ব্যবসায়ীর গুদামে মিলল দশ টাকা কেজির ১১ টন চাল 

ঢাকা, বুধবার   ০৮ ডিসেম্বর ২০২১,   অগ্রহায়ণ ২৪ ১৪২৮,   ০২ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৩

ব্যবসায়ীর গুদামে মিলল দশ টাকা কেজির ১১ টন চাল 

বগুড়া প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৮:৫৩ ২৭ অক্টোবর ২০২১  

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

বগুড়ার আদমদীঘি উপজেলায় আল মামুন নামে ৪৫ বছর বয়সী এক ব্যবসায়ীর গুদাম থেকে ১০ টাকা কেজি দরের পৌনে ১১ টন (১০ হাজার ৭০০ কেজি) চাল উদ্ধার করা হয়েছে।

বুধবার বিকেলে এ ঘটনায় আদমদীঘি থানায় মামলা করা হয়। এর আগে মঙ্গলবার রাতে উপজেলার নশরতপুর বাজার এলাকা থেকে চাল উদ্ধার করা হয়। ওই সময় গুদাম মালিক আল মামুনসহ কর্মচারীরা পালিয়ে যায়।

আল মামুন উপজেলার নশরতপুর ইউপির পূর্ব ডালম্বা গ্রামের একরাম আলীর ছেলে।

জানা গেছে, আল মামুন নশরতপুর বাজারে চালের ব্যবসায় করেন। তিনি সরকারি খাদ্যবান্ধব কর্মসূচির ১০ টাকা কেজি দরের চাল কেনেন। চালগুলো তার গুদামে রাখেন। এমন সংবাদের ভিত্তিতে মঙ্গলবার রাতে সেখানে ভ্রাম্যমাণ আদালত অভিযান পরিচালনা করেন এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট ও ইউএনও  শ্রাবনী রায়। 

ওই সময় খাদ্য অধিদফতরের ছাপানো ২১৪টি চটের বস্তায় থাকা ১০ হাজার ৭০০ কেজি চাল ঢেলে প্লাস্টিক বস্তায় রিপ্যাক করা হচ্ছিল। অভিযানে চালগুলো উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি। ভ্রাম্যমাণ আদালতে উপস্থিতি টের পেয়ে পালিয়ে যান ব্যবসায়ী আল মামুন ও তার কর্মচারীরা।

ইউএনও শ্রাবনী রায় বলেন, অবৈধভাবে চাল মজুদ রাখার ঘটনায় মামলা হয়েছে। উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক কর্মকর্তাকে মামলা নির্দেশ দেয়া হয়েছিল। 

ডেইলি বাংলাদেশ/এমকে

English HighlightsREAD MORE »