মাকে শয়নকক্ষে কুপিয়ে হত্যা, নিথর দেহের পাশে কাঁদছিল শিশুকন্যা

ঢাকা, সোমবার   ২৫ অক্টোবর ২০২১,   কার্তিক ১০ ১৪২৮,   ১৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

মাকে শয়নকক্ষে কুপিয়ে হত্যা, নিথর দেহের পাশে কাঁদছিল শিশুকন্যা

চাঁদপুর প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ০৯:৫৬ ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১  

নিহত প্রিয়া

নিহত প্রিয়া

চাঁদপুরের শাহরাস্তিতে নওরোজ আফরিন প্রিয়া নামে এক গৃহবধূকে কুপিয়ে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। বৃহস্পতিবার রাত ৮টার দিকে উপজেলার রায়শ্রী দক্ষিণ ইউনিয়নের আহাম্মদ নগর ছোটপোদ্দার বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত প্রিয়া ওই এলাকার প্রবাসী ইসমাইল হোসেনের একমাত্র মেয়ে। তার শ্বশুরবাড়ি কুমিল্লায়। স্বামী হৃদয় চৌধুরী। অহনা নামের দুই বছরের একটি শিশু সন্তান রয়েছে তার।

পুলিশ সুপার মিলন মাহমুদ বলেন, প্রিয়া পাঁচদিন আগে স্বামীর বাড়ি থেকে বাপের বাড়ি বেড়াতে আসেন। ঘটনার সময় ঘরে তিনি ও তার শিশুকন্যা বাসায় ছিলেন। ঘর থেকে প্রিয়ার ক্ষতবিক্ষত মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

তিনি বলেন, বাড়িটি নিরিবিলি এলাকায় ছিল। এই বাড়ির আশপাশের বাড়িগুলো দূরে অবস্থিত। তবে ঘরের কোনো মূল্যবান জিনিসপত্র চুরির আলামত দেখা যায়নি। ঠিক কী কারণে এই হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে তা এখনো নিশ্চিত নই।

পুলিশ সুপার বলেন, দুর্বৃত্তরা মাকে হত্যা করলেও তার শিশুটিকে অক্ষত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়েছে। সে তার মায়ের মরদেহের পাশে বসে কাঁদছিল।

তিনি আরও বলেন, আমরা ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের ধরতে কাজ শুরু করেছি। পুলিশের একাধিক টিম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। 

প্রিয়ার মা রুমি আক্তার আহাজারি করতে করতে জানান, আমার নাতিন অসুস্থ থাকায় তার জন্য ওষুধ আনতে পাশের বাড়ির স্থানীয় এক চিকিৎসকের কাছে যাই। ঘরে এসে দেখি আমার মেয়ে রক্তাক্ত অবস্থায় নিথর পড়ে আছে। কারা আমার এই সর্বনাশ করেছে আমি জানি না। আমার এত বড় শত্রু আছে বলেতো জানি না। 

প্রিয়ার একমাত্র ভাই পরশ জানায়, পাঁচদিন আগে দুলাভাইসহ আপু বাড়ি আসেন। কয়েকদিন বেড়ানোর পরে দুলাভাই কুমিল্লা চলে যান। আজকে সন্ধ্যার পরে আমি বাজারে যাই। রাতে শুনি আমার আপুকে কারা যেন হত্যা করেছে। 

শাহরাস্তি থানার ওসি মো. আবদুল মান্নান বলেন, প্রিয়াকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে বলে আমরা প্রাথমিকভাবে ধারণা করছি। তার শরীরের বিভিন্ন স্থানে গভীর ক্ষত চিহ্ন রয়েছে। 

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএম