আঙুলের ছাপ নিয়ে তুলকালাম, পুত্রবধূ থানায় যেতেই শ্বশুরের মৃত্যু

ঢাকা, বুধবার   ১৮ মে ২০২২,   ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯,   ১৬ শাওয়াল ১৪৪৩

Beximco LPG Gas

আঙুলের ছাপ নিয়ে তুলকালাম, পুত্রবধূ থানায় যেতেই শ্বশুরের মৃত্যু

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১২:৫৪ ৪ জানুয়ারি ২০২২   আপডেট: ১৪:২৬ ৪ জানুয়ারি ২০২২

শিক্ষকের আঙুলে কালি -ছবি: সংগৃহীত

শিক্ষকের আঙুলে কালি -ছবি: সংগৃহীত

৪৬ বছর বয়সী রবীন্দ্রনাথ রায় সরকার। ছিলেন স্কুলশিক্ষক। অবসর নেয়ার পর বেশ কিছুদিন ধরে ছিলেন অসুস্থ। সোমবার অসুস্থতা আরো বাড়তে থাকে। আর বাঁচবেন না ভেবে দূর-দূরান্তের স্বজনদের খবর দেন পরিবারের লোকজন। এছাড়া মৃত্যুশয্যা শ্বশুরের শরীরে তেল মালিশ করতে যান পুত্রবধূ। মালিশ করতে গিয়েই দেখেন শ্বশুরের দুই হাতের বৃদ্ধাঙ্গুলিতে কালি। আঙুলের ছাপ নেয়া হয়েছে কিছুক্ষণ আগেই। বিষয়টি জানাজানি হলে এলাকায় দেখা দেয় চাঞ্চল্য। সন্ধ্যায় মারা যান রবীন্দ্রনাথ।

এ ঘটনায় সোমবার সন্ধ্যায় নাগেশ্বরী থানায় একটি জিডি করেছেন শিক্ষকের পুত্রবধূ অঞ্জনা রানী। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার হাসনাবাদ ইউনিয়নের খামার হাসনাবাদ সেনপাড়া গ্রামে।

স্থানীয়রা জানায়, অসুস্থ রবীন্দ্রনাথ সরকারের সেবা-যত্ন করার সময় দুই হাতের বৃদ্ধাঙ্গুলিতে কালি দেখতে পান স্বজনরা। এতে পরিবারের সদস্যদের সন্দেহ হলে নাগেশ্বরী থানায় অভিযোগ করতে গেলে তিনি মারা যান।

পরিবারের অভিযোগ, তাদের ক্ষয়ক্ষতি এবং সম্পদ আত্মসাতের উদ্দেশ্যে একটি স্বার্থান্বেষী মহল এ কাণ্ড ঘটিয়েছে। ছাপ নেয়ার পরে তার রহস্যজনকভাবে মৃত্যু হয়েছে। তাই ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত করে দৃষ্টান্তমূলক বিচার দাবি করেছেন পরিবারের সদস্যরা।

মৃত শিক্ষকের পুত্রবধূ অঞ্জনা রানী বলেন, অসুস্থ বাবার শরীরে তেল মালিশ করতে গিয়ে আঙ্গুলে কালির ছাপ দেখতে পাই। কে বা কারা এটি করেছে আমাদের জানা নেই। তবে যে এ ঘৃণ্য কাজ করুক আমাদের ক্ষতির জন্য বা সম্পদ হাতিয়ে নেয়ার উদ্দেশ্যে করেছে। পরে বিষয়টি নিয়ে নাগেশ্বরী থানায় অভিযোগ দিতে গেলে সন্ধ্যায় বাবার মৃত্যু হয়। বিষয়টি নিয়ে আমরা চিন্তিত, ভবিষ্যতে যেন কেউ আমাদের কোনো ক্ষতি করতে না পারে এজন্য প্রশাসনের সহযোগিতা চাই। 

মৃত শিক্ষকের মেয়ে রত্না রানী জানান, কোনো একটি মহল ভবিষ্যতে আমাদের ক্ষয়ক্ষতিসহ অর্থ সম্পদ হাতিয়ে নেয়ার জন্য সবার অজান্তে বাবার দুই হাতের বৃদ্ধাঙ্গুলির টিপ সই নিয়েছেন।

নাগেশ্বরী উপজেলার হাসনাবাদ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. নুরুজ্জামান বলেন, সরেজমিনে গিয়ে মৃত স্কুলশিক্ষকের হাতের আঙুলে কালির ছাপ দেখতে পেয়েছি। তাই পরিবারের লোকজনকে নিয়ে থানায় জিডি করা হয়েছে।

কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরী থানার ওসি (তদন্ত) পলাশ চন্দ্র জানান, এ ব্যাপারে একটি জিডি করেছেন মৃত স্কুল শিক্ষকের পুত্রবধূ। বিষয়টি তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমআর

English HighlightsREAD MORE »