১২ লাখ টাকায় বিক্রি হলো যে ছাগল!

ঢাকা, বুধবার   ২৮ জুলাই ২০২১,   শ্রাবণ ১৩ ১৪২৮,   ১৭ জ্বিলহজ্জ ১৪৪২

১২ লাখ টাকায় বিক্রি হলো যে ছাগল!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক ডেইলি-বাংলাদেশ ডটকম

 প্রকাশিত: ০৮:৫০ ২১ জুলাই ২০২১  

১২ লাখ টাকার ছাগল

১২ লাখ টাকার ছাগল

সাধারণত কুরবানির জন্য গরু কেনার সামর্থ্য না থাকায় অনেকে ছাগলের দিকে ঝুঁকেছেন। আর এ করোনাকালীন অবস্থায় এবারের কুরবানি ঈদে বিপুল সংখ্যক ছাগল বিক্রি হয়েছে।  এবার কুরবানির জন্য একটি ছাগলের দাম উঠল সাড়ে ১২ লাখ টাকা। আর সেই দামে বিক্রিও হয়ে গেল! বড় আকারের কয়েকটি গরুর দামের সমান।

ভারতের গুজরাটের সুরতের এক ব্যবসায়ী ভারতীয় মূদ্রায় ১১ লাখ রুপিতে (বাংলাদেশি মুদ্রায় ১২ লাখ ৫১ হাজার টাকা) ছাগলটি কিনে নিয়েছেন।  

ছাগলটি বিক্রিও তার দামের বিষয়ে বিক্রেতা আসফাক জানিয়েছেন, এটি পাঞ্জাবের বিঠল প্রজাতির। নাম তৈমুর। বিঠল প্রজাতির বিশেষত্ব এদের উঁচু নাক হয় আর আকৃতিতে বিশাল। তৈমুর উচ্চতায় ৪৬ ইঞ্চি, ওজন ১৯২ কেজি। ছোট আকারের গরুর মতোই বড় হয় এ প্রজাতির ছাগল।

সুরতের সাগরামপুরার বাসিন্দা আসফাক আরো জানান,দীর্ঘদিন ধরেই ছাগল বিক্রি করে আসছেন তিনি। এবারের ঈদুল আজহাকে সামনে রেখে কাশ্মীর, কাঠিয়াওয়াড়ি জেটা, কোটা, সিরোনসহ নানা প্রজাতির ছাগল নিয়ে এসেছিলেন বাজারে। সবই ভাল দামে বিক্রি হয়েছে। তবে সবচেয়ে বেশি দাম পেয়েছেন পাঞ্জাবের বিঠল প্রজাতির তৈমুরে। নাকের অদ্ভুত আকৃতির জন্যই ক্রেতাদের কাছে এই প্রজাতির বেশি কদর রয়েছে।

তিনি বলেন, কুরবানির জন্য প্রতি বছরই এই সময় চড়া দামে ছাগল বিক্রি হয়। এমনকি অনলাইনেও চলে কেনাকাটা। অসুস্থ বা আঘাত পাওয়া ছাগলকে কুরবানি দেওয়া যায় না। স্বাভাবিকভাবেই ভাল ছাগল পেতে ভাল দাম দিয়ে কেনেন ক্রেতারা।

ডেইলি বাংলাদেশ/আরএস