ভারপ্রাপ্তদের ভারে ন্যুব্জ বেতাগীর ২৭ বিদ্যালয় 

ঢাকা, মঙ্গলবার   ১৮ জানুয়ারি ২০২২,   ৫ মাঘ ১৪২৮,   ১৩ জমাদিউস সানি ১৪৪৩

ভারপ্রাপ্তদের ভারে ন্যুব্জ বেতাগীর ২৭ বিদ্যালয় 

হাফিজুর রহমান, বরগুনা ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৮:০৪ ৩০ নভেম্বর ২০২১  

জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিস বরগুনা ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিস বরগুনা ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

বরগুনার বেতাগী উপজেলায় ১২৯টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ১০২টি প্রধান ও সহকারী শিক্ষকের পদ শূন্য রয়েছে। এর মধ্যে প্রধান শিক্ষকের পদ শূন্য রয়েছে ২৭টি। এসব বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষকের শূন্যপদ ভারপ্রাপ্তদের দিয়ে চলছে। এতে ব্যাহত হচ্ছে প্রাথমিক শিক্ষা। 

প্রধান শিক্ষক পদশূন্য বিদ্যালয়গুলোর মধ্যে অন্যতম হলো- দক্ষিণ ফুলতলা মোস্তফা কামাল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, পূর্ব হোসনাবাদ মোহাম্মাদিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, দেশান্তরকাঠি এমএ খান প্রাথমিক বিদ্যালয়, আয়লা চান্দখালী প্রাথমিক বিদ্যালয়, দক্ষিণ করুনা প্রাথমিক বিদ্যালয়, মধ্য কাজিরাবাদ প্রাথমিক বিদ্যালয় ও বদনীখালী প্রাথমিক বিদ্যালয়। 

জানা যায়, বেতাগী উপজেলার ৭টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভায় মোট ১২৯টি প্রাথমিক বিদ্যালয় রয়েছে। এসব বিদ্যালয়ে ১২৯টি প্রধান শিক্ষক এবং ৬৪৪টি সহকারী শিক্ষকের পদ রয়েছে। এর মধ্যে বর্তমানে প্রধান শিক্ষক রয়েছেন ৪৮ জন এবং প্রধান শিক্ষক (চলতি দায়িত্ব) রয়েছেন ৫৪ জন। বাকি ২৭টি বিদ্যালয় চলছে ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক (সহকারী শিক্ষক) দিয়ে। এ ছাড়া ১২৯টি বিদ্যালয়ে মোট ৬৩ জন সহকারী শিক্ষকের পদ শূন্য রয়েছে। 

দক্ষিণ ফুলতলা মোস্তফা কামাল প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাতা মোস্তফা কামাল বলেন, আমাদের স্কুলের প্রধান শিক্ষক পদটি দীর্ঘদিন ধরে শূন্য। সহকারী শিক্ষক দিয়েই চলছে স্কুল। যিনি প্রধান শিক্ষকের দায়িত্বে থাকেন তিনি সব সময় স্কুলের খাতাপত্র নিয়ে ব্যস্ত থাকেন। এ জন্য তিনি শিক্ষার্থীদের পাঠদানে তেমন মনোযোগ দিতে পারেন না।

উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার মো. জাহাঙ্গীর আলম বলেন, যেসব বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষক ও সহকারী শিক্ষক পদ শূন্য রয়েছে তার তালিকা কর্তৃপক্ষের কাছে পাঠানো হয়েছে। দ্রুত শূন্যপদগুলো পূরণ করা হবে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকে

English HighlightsREAD MORE »