‘তোমার সন্তান আমার পেটে, ভালো থেকো সেলিম’ লিখে চিরঘুমে সাদিয়া
15-august

ঢাকা, বুধবার   ১০ আগস্ট ২০২২,   ২৬ শ্রাবণ ১৪২৯,   ১১ মুহররম ১৪৪৪

Beximco LPG Gas
15-august

‘তোমার সন্তান আমার পেটে, ভালো থেকো সেলিম’ লিখে চিরঘুমে সাদিয়া

যশোর প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৯:২২ ২৭ মে ২০২২  

চিরকুট

চিরকুট

সন্তানের পিতৃত্ব অস্বীকার করায় যশোরের বাঘারপাড়ায় চিরকুট লিখে সাদিয়া খাতুন নামে ২০ বছর বয়সী এক গৃহবধূ আত্মহত্যা করেছেন।

শুক্রবার উপজেলার বন্দবিলা ইউনিয়নের তেলীধান্যপুড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। সাদিয়া একই উপজেলার ধলগ্রাম ইউনিয়নের আন্দোলবাড়িয়া গ্রামের সেলিম রেজার স্ত্রী।

নিহত সাদিয়ার মা তাহেরা বেগম বলেন, বছরখানেক আগে আন্দোলবাড়িয়া গ্রামের মঞ্জুর মোল্যার ছেলে সেলিমের সঙ্গে মেয়ের বিয়ে দিয়েছিলাম। পারিবারিকভাবে বিয়ে হলেও নিজের মামাতো বোনের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক ছিল সেলিমের। বিয়ের পরও ওই মেয়ের সঙ্গে তার পরকীয়া চলছিল। যেটা মেনে নিতে পারেনি আমার মেয়ে। এ নিয়ে প্রায়ই আমার মেয়েকে মারধর করতেন সেলিম। বিষয়টি আমাদের না জানিয়ে মনের কষ্টে ঈদের কদিন আগে ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করে সাদিয়া।

সাদিয়ার বড় বোন খাদিজা খাতুন বলেন, আমাদের দুই বোনের একই গ্রামে বিয়ে হয়েছে। সেলিমকে অনেক ভালোবাসতো সাদিয়া। তাই শ্বশুরবাড়ির অশান্তির ব্যাপারে কিছুই বলতো না। ১৫ দিন আগে সাদিয়াকে আমার মায়ের কাছে রেখে যান সেলিম। কিন্তু গতকাল (বৃহস্পতিবার) বিকেলে সাদিয়া অন্তঃসত্ত্বা হওয়ার খুশির খবরটি ফোনে জানালে পিতৃত্ব পরিচয় দিতে অস্বীকৃতি জানান সেলিম। যে কারণে কষ্ট ও ক্ষোভে শুক্রবার ভোরে নিজের কক্ষের আড়ার সঙ্গে ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করে আমার বোনটি।

জানতে চাইলে মুঠোফোনে সেলিম হোসেন বলেন, আমার মামাতো বোনের ২০০৮ সালে বিয়ে হয়ে গেছে। তার সঙ্গে অন্য কোনো সম্পর্ক ছিল না। আর আমার স্ত্রী অন্তঃসত্ত্বা হয়নি। তাই পিতৃপরিচয় দিতে আমার অস্বীকৃতি জানানোর কোনো প্রশ্নই আসে না।

বাঘারপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ফিরোজ উদ্দীন জানান, খবর পেয়ে সকালে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় কোনো মামলা করবে না বলে জানিয়েছে নিহতের পরিবার।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমআর

English HighlightsREAD MORE »