্যবস্থাপক শাহে আলম সন্ধ্যার পর থেকে নিখোঁজ, থানায় জিডি। Bulletকরোনার কারণে রেড লিস্টে থাকা বাংলাদেশের নাম আগামী ২২ সেপ্টেম্বর থেকে প্রত্যাহার করেছে যুক্তরাজ্য। Bulletদেশে করোনায় একদিনে আরও ৩৮ জনের মৃত্যু, এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২৭,১৪৭ জন। ২৬,৭৫৬ জনের নমুনা পরীক্ষায় শনাক্ত ১,৯০৭। মোট আক্রান্ত ১৫ লাখ ৪০ হাজার ১১০ জন। শনাক্তের হার ৬.৪১ শতাংশ। Bulletইভ্যালির সিইও রাসেল ও তার স্ত্রী শামীমার তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর। Bulletইভ্যালি শুরু থেকে একটি লোকসানি প্রতিষ্ঠান, দেনা এক হাজার কোটি টাকা। ইভ্যালিকে দেউলিয়া ঘোষণার পরিকল্পনা ছিল রাসেলের: র‌্যাব। Bulletদিনাজপুর সদর, বোচাগঞ্জ ও বিরলে পুলিশের অভিযানে জঙ্গি সন্দেহে ৪৫ জন আটক। Bulletজাতিসংঘ অধিবেশনে যোগ দিতে আজ নিউ ইয়র্ক যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী। Bulletজামালপুরের ইসলামপুর থেকে নিখোঁজের ৪ দিন পর তিন মাদ্রাসাছাত্রীকে রাজধানীর মুগদা থেকে উদ্ধার। Bulletদেশে করোনায় একদিনে আরও ৫১ জনের মৃত্যু, এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২৭,১০৯ জন। ৩১,১৪৯ জনের নমুনা পরীক্ষায় শনাক্ত ১,৮৬২। মোট আক্রান্ত ১৫ লাখ ৩৮ হাজার ২০৩ জন। শনাক্তের হার ৫.৯৮ শতাংশ। Bulletঢাকার বাসা থেকে ইভ্যালির সিইও মো. রাসেল স্ত্রীসহ গ্রেপ্তার। Bulletআশ্রয়ণের ঘর যারা হাতুড়ি-শাবল দিয়ে ভেঙেছে, তাদের দ্রুত গ্রেপ্তারের নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর। Bulletগণমাধ্যমে সরকারি কর্মকর্তাদের বক্তব্য দেয়া নিয়ে হাইকোর্টের অসন্তোষ প্রকাশ। Bulletভিকারুননিসার অধ্যক্ষের ফোনালাপ ফাঁস: দ্রুত তদন্ত শেষ করে ৩১ অক্টোবরের মধ্যে প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ হাইকোর্টের। Bulletবুলগেরিয়ার দেয়া উপহারের ২ লাখ ৭০ হাজার ডোজ অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকার করোনা ভ্যাকসিন দেশে এসে পৌঁছেছে। (যমুনা টিভি) Bulletদেশে করোনায় একদিনে আরও ৫১ জনের মৃত্যু, এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২৭,০৫৮ জন। ২৮,৬১৫ জনের নমুনা পরীক্ষায় শনাক্ত ১,৯০১। মোট আক্রান্ত ১৫ লাখ ৩৬ হাজার ৩৪১ জন। শনাক্তের হার ৬.৬৪ শতাংশ। (সময় টিভি) Bulletআগামী বছরের মার্চের মধ্যে মোট ২৪ কোটি করোনার টিকা পাচ্ছে বাংলাদেশ: পররাষ্ট্রমন্ত্রী।