নারী ইউপি সদস্যকে মারধর-টাকা লুট, যুবদল নেতাসহ গ্রেফতার ৩

ঢাকা, শনিবার   ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১,   আশ্বিন ৩ ১৪২৮,   ০৯ সফর ১৪৪৩

নারী ইউপি সদস্যকে মারধর-টাকা লুট, যুবদল নেতাসহ গ্রেফতার ৩

খুলনা প্রতিনিধি ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ১৬:৫০ ২ আগস্ট ২০২১   আপডেট: ১৭:১১ ২ আগস্ট ২০২১

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

খুলনায় সংরক্ষিত মহিলা ইউপি সদস্যকে মারধরের অভিযোগে তেরখাদা উপজেলার যুবদল নেতাসহ তিনজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গতকাল রোববার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে খুলনা সদর থানা পুলিশ তাদের গ্রেফতার করে।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন- তেরখাদা উপজেলা যুবদল নেতা মিল্টন মুন্সি, স্বেচ্ছাসেবক দলের আহ্বায়ক সোহাগ মুন্সি, উপজেলার বারাসাত ইউপি চেয়ারম্যান কেএম আলমগীর হোসেন। 

এর আগে, গত ২৮ জুলাই বাদী হয়ে তাদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন একই ইউনিয়নের ৪, ৫, ৬ নম্বর সংরক্ষিত ওয়ার্ডের মহিলা সদস্য রিনা বেগম।

মামলার এজাহারে বলা হয়েছে, গত ২৮ জুলাই সকাল সাড়ে ১০টায় খুলনা থানাধীন জেলখানা ঘাটস্থ টোল প্লাজার সামনে রিনা বেগমকে মারধর করেন যুবদল নেতা মিল্টনসহ গ্রেফতারকৃত ব্যক্তিরা। এছাড়া তারা ওই নারী মেম্বরের কাছে থাকা ১৫ হাজার ২শ’ টাকা লুট করে নেন।

খুলনা সদর থানার ওসি হাসান আল-মামুন বলেন, যুবদল নেতা মিল্টনসহ অভিযুক্ত তিনজনকে গ্রেফতারের পর আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএম/এইচএন