দিনাজপুরে নাশকতা পরিকল্পনাকারী সন্দেহে আটককৃত ১১ জনের বিরুদ্ধে মামলা

ঢাকা, শনিবার   ১৬ অক্টোবর ২০২১,   কার্তিক ১ ১৪২৮,   ০৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

দিনাজপুরে নাশকতা পরিকল্পনাকারী সন্দেহে আটককৃত ১১ জনের বিরুদ্ধে মামলা

দিনাজপুর প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ০২:১৭ ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১   আপডেট: ০২:১৮ ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১

চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত, দিনাজপুর

চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত, দিনাজপুর

দিনাজপুরের তিন উপজেলায় অভিযান চালিয়ে নাশকতা পরিকল্পনাকারী সন্দেহে ৪২ জনকে আটক করেছে কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিট ও জেলা পুলিশ। তাদের মধ্যে ১১ জনকে আসামি করে তিনটি মামলা হয়েছে। এসব মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে ওই ১১ জনকে আদালতে হাজির করে রিমান্ড আবেদন করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার রাতে দিনাজপুর সদর ও বিরল এবং বোচাগঞ্জ থানার বিভিন্ন এলাকায় এ অভিযান চালানো হয়।

দিনাজপুর আদালত পুলিশের পরিদর্শক মনিরুজ্জামান জানান, ১১ জনের বিরুদ্ধে পাঁচদিন করে রিমান্ড আবেদন করা হয়েছে। দিনাজপুর আমলী আদালত-৫ এর জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক লিমেন্ট রায় রিমান্ড শুনানির জন্য ২১ সেপ্টেম্বর দিন ধার্য করেছেন।

এর আগে, শুক্রবার রাতে আটককৃতদের মধ্যে কোতোয়ালি থানায় পাঁচজন, বিরল থানায় তিনজন এবং বোচাগঞ্জ থানায় তিনজনকে আসামি করে মামলা করা হয়েছে। প্রতিটি মামলায় গ্রেফতারকৃতরা ছাড়া আরো কয়েকজনকে অজ্ঞাত আসামি করা হয়েছে।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, তিনটি উপজেলা থেকে ৪২ জনকে আটক করা হয়েছিল। তাদের মধ্যে ১৯ জনের বিরুদ্ধে জঙ্গি সংশ্লিষ্টতা পায় কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিট। ১১ জনের বিরুদ্ধে পুলিশ বাদি হয়ে তিনটি মামলা করে। আটজনকে অধিকতর জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ঢাকায় নেয়া হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে আগেই বিভিন্ন থানায় মামলা রয়েছে। বাকিদের মুচলেকা নিয়ে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

জেলা পুলিশ জানায়, ১১ আসামির মধ্যে পাঁচজনের বিরুদ্ধে দিনাজপুর সদর থানায় মামলা হয়েছে। তারা হলেন- ঝিনাইদহ সদরের হরিকুণ্ডু গ্রামের আবুল কাশেমের ছেলে রেদোয়ানুল হক কাফি, রাজধানীর মিরপুরের কামাল উদ্দীন মজুমদারের ছেলে সাখাওয়াত আহমেদ বিন কামাল, চট্টগ্রামের মিরসরাই থানার ওয়াহেদপুরের রুহুল আমিনের ছেলে মহসিন ভূঁইয়া, কিশোরগঞ্জের হোসেনপুর থানার চরহটর আলগি গ্রামের হাবিবুর রহমানের ছেলে আব্দুর রহমান ওরফে আব্দুল্লাহ এবং রাজধানীর মোহাম্মদপুরের আজিজ মহল্লার পাইনিওয়ার হাউজিং কলোনির ওবায়দুল বারীর ছেলে নাফিস হাবিব।

বিরল থানায় দায়েরকৃত মামলায় তিনজনকে আসামি করা হয়েছে। তারা হলেন- রংপুরের বদরগঞ্জ উপজেলার মধুপুর দৌলাপাড়ার রফিকুল ইসলামের ছেলে ওয়াহেদুজ্জামান, কাউনিয়া থানার নিজপাড়া গ্রামের জামাল উদ্দীনের ছেলে মনিরুল ইসলাম এবং নীলফামারীর সৈয়দপুর উপজেলার হাতিখানা নতুন বাবুপাড়ার আব্দুস সামাদ সাহেদের ছেলে সজল ওরফে সাব্বির আহমেদ। এছাড়া বোচাগঞ্জ থানায় দায়েরকৃত মামলার তিন আসামি হলেন- রংপুর কোতোয়ালি থানার মুন্সিপাড়ার নকিম উদ্দীনের ছেলে আবু সায়েদ হাসান ওরফে রূপম, রাজধানীর শ্যামপুর থানার রামুরহাট রক্তিম জুরায়েন গ্রামের মোস্তফা খানের ছেলে মো. জুনায়েদ খান এবং দিনাজপুরের বোচাগঞ্জ উপজেলার বরুয়াদৌলা গ্রামের ইয়াকুব মিয়ার ছেলে হুমায়ুন কবির।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর