প্রেমিকা ও তার মা-বাবাকে পেটাল প্রেমিকের পরিবার

ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ০২ ডিসেম্বর ২০২১,   অগ্রহায়ণ ১৮ ১৪২৮,   ২৫ রবিউস সানি ১৪৪৩

বিয়ের দাবিতে অনশন

প্রেমিকা ও তার মা-বাবাকে পেটাল প্রেমিকের পরিবার

ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৬:০৬ ২৫ অক্টোবর ২০২১  

প্রেমিকের পরিবারের মারধরে অচেতন হয়ে পড়েন প্রেমিকা, হাসপাতালে নেয় পুলিশ

প্রেমিকের পরিবারের মারধরে অচেতন হয়ে পড়েন প্রেমিকা, হাসপাতালে নেয় পুলিশ

ঠাকুরগাঁওয়ে বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাড়িতে অনশন শুরু করেছিল এক তরুণী। ঐ সময় তাকে দেখে বাড়ি ছেড়ে পালিয়ে গেছে প্রেমিক। এক পর্যায়ে ঐ তরুণী ও তার মা-বাবাকে মারধর করে প্রেমিকের পরিবার।

রোববার চাঞ্চল্যকর এ ঘটনা ঘটেছে ঠাকুরগাঁও শহরের হাজীপাড়ায়। এ ঘটনা ছড়িয়ে পড়লে ঘটনাস্থলে ভিড় করে উৎসুক লোকজন।

জানা গেছে, ছয় মাস আগে হাজীপাড়ার বাসিন্দা ঐ তরুণীর সঙ্গে পরিচয় হয় একই এলাকার যুবক নাহিদের সঙ্গে। কথাবার্তার এক পর্যায়ে তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। ধীরে ধীরে দুইজনের প্রেম গড়ায় শারীরিক সম্পর্কে। এর কিছুদিন পরই নাহিদ ঐ তরুণীর সঙ্গে যোগাযোগ বন্ধ করে দেন। পরে তার প্রেমিকা খবর পান- নাহিদের অন্যত্র বিয়ে ঠিক হয়েছে। এরপরই তিনি নাহিদের বাড়িতে বিয়ের দাবিতে অনশন শুরু করেন।

ভুক্তভোগী তরুণী বলেন, নাহিদ বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে আমার সঙ্গে শারীরিক সম্পর্কে লিপ্ত হয়েছে। আমাদের প্রেম ও অন্তরঙ্গ মুহূর্তের অনেক প্রমাণ আমার কাছে আছে। সেগুলো নিয়েই আমি নাহিদের বাড়ির সামনে অনশন করছি। কিন্তু তার পরিবার আমাকে মেনে না নিয়ে উল্টো মারধর করেছে। এখন নাহিদ আমাকে বিয়ে না করলে আমি এখান থেকে যাব না।

স্থানীয় সূত্র জানায়, নাহিদের পরিবারের মারধরে ঐ তরুণী অচেতন হয়ে পড়েছিলেন। এমনকি তার মা-বাবাকেও মারধর করা হয়েছে। পরে পুলিশের সহায়তায় তাদের উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

সদর থানার এসআই পিযুষ কান্তি জানান, আহত তরুণী ঠাকুরগাঁও আধুনিক সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর