তিন ছাত্রী নিখোঁজের ঘটনায় পুলিশের হেফাজতে চার শিক্ষক, মাদরাসা বন্ধ

ঢাকা, রোববার   ১৭ অক্টোবর ২০২১,   কার্তিক ৩ ১৪২৮,   ০৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

তিন ছাত্রী নিখোঁজের ঘটনায় পুলিশের হেফাজতে চার শিক্ষক, মাদরাসা বন্ধ

ইসলামপুর (জামালপুর) প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৯:৪৯ ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২১   আপডেট: ১৯:৫০ ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২১

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

ছবি: ডেইলি বাংলাদেশ

জামালপুরের ইসলামপুর উপজেলার গোয়ালেরচর ইউনিয়নের বাংলাবাজার সভুকড়া দারুতাক্কুয়া মহিলা কওমি মাদরাসা থেকে নিখোঁজ হওয়া তিন ছাত্রীর সন্ধান মেলেনি তিনদিনেও। এ ঘটনায় জানাজানি হলে মঙ্গলবার চার শিক্ষককে হেফাজতে নিয়ে মাদরাসাটি বন্ধ করে দিয়েছে পুলিশ।

ওই শিক্ষকরা হলেন- মুহতামিম মাওলানা আসাদুজ্জামান, ইলিয়াস আহাম্মদ, রাবিয়া বেগম ও শুকরিয়া বেগম।

এর আগে, রোববার ভোরে মীম, মনিরা ও সূর্য বানু নামে ওই মাদরাসার দ্বিতীয় শ্রেণির তিন ছাত্রী নিখোঁজ হয়। ওই ঘটনায় সোমবার বিকেলে ইসলামপুর থানায় জিডি করেন মাদরাসার মুহতামিম মাওলানা আসাদুজ্জামান।

মীমের মা হাসিনা বেগম জানান, গত রোববার দুপুরে মাদরাসা থেকে তাকে জানানো হয় যে- তার মেয়ে সেখানে নেই। এরপর অনেক খোঁজাখুঁজি করেও তাকে পাওয়া যায়নি।

দক্ষিণ সভুকড়া গ্রামে সূর্য বানুর বাড়িতে গিয়ে দেখা গেছে, মেয়ের সন্ধান না পেয়ে সূর্য বানুর বাকপ্রতিবন্ধী মা বেহুলা বেগম শূন্যদৃষ্টিতে তাকিয়ে আছেন।

মাদরাসা সূত্রে জানা গেছে, রোববার ভোরে ফজরের নামাজ পড়ার জন্য সব ছাত্রীকে ডেকে তোলা হয়। সবাই নামাজ পড়তে গেলে ওই তিন ছাত্রী পেছনের জানালা দিয়ে পালিয়ে যায়। পরে তাদের অবিভাবকদের জানানো হয়। এরপর তাদের খোঁজ না পেয়ে সোমবার ইসলামপুর থানায় জিডি করা হয়।

ইসলামপুর থানার ওসি মো. মাজেদুর রহমান জানান, জিজ্ঞাসাবাদের জন্য মঙ্গলবার ভোরে মাদরাসার মুহতামিম মাওলানা আসাদুজ্জামানসহ চার শিক্ষককে হেফাজতে নেয়া হয়েছে।

ইসলামপুর সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার মো. সুমন মিয়া জানান, শিশুদের নিরাপত্তাজনিত কারণে মঙ্গলবার ভোর থেকে মাদরাসাটি বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। হেফাজতে থাকা চার শিক্ষককে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/এআর