কিশোরীর ইজ্জতের মূল্য দুই লাখ টাকা! 

ঢাকা, বুধবার   ০৫ অক্টোবর ২০২২,   ২০ আশ্বিন ১৪২৯,   ০৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪৪

Beximco LPG Gas

কিশোরীর ইজ্জতের মূল্য দুই লাখ টাকা! 

কুমিল্লা প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২০:৫৯ ৬ ফেব্রুয়ারি ২০২২   আপডেট: ২১:০০ ৬ ফেব্রুয়ারি ২০২২

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

কুমিল্লার মুরাদনগর উপজেলায় ১৪ বছরের এক কিশোরীর গোসলের আপত্তিকর ছবি তুলে সে ছবি ফেসবুকে ছড়িয়ে দেওয়ার হুমকি দিয়ে একাধিকবার ধর্ষণ করার অভিযোগ উঠেছে তোফাজ্জল নামে এক ওমান প্রবাসীর বিরুদ্ধে। 

নব-নির্বাচিত ইউপি চেয়ারম্যানের বাড়িতে চেয়ারম্যান ও ইউপি সদস্যের উপস্থিতিতে সামাজিকভাবে বিষয়টি মীমাংসা করতে গিয়ে সালিশে কিশোরীর ইজ্জতের দর মূল্য নির্ধারণ করা হয় ২ লাখ টাকা।

উপজেলার কামাল্লা ইউপিতে এ ঘটনাটি ঘটে। ধর্ষক তোফাজ্জল হোসেন উপজেলার কামাল্লা গ্রামের মৃত. শিরু মোল্লার ছেলে। 

ভুক্তভোগী কিশোরীর অভিযোগ, কিছুদিন আগে গোসলখানায় গোসল করার সময় তোফাজ্জল লুকিয়ে ছবি তুলে। তোফাজ্জল ওই গোসলের ছবি দেখিয়ে তার সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক করতে বলে, তা না হলে ছবিগুলো বিভিন্ন লোকজনের কাছে ছড়িয়ে দিবে বলে আমাকে প্রথম বার ধর্ষণ করে এবং ধর্ষণের ঘটনা ভিডিও ধারণ করে। পরে সেই ভিডিও ফেইসবুকে ছড়াইয়া দেওয়ার কথা বলে আমাকে ভয় দেখিয়ে একাধিকবার ধর্ষণ করে।

কিশোরীর বাবা বলেন, শনিবার কাজে গিয়েছিলাম বাড়ি ফিরে লোকজনের মুখে এ খবর শুনি। আমাকে বিষয়টি নিয়ে বারাবারি না করে স্থানীয়ভাবে আপোষ মীমাংসার কথা বলে  ইউপি সদস্য জামাল। সে আরো বলে ৩১ জানুয়ারি  ষষ্ঠ ধাপের ইউপি নির্বাচনের পর স্থানীয়ভাবে মীমাংসা করা হবে। অন্যথায় ধর্ষণের ঘটনা জানাজানি হলে মেয়ের বিয়ে দিতে পারবে না বলেও ভয় দেখায়। গরিব মানুষ আইন আদালত বুঝি না তাই আপোষ মীমাংসার জন্য রাজি হয়েছি।

ইউপি সদস্য জামাল জানান, ঘটনাটি স্পর্শকাতর হওয়ায় মেয়েটির ভবিষ্যৎতের কথা চিন্তা করে গত শুক্রবার সন্ধ্যায় সামাজিকভাবে কামাল্লা ইউনিয়ন পরিষদের নব নির্বাচিত চেয়ারম্যানের বাড়িতে মীমাংসা করা হয়। এ সময় তোফাজ্জলকে ২ লাখ টাকা জরিমানা করা হয় এবং ভুক্তভোগী মেয়ের বিয়েতে তোফাজ্জল আংশিক কিছু খরচ দিবে বলে এমন কথা হয়।

ইউপি চেয়ারম্যান আবুল বাশার খাঁন বলেন, এলাকার লোকজন আমার বাড়িতে দু’পক্ষকে নিয়ে এসে বিচার করেছেন। এলাকার গণ্যমান্য লোকজন উপস্থিত থেকে বিচার করেছেন।

মুরাদনগর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আবুল হাশিম বলেন, ধর্ষণের বিষয়ে এখন পর্যন্ত থানায় কেউ অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।  

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকে

English HighlightsREAD MORE »