নরসিংদীতে শত্রুতার জেরে ছেলে গুলিবিদ্ধ, বাবা আহত

ঢাকা, বুধবার   ১৮ মে ২০২২,   ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯,   ১৬ শাওয়াল ১৪৪৩

Beximco LPG Gas

নরসিংদীতে শত্রুতার জেরে ছেলে গুলিবিদ্ধ, বাবা আহত

নরসিংদী প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ২১:৪৫ ২২ জানুয়ারি ২০২২   আপডেট: ২১:৪৬ ২২ জানুয়ারি ২০২২

হাসপাতালে চিকিৎসাধীন গুলিবিদ্ধ যুবক

হাসপাতালে চিকিৎসাধীন গুলিবিদ্ধ যুবক

নরসিংদী সদর উপজেলার নুরালাপুরে শত্রুতার জের ধরে প্রতিপক্ষের হামলায় মেহেদী হাসান পিয়াল নামে এক যুবক গুলিবিদ্ধ হয়েছেন। একই হামলায় আহত হয়েছেন গুলিবিদ্ধ যুবকের বাবা হারুন মিয়া (হারুন মেম্বার)।

শনিবার (২২ জানুয়ারী) বিকেলে নুরালাপুর ইউনিয়নের মাটিয়ালকান্দা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। 

আহত হারুন মিয়া জানান, স্থানীয় ঈদগাহ ও কবরস্থান নিয়ে ২০১৭ সালে একই ইউনিয়নের মাটিয়ালকান্দা ও সামতলী গ্রামের মধ্যে একটি সংঘর্ষ হয়। ঐ ঘটনাকে কেন্দ্র করে সামতলী গ্রামবাসীর পক্ষে আফজল হোসেন মাটিয়ালকান্দা গ্রামের ১৯ জনকে আসামি করে একটি মামলা করেন। অপরদিকে মাটিয়ালকান্দা গ্রামের পক্ষে নুরু মিয়া বাদী হয়ে সামতলী গ্রামের কয়েকজনকে আসামি করে একটি মামলা করা হয়। 

সম্প্রতি স্থানীয় নুরালাপুর ইউপি চেয়ারম্যান সাদেকুল ইসলাম ফয়সাল উপস্থিত থেকে দুই গ্রামের শান্তিপূর্ণ পরিবেশ ফিরিয়ে আনতে বিষয়টি মীমাংসা করে দেন। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে মাটিয়ালকান্দা গ্রামের নজুমুদ্দীন ভূইয়ার ছেলে নাসির উদ্দিন ভূইয়া, একাব্বর ভূইয়া, তার ছেলে সুমন ভূইয়া, সুজন ভূইয়া ও  সাদেক ভূইয়ার ছেলে হিমেল ভূইয়াসহ ১০-১৫ জন পূর্ব পরিকল্পিতভাবে এই হামলা চালায়। 

এ সময় সুমন ভূইয়ার পিস্তলের গুলিতে ছেলে মেহেদী হাসান পিয়াল (২৫) গুলিবিদ্ধ হয়। হামলায় আহত হন পিয়ালের বাবা হারুন মিয়াও। হামলার পর আশপাশের লোকজন ছুটে আসলে হামলাকারীরা পালিয়ে যায়। এ সময় লোকজন তাদের উদ্ধার করে নরসিংদী সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন।

হাসপাতালের চিকিৎসক ডা. আশাদ আব্দুল্লাহ খান জানান, এমন একটি ঘটনার দুজন রোগী নরসিংদী সদর হাসপাতালে আনা হয়েছে। তাদের হাসপাতালের পক্ষ থেকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। পরবর্তীতে মেহেদী হাসান পিয়ালকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজে পাঠানো হয়েছে।

এদিকে ঘটনার খবর পেয়ে মাধবদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সৈয়দুজ্জামান সদর হাসপাতালে আহতদের সঙ্গে কথা বলে ঘটনার খোঁজখবর নেন। এ ঘটনায় এখনো পর্যন্ত কোনো মামলা হয়নি বলে জানান ওসি সৈয়দুজ্জামান।

ডেইলি বাংলাদেশ/জেএইচ

English HighlightsREAD MORE »